হাসপাতালের আয়ার বাসায় গর্ভপাত, আটক ২

Send
ঝিনাইদহ প্রতিনিধি
প্রকাশিত : ২০:৪৬, জুলাই ২০, ২০১৯ | সর্বশেষ আপডেট : ২০:৪৯, জুলাই ২০, ২০১৯

ঝিনাইদহঝিনাইদহের কোটচাঁদপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের পেছন থেকে এক মেয়ে নবজাতককে উদ্ধার করা হয়েছে। শনিবার (২০ জুলাই) দুপুরে এলাকাবাসী তাকে উদ্ধার করে। এ ঘটনায় নবজাতকের বাবা ও হাসপাতালের আয়াকে আটক করেছে পুলিশ।

কোটাচঁদপুর থানার পরিদর্শক (তদন্ত) ইমরান আলম জানান, কোটচাঁদপুর হাসপাতালের আয়া রিনা খাতুনের বাসায় দুপুরে গর্ভপাতের জন্য যান নওদাগা গ্রামের আক্কাস আলীর স্ত্রী ববিতা খাতুন। আয়া গর্ভপাত করে নবজাতককে ব্যাগে ভরে হাসপাতালের পেছনে ফেলে আসেন। পরে এলাকাবাসী শিশুটির কান্না শুনে তাকে উদ্ধার করে হাসপাতালে ভর্তি করে। এ ঘটনায় পুলিশ জিজ্ঞাসাবাদের জন্য নবজাতকের বাবা আক্কাস আলীকে আটক করা হয়েছে।

কোটচাঁদপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডা. আব্দুল রশিদ জানান, হাসপাতালের পেছন থেকে এলাকাবাসী নবজাতককে উদ্ধার করে। তার অবস্থা আশঙ্কাজনক। নবজাতকের মা  ববিতা খাতুন ও নবজাতকের শারীরিক অবস্থা আশঙ্কাজনক হওয়ায় তাদের যশোর মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে রেফার্ড করা হয়েছে।

রিনা খাতুন কোটচাঁদপুর হাসাপাতালের আয়া নিশ্চিত করে ডা. আব্দুল রশিদ জানান, তার বিরুদ্ধে ওঠা অভিযোগ প্রমাণিত হলে ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

কোটাচাঁদপুর থানার পরিদর্শক (তদন্ত) ইমরান আলম জানান, কোটচাঁদপুর হাসাপাতালের আয়া রিনা খাতুনের বিরুদ্ধে ওঠা অভিযোগের সত্যতা পাওয়ায় তাকে থানায় নিয়ে আসা হয়েছে।

 

/এনআই/

লাইভ

টপ