৩ সপ্তাহে বাংলাদেশে আসা রোহিঙ্গা শরণার্থী পৌনে ৪ লাখ ছাড়িয়েছে: আইওএম

Send
কক্সবাজার প্রতিনিধি
প্রকাশিত : ২৩:৪০, সেপ্টেম্বর ১৩, ২০১৭ | সর্বশেষ আপডেট : ০০:৪৩, সেপ্টেম্বর ১৪, ২০১৭

আইওএম’র মুখপাত্র ক্রীস লুমমিয়ানমারে গত ২৫ আগস্ট নতুন করে রোহিঙ্গাবিরোধী সহিংসতা শুরুর পর থেকে দলে দলে বাংলাদেশে পালিয়ে আসতে শুরু করেন রোহিঙ্গারা। এরইমধ্যে এ সংখ্যা তিন লাখ ৭৯ হাজার ছাড়িয়েছে বলে জানিয়েছে আন্তর্জাতিক অভিবাসন সংস্থা (আইওএম)। বুধবার রাত সাড়ে ৮টার দিকে আইওএম’র কক্সবাজার অফিসে এক প্রেস ব্রিফিংয়ে এই তথ্য জানানো হয়।

আইওএম’র মুখপাত্র ক্রীস লুম জানান, রাখাইনে সহিংস ঘটনায় প্রতিদিনই সীমান্ত পাড়ি দিয়ে আসছে রোহিঙ্গারা। গত ২৫ আগস্ট থেকে ১২ সেপ্টেম্বর পর্যন্ত ৩ লাখ ৭৯ হাজার রোহিঙ্গা অনুপ্রবেশ করেছে। এ অবস্থা চলতে থাকলে আগামী কয়েকদিনের মধ্যে ৪ লাখে পৌঁছবে।

এসময় ক্রীস লুম আরও বলেন, ‘উদ্বাস্তু হয়ে আসা এসব রোহিঙ্গাদের খাদ্য, বাসস্থান ও স্বাস্থ্য সেবাসহ নানা সুযোগ-সুবিধা দেওয়া হচ্ছে। একই সঙ্গে এসব মানুষের স্বাস্থ্য ঝুঁকি কমাতে ‘আইওএম’র পাশাপাশি কাজ করছে ‘ইউএনএইচসিআর’ সহ বিভিন্ন আন্তর্জাতিক দাতা সংস্থা।

প্রেস ব্রিফিংয়ে ‘ইউএনএইচসিআর’এর কক্সবাজার প্রতিনিধি সৌভিক দাশ টামাল ও জুসেফ ত্রিপুরাসহ বিভিন্ন সংস্থার কর্মকর্তারা।

জাতিসংঘের তথ্যমতে, এ পর্যন্ত ৩ লাখ ৭০ হাজার মানুষ বাংলাদেশে অনুপ্রবেশ করার কথা বলা হলেও স্থানীয় সূত্র মতে এই সংখ্যা আরও বেশি। এর আগে গত বছরের ৯ অক্টোবরের পর থেকে মিয়ানমারের  রাখাইন রাজ্যে একইভাবে হামলার ঘটনা ঘটে। এসময় প্রাণ ভয়ে পালিয়ে আসে প্রায় ৮৭ হাজার রোহিঙ্গা। এরপর আন্তর্জাতিক মহল নানাভাবে চাপ সৃষ্টি করে মিয়ানমার সরকারের ওপর। কিন্তু, এর কোন তোয়াক্কা না করে রাখাইনে ফের সেনা মোতায়েন করলে বিদ্রোহী গ্রুপের সঙ্গে জড়িয়ে পড়ে সে দেশের সেনাবাহিনী ও পুলিশ।

 

/এনআই/

লাইভ

টপ