প্রস্তাবিত বাজেট নারী উদ্যোক্তাবান্ধব হয়নি: ওয়েন্ড

Send
বাংলা ট্রিবিউন রিপোর্ট
প্রকাশিত : ১৯:৩১, জুন ১৮, ২০১৯ | সর্বশেষ আপডেট : ১৯:৩৭, জুন ১৮, ২০১৯

বাজেট নিয়ে ওয়েন্ড এর সংবাদ সম্মেলন

২০১৯-২০ অর্থবছরের প্রস্তাবিত বাজেট নারী উদ্যোক্তাবান্ধব হয়নি বলে মন্তব্য করেছেন উইমেন এন্ট্রাপ্রেনিউরশিপ নেটওয়ার্ক ফর ডেভেলপমেন্ট অ্যাসোসিয়েশন (ওয়েন্ড)। সংগঠনটির প্রেসিডেন্ট ড. নাদিয়া বিনতে আমিন বলেন, সার্বিকভাবে বিবেচনা করলে আমরা বলতে পারি প্রস্তাবিত বাজেটটি ক্ষুদ্র ও মাঝারি শিল্প অর্থাৎ এসএমইবান্ধব। তবে এটি নারী উদ্যোক্তাবান্ধব নয়। এ বাজেটে আমাদের মতো নারী উদ্যোক্তাদের আশার প্রতিফলন হয়নি।

মঙ্গলবার (১৮ জুন) রাজধানীর ইকোনোমিক রিপোর্টার্স ফোরাম (ইআরএফ) মিলনায়তনে প্রস্তাবিত ২০১৯-২০ অর্থবছরের বাজেটে নারী উদ্যোক্তা ও ব্যবসায়ীদের জন্য কী রাখা হয়েছে শীর্ষক এক সংবাদ সম্মেলনে তিনি এ কথা বলেন।

নাদিয়া বিনতে আমিন বলেন, আয়করের ক্ষেত্রে নারীদের জন্য বর্তমানে প্রচলিত করমুক্ত আয় সীমা তিন লাখ টাকার পরিবর্তে পাঁচ লাখ টাকায় উন্নীত করার দাবি জানানো হলেও প্রস্তাবিত বাজেটে এ হার অপরিবর্তিত রাখা হয়েছে। তিন লাখ থেকে পাঁচ লাখ টাকায় উন্নীত করলে নারী উদ্যোক্তারা মূলধন পুনঃযোগান ও গঠনে সহযোগিতা পেত বলে মনে করেন তিনি।

তিনি বলেন, নারী উদ্যোক্তাদের দ্বারা পরিচালিত করপোরেট ও কোম্পানিগুলোর করহার হ্রাসের দাবি জানানো হলেও প্রস্তাবিত বাজেটে এ দাবি আমলে না নিয়ে আগের প্রচলিত হার অব্যাহত রাখার প্রস্তাব করা হয়েছে। নারী উদ্যোক্তাদের এই সুপারিশ আমলে না নেওয়ায় ওয়েন্ড হতাশা ব্যক্ত করছে। নারী দ্বারা পরিচালিত কোম্পানিগুলোতে আমদানি রফতানি শুল্কহার হ্রাস করা হলে তা নারী উদ্যোক্তাদের জন্য আরও ব্যবসা প্রসারবান্ধব হতো বলে মনে করেন তিনি।

নারী উদ্যোক্তাদের জন্য সরকারের প্রতি একটি ট্রেনিং ইনস্টিটিউট প্রতিষ্ঠার দাবি জানানো হলেও বাজেটে এ বিষয়ে কোনও ইঙ্গিত নেই। দেশের আটটি বিভাগে নারী উদ্যোক্তাদের বিভিন্ন বিষয়ে পরামর্শ প্রদান ও ব্যবসায়িক কার্যক্রমে সহযোগিতা প্রদানের লক্ষ্যে প্রতি বিভাগে একটি করে সাপোর্ট সেন্টার করবার জন্য ইতোপূর্বে অনুরোধ জানানো হলেও এ বিষয়েও বাজেটে কোনও আলোকপাত করা হয়নি। এছাড়া সরকার কর্তৃক প্রতিষ্ঠিত বিভিন্ন ইকোনমিক জোন, এক্সপোর্ট প্রসেসিং জোন, বিসিক শিল্প নগরী, আইটি পার্ক ইত্যাদিতে নারী উদ্যোক্তাদের বিশেষ সুবিধায় প্লট বরাদ্দ করার বিষয়ে কোনও আলোকপাত করা হয়নি।

এ সময় সংগঠনের সাধারণ সম্পাদক জিসান আকতার চৌধুরী, সহ-সভাপতি শামিমা শিরিন লাইজু, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মাহবুবা রব, কোষাধ্যক্ষ জারজিনা খালেদ ও ইসি সদস্য নাদিরা ইয়াসমিন উপস্থিত ছিলেন।

 

/জিএম/টিএন/

লাইভ

টপ