মাদুরোকে ট্রাম্পের হুঁশিয়ারি

Send
বিদেশ ডেস্ক
প্রকাশিত : ১১:৪৩, জুলাই ১৮, ২০১৭ | সর্বশেষ আপডেট : ১৬:২৪, জুলাই ১৮, ২০১৭

ভেনেজুয়েলার বিপক্ষে অর্থনৈতিক পদক্ষেপ নেওয়ার ‍হুমকি দিয়েছেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প। সোমবার দেশটির নেতা নিকোলাস মাদুরোর উদ্দেশে রিপাবলিকান প্রেসিডেন্ট বলেন, ‘তিনি একজন খারাপ নেতা। ভেনেজুয়েলায় স্বৈরশাসন জারি করতে চান তিনি।’ ট্রাম্প বলেন, ভেনেজুয়েলার দুঃসময়ে পাশে থাকবে যুক্তরাষ্ট্র

মঙ্গলবার এক বিবৃতিতে এসব কথা বলেন তিনি। এদিকে সরকার বিরোধী গণভোটে রবিবার ভোটে অংশ নেয় ৭০ লাখেরও বেশি ভেনেজুয়েলান। সাবেক প্রেসিডেন্ট চ্যাভেজের মৃত্যুর পর ক্ষমতায় আসা প্রেসিডেন্ট নিকোলাস মাদুরো দ্রুত জনপ্রিয়তা হারাতে থাকেন। মাদুরো জুলাই মাসের শেষ দিকে একটি জাতীয় সাংবিধানিক পরিষদের জন্য প্রতিনিধি নির্বাচনের পরিকল্পনা করেছেন।  বিরোধিরা এই প্রতিনিধি নির্বাচনের বিরোধিতা করে গণভোট আয়োজন করেছে। এতে প্রশ্ন রাখা হয়েছে, ভোটাররা আসলেই একটি নতুন সংবিধান চান কিনা।

বৃহস্পতিবার বিরোধী দল সারাদেশে হরতাল ডেকেছে। মাদুরোকে পদচ্যুত করে আগাম নির্বাচনের উদ্দেশ্য তাদের।  তবে মাদুরোর বিরুদ্ধে ট্রাম্প কি ব্যবস্থা নেবেন সেটা নিশ্চিত করে বলেননি।

এদিকে রবিবারের গণভোটকে স্বীকৃতি দেয়নি সরকার। গণভোট পর্যবেক্ষণ করার জন্য শনিবার বেশ কয়েকজন সাবেক লাতিন আমেরিকান নেতা রাজধানী কারাকাসে আসেন। যেসব ভেনেজুয়েলান বিদেশে থাকেন তারাও ভোট দিতে পারবেন।  

গত কয়েক মাস ধরেই ভেনেজুয়েলায় প্রায় প্রতিদিনই বিক্ষোভ হচ্ছে। এ পর্যন্ত বিক্ষোভে  নিহত হয়েছেন শতাধিক ও আহত হয়েছেন প্রায় দেড় হাজার। এ নির্বাচন অবশ্য পুরোপুরিই প্রতীকী। বিরোধী দল বলছে, এটার মাধ্যমে তারা জনগণের মতামত নিচ্ছে যে সরকারকে আসলেই সংবিধান পরিবর্তনের উদ্যোগ নিতে দেওয়া যায় কিনা।

সরকার একটি নতুন সংবিধান চাইছে। মাদুরোর মতে,  দেশকে অর্থনৈতিক ও রাজনৈতিক সংকট থেকে টেনে তোলার এটাই একমাত্র উপায়। কিন্তু এ পরিকল্পনার ফলে ভেনেজুয়েলার রাজনৈতিক অস্থিতিশীলতা সৃষ্টি হয়েছে। রাজনীতি বিশ্লেষকদের একাংশ সেই অস্থিতিশীলতার নেপথ্যে মার্কিন সরকারের ইন্ধন রয়েছে বলে মনে করেন।

/এমএইচ/বিএ/

লাইভ

টপ