ব্যস্ত প্রতিমা কারিগররা, হিলিতে চলছে শেষ মুহূর্তের প্রস্তুতি

Send
হিলি প্রতিনিধি
প্রকাশিত : ১১:৪৪, সেপ্টেম্বর ২৩, ২০১৯ | সর্বশেষ আপডেট : ১১:৫৯, সেপ্টেম্বর ২৩, ২০১৯

দুর্গা প্রতিমাআর মাত্র কয়েকদিন পরেই হিন্দু ধর্মালম্বীদের প্রধান ধর্মীয় উৎসব শারদীয় দুর্গাপূজা শুরু হবে। এই উৎসবকে ঘিরে এরই মধ্যে দিনাজপুরের হিলির বিভিন্ন মন্দিরে মন্দিরে ব্যস্ত সময় পার করছেন প্রতিমা কারিগরা। বিপুল উৎসাহ উদ্দীপনার মধ্য দিয়ে দুর্গাপূজা উদযাপনে ব্যাপক প্রস্তুতি নিয়েছেন হিন্দু ধর্মাবলম্বীরা।

হাকিমপুর উপজেলা পূজা উদযাপন কমিটি সূত্রে জানা গেছে, এবারও ২০ মণ্ডপে পূজা হবে। তবে এবার আরও বড় পরিসর ও  সন্দুরভাবে পূজা উদযাপনের জন্য প্রতিমা তৈরিসহ আনুষাঙ্গিক ব্যয় বাড়িয়ে দিয়েছে পূজা উদযাপন কমিটি।

প্রতিমা কারিগররা জানান, বর্ষার জন্য এবার আগেই প্রতিমা তৈরির কাজ শুরু করা হয়েছিল। এজন্য প্রতিমা তৈরির কাজ শেষ হয়েছে। এখন প্রতিমাগুলোয় রঙ করাসহ আনুষাঙ্গিক কাজ চলছে। গতবারের তুলনায় এবার প্রতিমার আকার, ডিজাইনসহ অন্যান্য বেশ কিছু বিষয়ে পরিবর্তন আনা হয়েছে। আশা করছি পঞ্চমীর আগেই প্রতিমার সব কাজ শেষ হবে। তবে রঙ ও কারিগরদের মজুরি বেড়ে যাওয়ায় তেমন একটা লাভ হয় না। তারপরও বাব-দাদার পেশা তাই কাজ করে যাচ্ছেন তারা। 

দুর্গা প্রতিমাহাকিমপুর উপজেলা সার্বজনীন দুর্গাপূজা উদযাপন কমিটির সভাপতি সুমন মন্ডল বাংলা ট্রিবিউনকে জানান, ২ অক্টোবর মহাষষ্ঠীর মধ্য দিয়ে শারদীয় দুর্গাপূজা হবে। পূজার জন্য ব্যাপক প্রস্তুতি নেওয়া হয়েছে। আশা করছি এবছরেও খুব ভালোভাবে পূজা উদযাপন করতে পারবো। সীমান্তবর্তী এলাকা হওয়ায় হিলিতে দর্শনার্থীদের সংখ্যা বেশি থাকে। ভারত থেকেও অনেক দর্শনার্থী আসেন প্রতিমা দেখতে। সেই কথা চিন্তা করেই গতবারের তুলনায় এবার প্রতিমার আকার বড় করা হয়েছে।

হাকিমপুর থানার ওসি আনোয়ার হোসেন বলেন,হিলির পরিবেশ শান্তিপূর্ণ রয়েছে। আশা করছি সুন্দর ও আনন্দঘন পরিবেশের মধ্য দিয়েই দুর্গাপূজা সমাপ্ত হবে।  এজন্য  সবধরনের ব্যবস্থা নেওয়া হয়েছে।

 

 

/এসটি/

লাইভ

টপ