লাকসামে ছেলেধরা সন্দেহে ভিক্ষুককে গণপিটুনি

Send
কুমিল্লা প্রতিনিধি
প্রকাশিত : ২৩:২৮, জুলাই ২০, ২০১৯ | সর্বশেষ আপডেট : ২৩:২৯, জুলাই ২০, ২০১৯

কুমিল্লা

কুমিল্লার লাকসামে ছেলেধরা সন্দেহে এক ভিক্ষুককে গণপিটুনি দেওয়া হয়েছে। এতে ওই ভিক্ষুকের পা ভেঙে যায়। গুরুতর আহত  অবস্থায় তাকে উদ্ধার করে লাকসাম স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করেছে পুলিশ। শনিবার (২০ জুলাই) লাকসাম পৌরশহরের পেয়ারাপুর এলাকায় এ ঘটনা ঘটে।

জানা গেছে, ওইদিন পেয়ারাপুর এলাকায় একটি ব্যাগ হাতে নিয়ে বাড়ি বাড়ি ভিক্ষা করেন রফিকুল ইসলাম (৪৩) নামে ওই ভিক্ষুক। ভিক্ষা শেষে জেলেপাড়া সংলগ্নে চা দোকানের কাছে ঘোরাফেরা করছিলেন। এসময় স্থানীয় লোকজন ছেলেধরা সন্দেহে তাকে জিজ্ঞাসাবাদ করলে অসংলগ্ন কথা বলায় গণপিটুনি দেয়। এতে তার ডান পা ভেঙে যায়। পরে খবর পেয়ে লাকসাম থানার এসআই রফিকুল ইসলাম তাকে উদ্ধার করে সদর হাসপাতালে ভর্তি করে। আহত রফিকুল ইসলাম মনোহরগঞ্জ উপজেলার নাথেরপেটুয়া ইউনিয়নের বিনয়ঘর গ্রামের ইয়াছিন মিয়ার ছেলে।

লাকসাম থানার ওসি নিজাম উদ্দিন বলেন, ‘তার বাড়িতে খোঁজ নিয়ে জানতে পেরেছি সে কিছুটা মানসিক ভারসাম্যহীন।’

 

 

 

 

/এএইচ/

লাইভ

টপ