শ্রীপুরে বাল্যবিয়ে বন্ধ, বরের জরিমানা

Send
গাজীপুর প্রতিনিধি
প্রকাশিত : ০৪:২২, আগস্ট ২০, ২০১৯ | সর্বশেষ আপডেট : ০৪:২৫, আগস্ট ২০, ২০১৯

কনের বাড়িতে ভ্রাম্যমাণ আদালতগাজীপুরের শ্রীপুরে দশম শ্রেণির এক ছাত্রীর (১৫) বাল্যবিয়ে বন্ধ করেছে প্রশাসন। শ্রীপুর উপজেলা সহকারী কমিশনার (ভূমি) ও নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট এম ডি শামসুল আরেফিন বাল্যবিয়েটি বন্ধ করেন। সোমবার (১৯ আগস্ট) বিকালে উপজেলার তেলিহাটি ইউনিয়নের আবদার গ্রামে আবুল হাসেম মিয়ার বাড়িতে এ বাল্যবিয়ে বন্ধ করা হয়।

নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট এম ডি শামসুল আরেফিন জানান, খবর পেয়ে তিনি ছাত্রীর বাড়িতে যান। তার বাবাকে বাল্যবিয়ের কুফল সম্পর্কে বোঝান। এতে বিয়ে বন্ধ করতে রাজি হন কনের বাবা। এরপর স্থানীয় জনপ্রতিনিধিদের সামনে ১৮ বছরের আগে মেয়েকে বিয়ে দেবেন না বলে মুচলেকা নেওয়া হয়। এছাড়া কোনোভাবে যাতে বিয়ে না হয়, সেদিকে খেয়াল রাখার জন্য স্থানীয় ইউপি সদস্যকেও দায়িত্ব দেওয়া হয়েছে। বর নাজমুল ইসলাম সাকিবকে (২৪) তিন হাজার টাকা জরিমানা অনাদায়ে সাত দিনের জেল দেওয়া হয়। পরে বর পক্ষ তিন হাজার টাকা জরিমানা দিয়ে বরকে নিয়ে যায়।

তেলিহাটি ইউনিয়ন পরিষদের ১ নম্বর ওয়ার্ড সদস্য তারেক হাসান বাচ্চু জানান, একই গ্রামের সিরাজ উদ্দিনের ছেলে নাজমুল ইসলাম সাকিবের সঙ্গে মেয়েটির বিয়ে ঠিক করেছিল পরিবার। দিনমজুর বাবা কম বয়সে মেয়ের মতের বিরুদ্ধে গিয়ে বিয়ে ঠিক করেন। বাল্যবিয়ে আয়োজনের খবর পান উপজেলা সহকারী কমিশনার (ভূমি)। এরপর তিনি ওই বিয়ে বন্ধের উদ্যোগ নেন।

শ্রীপুর থানার উপ-পরিদর্শক (এসআই) আশরাফুল্লাহ্ জানান, ভুয়া সনদের মাধ্যমে বয়স বাড়িয়ে পরিবার বাল্যবিয়ের আয়োজন করেছিল। পরে স্থানীয় মেম্বারের মাধ্যমে যাচাই করে দেখা গেছে, প্রকৃতপক্ষে তার বিয়ের বয়স হয়নি।

 

/এনআই/

লাইভ

টপ