জাল মুক্তিযোদ্ধা সনদে চাকরি, বাবা-মেয়ের বিরুদ্ধে চার্জশিট

Send
বরিশাল প্রতিনিধি
প্রকাশিত : ০৬:৪২, জুলাই ০৬, ২০১৯ | সর্বশেষ আপডেট : ০৬:৪৩, জুলাই ০৬, ২০১৯

বরিশালবরিশালে জাল মুক্তিযোদ্ধা সনদ দিয়ে নারী কনস্টেবল পদে চাকরি নেওয়ার অভিযোগে দায়ের করা মামলায় বাবা-মেয়ের বিরুদ্ধে আদালতে চার্জশিট দেওয়া হয়েছে। বৃহস্পতিবার বিকেলে মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা পুলিশের অপরাধ তদন্ত বিভাগের (সিআইডি) ওসি মো. ফরিদুজ্জামান এ চার্জশিট জমা দেন।

চার্জশিটে অভিযুক্তরা হলেন বরিশাল বন্দর থানার চরকেউটিয়া এলাকার মৃত করিম গাজির ছেলে অবসরপ্রাপ্ত পুলিশ সদস্য (সুবেদার) আব্দুল লতিফ গাজী ও তার মেয়ে নারী পুলিশ কনস্টেবল মিল্কী আক্তার।

মামলা সূত্রে জানা যায়, বাবা আব্দুল লতিফ গাজীর নামের জাল মুক্তিযোদ্ধার সনদ দিয়ে ২০১০ সালের ২০ ফেব্রুয়ারি মুক্তিযোদ্ধা কোটায় নারী কনস্টেবল পদে চাকরি পান মিল্কী আক্তার। চাকরিতে যোগদানের পর মিল্কীর বাবার মুক্তিযোদ্ধা সনদ বাছাই শেষে জানা যায় সেটি জাল।

এর আগে ৬ মাসের ট্রেনিং শেষ করে কনস্টেবল হিসেবে বরিশাল মহানগর পুলিশে যোগ দেন মিল্কী। পরে পুলিশ হেডকোটার্সের নির্দেশে রিজার্ভ পুলিশের এসআই কবির হোসেন ২০১৮ সালের ৬ জুন বাদি হয়ে কোতোয়ালি মডেল থানায় মামলা করেন। ওই মামলায় বাবা-মেয়ে কিছুদিন জেল খাটেন। বর্তমানে তারা জামিনে রয়েছেন।

/এমপি/

লাইভ

টপ