জামালপুরে রেল স্টেশন বন্ধের প্রতিবাদে বিক্ষোভ

Send
জামালপুর প্রতিনিধি
প্রকাশিত : ২০:২৯, জানুয়ারি ২২, ২০১৬ | সর্বশেষ আপডেট : ২০:৩০, জানুয়ারি ২২, ২০১৬

SAM_0327জামালপুর জেলার নরুন্দি রেলওয়ে স্টেশনের সকল কার্যক্রম বন্ধ ঘোষণা করায় বিক্ষুব্ধ এলাকাবাসী শুক্রবার দুপুর ২টা থেকে সন্ধ্যা ৬টা পর্যন্ত রেল লাইনের উপর গাছের গুঁড়ি ফেলে বিক্ষোভ কর্মসূচি পালন করেছে।
এ সময় বিক্ষুব্ধ জনতা নরুন্দি রেল স্টেশনে ঢাকা-জামালপুর পথে চলাচলকারী সকল আন্তঃনগর ট্রেনের যাত্রা বিরতিরও দাবি করেন। এতে বিভিন্ন স্টেশনে আন্তঃনগর ট্রেনসহ বেশ কয়েকটি ট্রেন আটকা পড়ে। এ সময় ট্রেনে অবস্থানরত নারী শিশুসহ শত শত যাত্রী চরম দুর্ভোগের শিকার হন।
স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে, লোকবলের অভাবে গত বৃহস্পতিবার থেকে নরুন্দি রেলস্টেশনের সকল কার্যক্রম বন্ধ ঘোষণা করেন রেল কর্তৃপক্ষ। কোনও রকম পূর্ব নোটিশ ছাড়াই রেল স্টেশনটি হঠাৎ বন্ধ করে দেওয়ায় এলাকাবাসী বিক্ষুব্ধ হয়ে ওঠেন। এরই প্রতিবাদে শত শত এলাকাবাসী শুক্রবার দুপুর ২টায় নরুন্দি রেলওয়ে স্টেশন এলাকায় রেল লাইনের ওপর গাছের গুঁড়ি ফেলে বিক্ষোভ শুরু করে। এ সময় ঢাকা থেকে তারাকান্দিগামী আন্তঃনগর অগ্নিবীণা এক্সপ্রেস ট্রেন ও দেওয়ানগঞ্জ থেকে ঢাকাগামী কমিউটার এক্সপ্রেস ট্রেনটি নরুন্দি স্টেশনে এবং জামালপুর থেকে ঢাকাগামী আন্তঃনগর তিস্তা এক্সপ্রেস ট্রেনটি জামালপুর স্টেশনে ও ময়মনসিংহ থেকে বঙ্গবন্ধু সেতু পূর্বগামী ধলেশ্বরী এক্সপ্রেস ট্রেনটি ময়মনসিংহের বিদ্যাগঞ্জ স্টেশনে আটকা পরে।

ঢাকাগামী আন্তঃনগর তিস্তা এক্সপ্রেস ট্রেনের যাত্রী তোতা মিয়া, জয়নাল আবেদীন ভোলা, আবুল কালাম জানান, বিকেল চারটায় তিস্তা এক্সপ্রেস ট্রেনটি জামালপুর রেলস্টেশনে পোঁছার পর থেকেই আটকা পড়ে আছে। এতে করে আমাদের চরম দুর্ভোগ পোহাতে হচ্ছে।

জামালপুর রেলওয়ে স্টেশন মাস্টার মো.তারেক জানান, লোকবলের অভাবে নরুন্দি স্টেশনটি বন্ধ করে দেওয়ায় এলাকাবাসী বিক্ষোভ করেছে। পরিস্থিতি সমাধানের জন্য স্থানীয় প্রশাসনের সঙ্গে বিক্ষোভকারীদের আলোচনা হয়েছে বলে তিনি জানান।

জামালপুর রেলওয়ে থানার ওসি মো. আলাউদ্দিন চৌধুরী বলেন, আন্দোলনকারীদের সঙ্গে আলোচনা সাপেক্ষে চার ঘণ্টা পর সন্ধ্যা ৬টায় ট্রেন চলাচল পুনরায় শুরু হয়। কোনও ধরনের অপ্রীতিকর ঘটনা এড়াতে অবরোধ চলাকালে নরুন্দি রেল স্টেশন এলাকায় বিপুল সংখ্যক পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে বলে তিনি জানান।

/আরএ/

লাইভ

টপ