সিলেটে সড়ক দুর্ঘটনায় নিহত ২

Send
সিলেট প্রতিনিধি
প্রকাশিত : ২২:৫৯, জুন ২৫, ২০১৯ | সর্বশেষ আপডেট : ২৩:০০, জুন ২৫, ২০১৯

সিলেট

সিলেটের বিশ্বনাথ এবং গোপালগঞ্জে পৃথক সড়ক দুর্ঘটনায় দুই জন নিহত হয়েছে। মঙ্গলবার (২৫ জুন) সংশ্লিষ্ট থানা সূত্রে এসব তথ্য জানা গেছে।  

জানা যায়, সিলেটের বিশ্বনাথে সড়ক দুর্ঘটনায় জিহাদুল ইসলাম (২২) নামের এক বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্র নিহত হয়েছেন। তিনি সিলেটের বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয় লিডিং ইউনিভার্সিটির এলএলবি প্রথম বর্ষের ছাত্র ও বিশ্বনাথ উপজেলার অলংকারী ইউনিয়নের অলংকারী গ্রামের কুটির মিয়ার ছেলে। মঙ্গলবার (২৫ জুন) বিকালে উপজেলার পনাউল্লাহ বাজারে এ দুর্ঘটনা ঘটে।

পুলিশ জানায়, নিহত জিহাদুল ইসলাম মঙ্গলবার আড়াইটার দিকে তার ফুফাতো ভাই সুবেল খানকে সঙ্গে নিয়ে মোটরসাইকেলযোগে সিলেট নগরে যাওয়ার উদ্দেশ্যে বাড়ি থেকে বের হন। স্থানীয় পনাউল্লাহ বাজারে অতিক্রম করার সময় জাহিদুলের মোটরসাইকেলের সঙ্গে বিপরীত দিক থেকে আসার একটি মোটরসাইকেলের মুখোমুখি সংঘর্ষ হয়। এসময় গুরুতর আহত হন মোটরসাইকেল আরোহী জিহাদুল ইসলাম, সুবলে খান, জুনেদ মিয়া ও খলিল মিয়া। স্থানীয় লোকজন আহতদের উদ্ধার করে সিলেট ওসমানী মেডিক্যাল কলেজে হাসপাতালে নেওয়ার পথে জিহাদুল ইসলাম মারা যান।

বিশ্বনাথ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) শামসুদ্দোহা বলেন, সড়ক দুর্ঘটনায় বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থী জিহাদুল ইসলাম (২২) নামের এক যুবক মারা গেছেন। পুলিশ ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছে। এছাড়া আরও কয়েকজন আহত হয়েছেন।

অপরদিকে সিলেটের গোলাপগঞ্জে সিলেটের গোলাপগঞ্জে বাস-টেম্পুর সংঘর্ষে সাহেল আহমদ (২৫) এক টেম্পু চালক নিহত হয়েছেন। মঙ্গলবার (২৫ জুন) দুপুরে সিলেট-জকিগঞ্জ সড়কের পৌর এলাকার কদমতলীর খাঁন কমপ্লেক্সের সামনে এই দুর্ঘটনাটি ঘটে। নিহত সাহেল আহমদ উপজেলার ফুলবাড়ি পূর্বপাড়া গ্রামের আব্দুল মতিনের পুত্র।

গোলাপগঞ্জ মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মিজানুর রহমানের ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করেছেন। তিনি বলেন, টেম্পু চালক তিব্বত কোম্পানির পণ্য নিয়ে গোলাপগঞ্জ থেকে সিলেটের দিকে রওয়ানা হন। এসময় সিলেট-জকিগঞ্জ সড়কের কদম গাছের তলস্থ খাঁন কমপ্লেক্সে সামনে এলে পেছন দিক থেকে দ্রুতগ্রামী বাস (সিলেট-জ-১১-০১৮২) সজোরে ধাক্কা দিলে টেম্পু উল্টে যায়। এসময় টেম্পু চালক সাহেল আহমদ ও টেম্পু চালকের সহকারী আলম আহমদ গুরুতর আহত হন। পরে স্থানীয়রা গুরুতর অবস্থায় তাদের সিলেট ওসমানী মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে প্রেরণ করলে সেখানের কর্তব্যরত ডাক্তার টেম্পু চালক সাহেল আহমদকে মৃত ঘোষণা করেন। এ ঘটনার পর বাসচালক গাড়ি রেখে পালিয়ে যায়। পরে পুলিশ বাসটি উদ্ধার করে থানায় নিয়ে যায়।

 

/এএইচ/

লাইভ

টপ