Vision  ad on bangla Tribune

বিপদসীমার ওপরে খোয়াই নদীর পানি, স্কুলগুলোকে আশ্রয়কেন্দ্র ঘোষণা

হবিগঞ্জ প্রতিনিধি১৩:০৯, জুন ২০, ২০১৭

টানা দুদিনের ভারি বর্ষণ ও পাহাড়ি ঢলে হবিগঞ্জের খোয়াই নদীর পানি বিপদসীমার ২৭০ সেন্টিমিটার ওপর দিয়ে প্রবাহিত হচ্ছে। পানি বাড়ার ফলে শহর প্রতিরক্ষা বাঁধের বিভিন্ন পয়েন্টে ফাটল দেখা দিয়েছে। শহরের হাজার হাজার লোকজন বাঁধ রক্ষার্থে নদীর পাড়ে অবস্থান করে ফাটলস্থানে বালির বস্তা ফেলে পানি প্রবেশ বন্ধ করার চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছেন।

মঙ্গলবার (২০ জুন) দুপুর ১২টায় শহরের সব দ্বিতলা স্কুলকে আশ্রয় কেন্দ্র হিসেবে ঘোষণা করেছেন জেলা প্রশাসন। ইতোমধ্যে বিষয়টি শহরের মাইকিং করে ঘোষণা করা হয়েছে। হবিগঞ্জ জেলা প্রশাসক সাবিনা আলম বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।
এদিকে পানি উন্নয়ন বোর্ড (পাউবো) ও জেলা প্রশাসনের পক্ষ থেকে সোমবার (১৯ জুন) সন্ধ্যায় মাইকিং করে খোয়াই নদীর পাড়ের বসবাসকারী ও শহরবাসীকে সতর্ক থাকার আহ্বান জানানো হয়।

অভ্যন্তরীণ পানি বৃদ্ধির প্রবাহ কম হলেও মঙ্গলবার সকাল থেকে আবারও পানি বাড়তে থাকায় মানুষের মধ্যে আতঙ্ক ও উৎকণ্ঠা বিরাজ করছে।

সকালে স্থানীয় মাছুলিয়া পয়েন্টে গিয়ে দেখা যায়, হাজার হাজার লোকজন বাঁধের ওপর অবস্থান করছে। এ সময় এলাকাবাসী অভিযোগ করেন, নদীর পানি অব্যাহতভাবে বৃদ্ধি পেলেও প্রশাসন কিংবা পানি উন্নয়ন কর্তৃপক্ষ শহর রক্ষার জন্য কোনও ধরনের প্রদক্ষেন নেয়নি।

দুপুরে হবিগঞ্জ পৌরসভার মেয়র জিকে গউছ বাঁধ পরিদর্শনে যান। এ সময় তিনি সাংবাদিকদের জানান, প্রশাসন তড়িৎ ব্যবস্থা নিলে শহর রক্ষা করা সম্ভব হবে।

হবিগঞ্জ পানি উন্নয়ন বোর্ডের প্রকৌশলী মো. তাওহিদুল ইসলাম জানান, সোমবার বিকাল থেকে হবিগঞ্জে প্রচুর বৃষ্টি হচ্ছে। বৃষ্টির কারণে ও ভারতের ত্রিপুরা রাজ্য থেকে নেমে আসা পাহারি ঢলে খোয়াই নদীর পানি দ্রুত গতিতে বেড়েই চলছে। উজানে বৃষ্টি না হলে বিকালে পানি কমতে পারে।

/এআর/

samsung ad on Bangla Tribune

লাইভ

টপ