সন্তানকে মারধরে বাধা দেওয়ায় স্ত্রীকে হত্যার অভিযোগ স্বামীর বিরুদ্ধে

Send
লালমনিরহাট প্রতিনিধি
প্রকাশিত : ০৯:৪৫, আগস্ট ২৬, ২০১৯ | সর্বশেষ আপডেট : ০৯:৪৬, আগস্ট ২৬, ২০১৯

 

লালমনিরহাটলালমনিরহাটে সন্তানকে মারধরে বাধা দেওয়ায় পূর্ণিমা রানী (৩৫) নামে এক গৃহবধূকে শ্বাসরোধ করে হত্যার অভিযোগ উঠেছে তার স্বামীর বিরুদ্ধে। রবিবার (২৫ আগস্ট) সকালে জেলার আদিতমারী উপজেলার দুর্গাপুর ইউনিয়নের দক্ষিণ গোবদা এলাকায় এই ঘটনা ঘটে। এ ঘটনায় অভিযুক্ত রবি বর্মণকে (৪২) গ্রেফতার করেছে পুলিশ।

পুলিশ জানায়, শনিবার দিবাগত রাতে ভ্যানচালক রবি বর্মণ বাজার থেকে বাড়ি ফিরে সন্তানদের খুঁজতে থাকেন। পড়ালেখা না করে সন্তানরা দুষ্টুমি করে-এমন অভিযোগে মেয়েকে পেয়ে মারতে থাকেন তিনি। স্ত্রী পূর্ণিমা রানী এতে বাধা দিলে তাকেও মারধর করেন রবি। পরে রাতে কোনও এক সময় স্ত্রীকে শ্বাসরোধ করে হত্যা করেন তিনি।

রবিবার সকালে বিষয়টি জানাজানি হলে নিহতের পরিবারের লোকজনের অভিযোগে পুলিশ রবি বর্মণকে গ্রেফতার করে। পূর্ণিমার মরদেহ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য লালমনিরহাট সদর ১০০ শয্যা বিশিষ্ট হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়।

আদিতমারী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা সাইফুল ইসলাম বাংলা ট্রিবিউনকে বলেন, ‘ওই দম্পতির ১০ বছরের এক ছেলে ও ৬ বছরের এক মেয়ে সন্তান রয়েছে। পড়ালেখা না করে সন্তানরা দুষ্টুমি করে-এমন অভিযোগে তাদের মারেন রবি। নিহতের ছোট বোন জয়তী রানীর দায়ের করা মামলায় রবি বর্মণকে গ্রেফতার করা হয়েছে। এজাহারে নাম উল্লেখ করা অপর দুই আসামিকেও গ্রেফতারের চেষ্টা চলছে।’

/এআর/

লাইভ

টপ