উত্তরাঞ্চলে ধানের শীষ প্রতীকে প্রার্থীর সন্ধানে মান্নার নাগরিক ঐক্য

Send
লিয়াকত আলী বাদল, রংপুর
প্রকাশিত : ১৭:২৩, নভেম্বর ০৯, ২০১৮ | সর্বশেষ আপডেট : ১৮:৪২, নভেম্বর ০৯, ২০১৮

ধানের শীষ ও নাগরিক ঐক্যের প্রতীক

জাতীয় ঐক্যফ্রন্টের শরিক মাহমুদুর রহমান মান্না নাগরিক ঐক্যের জন্য রংপুরসহ উত্তরাঞ্চলের ১৬ জেলার ৭২ আসনে প্রার্থীর সন্ধানে নেমেছ্নে। ইতোমধ্যে রংপুরের ছয় আসনের মধ্যে তিনটিতে প্রার্থী চূড়ান্ত করেছেন। তারা নাগরিক ঐক্যের প্রার্থী হিসেবে পোস্টারিংও করলেও ধানের শীষ প্রতীকে নির্বাচন করবেন বলে জানা গেছে।

নাগরিক ঐক্যের অন্যতম শীর্ষনেতা ও রংপুর জেলার আহ্বায়ক মোফাখ্খারুল ইসলাম নবাব বাংলা ট্রিবিউনকে জানিয়েছেন, জাতীয় ঐক্যফ্রন্ট নির্বাচনে অংশ নেওয়ার প্রস্তুতি নিচ্ছে। সারা দেশে অন্তত দেড়শ’ আসনে প্রার্থী দেওয়ার চিন্তাভাবনা চলছে। এরই অংশ হিসেবে নাগরিক ঐক্য রংপুরের ছয়টি আসনের মধ্যে তিনটিতে প্রার্থী চূড়ান্ত করেছে। এরমধ্যে রংপুর-১ আসনে রহমতউল্লাহ, রংপুর-৪ আসনে মোস্তফা জাফর হায়দার পাশা এবং রংপুর-৫ আসনে তিনি (নবাব) প্রার্থী হচ্ছেন। রংপুর-২, ৩ ও ৬ আসনে এখনও প্রার্থী চূড়ান্ত হয়নি।

তিনি বলেন, ‘যে তিনটি আসনে আমরা প্রার্থী চূড়ান্ত করেছি, সেসব এলাকায় ইতোমধ্যে প্রার্থীদের ছবি সংবলিত পোস্টার লাগানো হয়েছে।’ রংপুর সদরের তিন আসনে যেহেতু জাপা চেয়ারম্যান এরশাদ একজন শক্তিশালী প্রার্থী, সে কারণে এই আসনে সাবেক নেতা মশিয়ার রহমান যাদু মিয়ার কন্যা রিটা রহমান প্রার্থী হতে পারেন বলে ইঙ্গিত দেন তিনি।

এদিকে, নাগরিক ঐক্যের একজন নেতা নাম প্রকাশ না করার শর্তে জানান, মাহমুদুর রহমান মান্নার সঙ্গে তার গুলশানের বাসায় কয়েক দফা আলোচনা হয়েছে। মান্না তাদের জানিয়েছেন, বিএনপির হাইকমান্ডসহ মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীরের সঙ্গে তার চূড়ান্ত কথা হয়েছে। বিএনপির পক্ষ থেকে বলা হয়েছে, ২০০৭ সাল পর্যন্ত দেশের যেসব আসনে বিএনপি প্রার্থীরা এমপি হিসেবে জয়ী হয়েছিলেন, সেসব আসনেরে মধ্য থেকে সম্মানজনক আসনে নাগরিক ঐক্যের প্রার্থীকে সমর্থন দেওয়া হবে। আর নাগরিক ঐক্যের যেহেতু নিবন্ধন নেই, সে কারণে সবাই ধানের শীষ প্রতীক নিয়ে নির্বাচন করবেন।

নাগরিক ঐক্যের অন্য এক প্রার্থী জানান, জাতীয় ঐক্যফ্রন্ট নির্বাচন করলে ২০ দলীয় জোটসহ একসঙ্গে নির্বাচন করবে। সেক্ষেত্রে এবার আসন ভাগাভাগিতে বিএনপি সর্বোচ্চ ছাড় দেবে বলে তাদের আশ্বস্ত করা হয়েছে। মান্নাকে বগুড়ার শিবগঞ্জ ও ঢাকার একটি আসনে নির্বাচন করার জন্য বিএনপি ছাড় দেবে বলে জানা গেছে।

এ প্রসঙ্গে মোফাখ্খারুল ইসলাম নবাব জানান, রংপুরের ছয়টি আসনের কোনোটিতেই বিএনপি বা তাদের জোটের কোনও নেতা কখনও জয়ী হতে পারেনি। সে কারণে ভালো প্রার্থী পাওয়া গেলে এসব আসনে বিএনপি কোনও প্রার্থী দেবে না। একইভাবে রংপুর ও রাজশাহী বিভাগের যেসব আসনে বিএনপির অবস্থা ভালো নয়, সেসব আসনেও ছাড় দেবে বিএনপি।

তিনি আরও জানান, খুব শিগগিরই বিভিন্ন দলের অনেক নেতা আনুষ্ঠানিকভাবে নাগরিক ঐক্যে যোগ দিচ্ছেন। এ বিষয়ে তিনি বলেন, ‘মান্না এবার দেশবাসীকে চমক দেবেন। অপেক্ষা করুন।’

/এমএএ/এপিএইচ/এমওএফ/

লাইভ

টপ