যুক্তরাজ্যে এশীয়দের চেয়ে শ্বেতাঙ্গ সন্দেহভাজন জঙ্গিদের সংখ্যা বেশি

Send
অদিতি খান্না, যুক্তরাজ্য
প্রকাশিত : ১৭:৫৪, সেপ্টেম্বর ১৪, ২০১৮ | সর্বশেষ আপডেট : ১৭:৫৭, সেপ্টেম্বর ১৪, ২০১৮

এক যুগেরও বেশি সময় পরে দেশটির পুলিশের হাতে সন্দেহভাজন জঙ্গি হিসেবে আটক এশীয়দের চেয়ে শ্বেতাঙ্গদের সংখ্যা বেড়েছে। সংশ্লিষ্টরা মনে করেন, এর মাধ্যমে শ্বেতাঙ্গ চরম ডানপন্থীদের হুমকি হয়ে উঠতে থাকার বিষয়টি স্পষ্ট। বৃহস্পতিবার প্রকাশিত যুক্তরাজ্যের স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের প্রকাশিত তথ্য থেকে জানা গেছে, এ বছরের জুন মাস পর্যন্ত গত এক বছরে জঙ্গি তৎপরতায় সম্পৃক্ততার সন্দেহে যুক্তরাজ্যে ৩৫১ জনকে গ্রেফতার করা হয়েছে। এদের মধ্যে ১৩৩ জন শ্বেতাঙ্গ ও ১২৯ জন এশীয়। জঙ্গিবাদে সম্পৃক্ততার দায়ে কারাদণ্ড ভোগ করা শ্বেতাঙ্গদের সংখ্যা গত তিন বছর ধরে বাড়ছে। ১০ জন থেকে গত বছরে তা ২৮ জনে উন্নীত হয়েছে।

ব্রিটিশ স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের ভাষ্য, ‘২০০৫ সালের পর এবারই প্রথম গ্রেফতারকৃত শ্বেতাঙ্গ সন্দেহভাজনদের সংখ্যা এশীয়দের চেয়ে বেশি হয়েছে।’ চলতি বছরে জঙ্গিবাদে সংশ্লিষ্টতার সন্দেহে গ্রেফতারকৃত শ্বেতাঙ্গদের সংখ্যা জঙ্গিবাদের দায়ে গ্রেফতারকৃত মোট সংখ্যার প্রায় ৩৮ শতাংশ। গত বছরের তুলনায় এ সংখ্যা চার শতাংশ বেশি। গ্রেফতারকৃত এশীয়দের সংখ্যা এ বছরে সাত শতাংশ কমে হয়েছে ৩৭ শতাংশ। অন্যদিকে জঙ্গিবাদে সম্পৃক্ততার সন্দেহে গ্রেফতারকৃতদের মধ্যে কৃষ্ণাঙ্গদের সংখ্যা দুই ধাপ কমে হয়েছে ৯ শতাংশ।

স্কটল্যান্ড ইয়ার্ডের ডেপুটি অ্যাসিস্ট্যান্ট কমিশনার ডিন হেইডন বলেছেন, ‘গত ১২ মাসে গ্রেফতারকৃতদের সংখ্যা কম হলেও ২০১৭ সালের মার্চ মাস থেকে আমরা ইসলামিক স্টেটের ১৩টি ও শ্বেতাঙ্গ চরমপন্থীদের চারটি পরিকল্পনা নস্যাৎ করে দিয়েছি। সুতরাং কম সংখ্যক ব্যক্তির গ্রেফতার হওয়ার ঘটনায় এটা ভাবলে চলবে না যে আমরা সন্ত্রাসবাদের কম ঝুঁকিতে আছি।’

প্রকাশিত তথ্য থেকে জানা গেছে, এসব গ্রেফতারির ঘটনায় যুক্তরাজ্যের নতুন জঙ্গিবাদবিরোধী আইনের ধারা ব্যবহার করা হয়েছে। ২৩৪টি ঘটনাকে আন্তর্জাতিক ক্যাটাগরিতে নথিবদ্ধ করা হয়েছে। এসবের মধ্যে রয়েছে আইএসের মতো বিদেশি জঙ্গি সংগঠনের সঙ্গে সম্পৃক্ত সন্ত্রাসী তৎপরতা।

স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের ভাষ্য, ‘সাম্প্রতিক বছরগুলোতে নানান চরমপন্থী আদর্শিক ঘরানার সঙ্গে যুক্ত ব্যক্তিদের দণ্ডপ্রাপ্ত হওয়ার সংখ্যা বৃদ্ধি পেয়েছে। তবে প্রথমবারের মতো ইসলামিক স্টেটের সঙ্গে যুক্ত থাকার দায়ে দণ্ডপ্রাপ্ত জঙ্গিদের সংখ্যা সামান্য কমেছে; ৪ শতাংশ। আইএস সংশ্লিষ্ট ১৭৮ জন এখন পুলিশ হেফাজতে আছে।’

যেসব জঙ্গি কারাগারে রয়েছে তাদের মধ্যে ৮৫ শতাংশই ইসলামিক স্টেটের আদর্শিক দৃষ্টিভঙ্গির সঙ্গে একমত পোষণ করে। ১৩ শতাংশ শ্বেতাঙ্গ চরমপন্থার অনুগত। বাকি ছয় শতাংশ অন্যান্য চরমপন্থী বলয়ে যুক্ত।

/এএমএ/

লাইভ

টপ