গ্যাস সঞ্চালন সম্প্রসারণে ৩টি গ্যাস ইন্টারফেস মিটারিং নির্মাণে ঠিকাদার নিয়োগ

Send
বাংলা ট্র্রিবিউন রিপোর্ট
প্রকাশিত : ২০:৪৭, জানুয়ারি ০৬, ২০১৬ | সর্বশেষ আপডেট : ২০:৫২, জানুয়ারি ০৬, ২০১৬

গ্যাস সঞ্চালন লাইনসিলেট অঞ্চলের উৎপাদিত অতিরিক্ত গ্যাস বৃহত্তর ঢাকা ও চট্টগ্রামে সরবরাহের লক্ষ্যে প্রায় ৫৩ কোটি টাকা ব্যয়ে আশুগঞ্জ থেকে বাখরাবাদ পর্যন্ত গ্যাস সঞ্চালন সম্প্রসারণে তিনটি ইন্টারফেস মিটারিং নির্মাণের সিদ্ধান্ত নিয়েছে সরকার।
কারিগরিভাবে প্রাথমিক বিবেচনায় ‘অগ্রহণযোগ্য’ সিঙ্গাপুরভিত্তিক প্রতিষ্ঠান ইমারসন প্রসেস ম্যানেজমেন্ট এশিয়া প্যাসিফিক প্রাইভেট লিমিটেড, এই ইন্টারফেস মিটারিং নির্মাণের কাজ পেয়েছে।
জ্বালানি ও খনিজ সম্পদ মন্ত্রণালয় সূত্রে জানা গেছে, এ প্রকল্পের আওতায় আশুগঞ্জ থেকে বাখরাবাদ পর্যন্ত ৩০ ইঞ্চি ব্যাসবিশিষ্ট ৬১ কিলোমিটার পাইপলাইন নির্মাণের লক্ষ্যে কুটুম্বপুর, ফেনী ও বাড়বকুণ্ডে ৩টি ইন্টারফেস মিটারিং নির্মাণ করা হবে।
বুধবার সচিবালয়ে সরকারি ক্রয়-সংক্রান্ত মন্ত্রিসভা কমিটির বৈঠকে এ দর প্রস্তাব অনুমোদন দেওয়া হয়েছে। অর্থমন্ত্রীর অনুপস্থিতিতে শিল্পমন্ত্রী আমির হোসেন আমু বৈঠকে সভাপতিত্ব করেন।

বৈঠক শেষে মন্ত্রিপরিষদ বিভাগের অতিরিক্ত সচিব মোস্তাফিজুর রহমান সাংবাদিকদের জানান, ক্রয় কমিটির বৈঠকে মোট ৮টি প্রস্তাব অনুমোদন দেওয়া হয়েছে।

মন্ত্রণালয় সূত্রে জানা যায়, ২০১৪ সালের ১৮ ডিসেম্বর ৩টি ইন্টারফেস মিটারিং নির্মাণে দুই খামবিশিষ্ট আন্তর্জাতিক দরপত্র আহ্বান করা হলে ছয়টি আবেদন জমা পড়ে। এর মধ্যে মাত্র একটি আবেদন ইতালিয়ান প্রতিষ্ঠান ভালভিটালিয়া স্পা সিস্টেমস ডিভিশন কারিগরিভাবে গ্রহণযোগ্য বলে বিবেচিত হয়। কিন্তু কোম্পানিটির দর প্রাক্কলিত ব্যয় থেকে ২১ শতাংশ বেশি হওয়ায় কাজটি তাদেরকে দেওয়া হয়নি।

পরবর্তী সময়ে কারিগরিভাবে অগ্রহণযোগ্য হিসেবে বিবেচিত ইমারসন প্রসেস ম্যানেজমেন্ট এশিয়া প্যাসিফিক প্রাইভেট লিমিটেডকে অগ্রহণযোগ্যতার কারণ জানানো হয়। এরপর ওই কোম্পানির পক্ষ থেকে দুই দফা ব্যাখ্যার প্রেক্ষিতে দরপত্র মূল্যায়ন কমিটি তা সন্তোষজনক বলে মনে করে এবং ইমারসনকে কার্যাদেশ প্রদানের সুপারিশ করে।

