স্বামী হত্যার দায়ে স্ত্রীর যাবজ্জীবন কারাদণ্ড

Send
শেরপুর প্রতিনিধি
প্রকাশিত : ১৭:১৯, মার্চ ২১, ২০১৭ | সর্বশেষ আপডেট : ১৭:২৪, মার্চ ২১, ২০১৭

শেরপুরের ঝিনাইগাতীতে ঘুমন্ত অবস্থায় স্বামী সৈয়দুর রহমান ওরফে ফজু মিয়াকে কুপিয়ে হত্যার অভিযোগে স্ত্রী আছমা আক্তার ওরফে আছমাকে (১৯) যাবজ্জীবন কারাদণ্ড দিয়েছেন আদালত। এছাড়াও ১০ হাজার টাকা জরিমানা করা হয়েছে। মঙ্গলবার দুপুরে শেরপুরের অতিরক্তি জেলা ও দায়রা জজ মোহাম্মদ মোছলেহ উদ্দিন এ রায় দেন।
সাজাপ্রাপ্ত আছমা আক্তার ঝিনাইগাতী উপজেলার রামেরকুড়া গ্রামের সৈয়দুর রহমান ওরফে ফজু মিয়ার দ্বিতীয় স্ত্রী।
আদালতের অতিরিক্ত পিপি অ্যাডভোকেট ইমাম হোসেন ঠান্ডু মামলার সংক্ষিপ্ত বিবরণে জানান, শেরপুরের ঝিনাইগাতী উপজেলার রামেরকুড় গ্রামের সৈয়দুর রহমান ওরফে ফজু মিয়া ২০১৪ সালের ২৯ জুলাই রাতে নিজ বসতঘরে ঘুমিয়ে ছিলেন। পারিবারিক কলহের জের ধরে ঘুমন্ত অবস্থায় স্ত্রী আছমা তাকে কুড়াল দিয়ে কুপিয়ে হত্যা করে। পরে প্রতিবেশীরা আছমাকে আটক করে পুলিশে দেয়। এ ঘটনায় নিহতের প্রথম পক্ষের ছেলে হারুন রশিদ বাদী হয়ে ঝিনাইগাতী থানায় একটি হত্যা মামলা দায়ের করেন ।
২০১৪ সালের ২২ সেপ্টেম্বর মামলার তদন্ত কর্মকর্তা আছমা আক্তার ওরফে আছমাকে একমাত্র আসামি করে আদালতে অভিযোগ পত্র দাখিল করেন। বিচারিক প্রক্রিয়া শেষে মঙ্গলবার আসামির উপস্থিতিতে আদালত আছমাকে যাবজ্জীবন কারাদণ্ড দেন। আসামিপক্ষে মামলাটি পরিচালনা করেন অ্যাডভোকেট আবুজর গাফ্ফারি।
/জেবি/

আরও পড়তে পারেন: পীরসহ জোড়া খুন: প্রধান আসামি শফিকুল ৭ দিনের রিমান্ডে

 

 

লাইভ

টপ