চোর সন্দেহে প্রতিবন্ধী যুবককে অমানবিক নির্যাতন

Send
যশোর প্রতিনিধি
প্রকাশিত : ০৯:৫৭, অক্টোবর ২২, ২০১৯ | সর্বশেষ আপডেট : ১০:১১, অক্টোবর ২২, ২০১৯

নির্যাতনের শিকার দীপঙ্করচোর সন্দেহে বুদ্ধি প্রতিবন্ধী যুবক দীপঙ্করকে দড়ি দিয়ে বেঁধে মধ্যযুগীয় কায়দায় নির্যাতন চালানো হয়েছে। যশোরের বাঘারপাড়া উপজেলার রায়পুর ইউনিয়নের ভদ্রডাঙ্গা ছব্বারের মোড়ে রবিবার (২০ অক্টোবর) এ ঘটনা ঘটে। নির্যাতনের ভিডিও ফেসবুকে ভাইরাল হয়েছে।

প্রত্যক্ষদর্শী রায়পুর ইউনিয়নের ৪ নম্বর ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক জামিউজ্জামান হাসনাত  জানান, ভদ্রডাঙ্গা গ্রামের অহেদ খানের ছেলে আলম খান, বনগ্রাম মুন্সীপাড়ার কিয়ামের ছেলে নাজমুল ও ভদ্রডাঙ্গা গ্রামের ইকবাল কারীর ছেলে ইলিয়াছ প্রতিবন্ধী ওই যুবককে দড়ি দিয়ে বেঁধে মাটিতে ফেলে মুখে ও বুকে লাথি মারছে। আশপাশের লোক তাদের থামতে বললেও তারা কথা শোনেনি।

নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক স্থানীয় এক বাসিন্দ বলেন, দুই তিনদিন আগে দীপঙ্কর খাজুরা বাজার সংলগ্ন তেলীধান্যপুড়া গ্রামে তার মেসো (খালু) গোপাল রক্ষিতের বাড়িতে আসেন। তার মাসতুতো ভাই হারান অসুস্থ এ খবর পেয়েই তিনি এসেছিলেন। রবিবার বিকালে হারানের সাইকেল নিয়ে ঘুরতে বের হন। ছব্বারের মোড়ে পৌঁছালে আলম, নাজমুল ও ইলিয়াছ তার গতিরোধ করে পরিচয় জানতে চায়। কথা এলোমেলো হওয়ায় চোর সন্দেহে তাকে মারধর করে। স্থানীয় এক যুবক ঘটনাটি ভিডিও করে ফেসবুকে আপ করে দিলে তা ভাইরাল হয়।

এ ব্যাপারে জানতে চাইলে বাঘারপাড়া থানার ওসি জসীম উদ্দীন বলেন, ‘আমিও ফেসবুকের মাধ্যমে ভিডিওটি দেখেছি। এরপর সেখানে ফোর্স পাঠাই। কিন্তু সেখানে গিয়ে অভিযোগকারী কাউকে পাওয়া যায়নি।’

 

/এসটি/

লাইভ

টপ