অতিরিক্ত সচিব বলেন, অনুমোদিত প্রকল্পগুলোর মধ্যে ৭৪ কোটি ১৭ লাখ টাকা ব্যয়ে জামালপুরের বকশীগঞ্জ উপজেলায় জব্বারগঞ্জ জিসি-দেওয়ানগঞ্জ ভায়া মাদারের চর সড়কে পুরাতন ব্রহ্মপুত্র নদের উপর ৩ হাজার ৫০০ মিটার চেইনেজ-এ ৫৮৫ মিটার দীর্ঘ পিসি গার্ডার ব্রিজ নির্মাণ কাজের ঠিকাদার নিয়োগ দেওয়া হয়েছে।

এডিবি, ইফাদ ও বাংলাদেশ সরকারের অর্থায়নে পরিচালিত ‘অংশগ্রহণমূলক ক্ষুদ্রকার পানিসম্পদ’ খাত শীর্ষক প্রকল্পের পরামর্শক নিয়োগের (পিআইসি)প্রথম ও দ্বিতীয় ভেরিয়েশন প্রস্তাব অনুমোদন দেওয়া হয়েছে।

৫৮১ কোটি ৩ লাখ টাকা ব্যয়ে ‘কর্ণফুলী পানি সরবরাহ প্রকল্প ফেজ-২’-এর জাইকা অংশের আওতাধীন ও পানি শোধনাগার ও জলাধার নির্মাণের জন্য ঠিকাদার নিয়োগ দেওয়া হয়েছে।

৫৪ কোটি ৩২ লাখ টাকা ব্যয়ে ২৫ হাজার মেট্রিক টন মোড়কজাত দানাদার ইউরিয়া সার আমদানির একটি প্রস্তাব অনুমোদন দেওয়া হয়েছে। প্রতি মেট্রিক টন সারের দাম হবে ২৭৩ দশমিক ৩২ ডলার।

‘বাংলাদেশ ট্রেড অ্যান্ড ট্রান্সপোর্ট ফ্যাসিলিটেশন স্টাডিজ রেসিপিয়েন্ট এক্সিকিউটেড ট্রাস্ট ফান্ড প্রজেক্ট’শীর্ষক প্রকল্পে সমীক্ষা কাজের পরামর্শক নিয়োগ দেওয়া হয়েছে। এ কাজে পরামর্শক হিসেবে নিয়োগ পেয়েছে নেদারল্যান্ডের প্রতিষ্ঠান হ্যাসকোনিং ডিএইচভি।

৩৪১ কোটি ২৮ লাখ টাকা ব্যয়ে ঢাকার উত্তরায় ১৮ নম্বর সেক্টরে স্বল্প ও মধ্যম আয়ের জনগোষ্ঠীর জন্য অ্যাপার্টমেন্ট নির্মাণ প্রকল্পের জন্য ঠিকাদার নিয়োগ দেওয়া হয়েছে। ৮টি ভবনে ১ হাজার ২৫০ বর্গফুট আয়তনের মোট ফ্ল্যাট সংখ্যা হচ্ছে ৬৭২টি।

৬৭ কোটি ৮০ লাখ টাকা ব্যয়ে বিশ্বব্যাংকের অর্থায়নে গ্যারিকো ফ্রান্স এসএ প্রতিষ্ঠানকে ‘মডার্ন ফুড স্টোরেজ ফ্যাসিলিটিজ’শীর্ষক প্রকেল্পের আওতায় ৮টি আধুনিক স্টিল সাইলো নির্মাণের পরামর্শক নিয়োগ দেওয়া হয়েছে।

/এসআই/এফএইচ/

লাইভ

টপ