চলতি মাসেই যুক্তরাষ্ট্র, কানাডা ও মেক্সিকোর মধ্য বাণিজ্য চুক্তি

Send
বিদেশ ডেস্ক
প্রকাশিত : ২০:৪০, নভেম্বর ০৯, ২০১৮ | সর্বশেষ আপডেট : ২০:৪৪, নভেম্বর ০৯, ২০১৮

চলতি নভেম্বর মাসেই যুক্তরাষ্ট্র, কানাডা ও মেক্সিকোর মধ্য বাণিজ্য চুক্তি সম্পাদিত হবে। আগামী ৩০ নভেম্বর এ চুক্তি সম্পন্ন হওয়ার কথা রয়েছে বলে জানিয়েছেন মেক্সিকোর অর্থমন্ত্রী ইদেফনসো গুয়াজারদো। শুক্রবার এক প্রতিবেদনে এ খবর জানিয়েছে যুক্তরাজ্যভিত্তিক সংবাদমাধ্যম রয়টার্স।

প্রতিবেদনে বলা হয়, তিন দেশের মন্ত্রীরা এ সংক্রান্ত চুক্তিতে স্বাক্ষর করবেন। আর্জেন্টিনার রাজধানী বুয়েন্স আয়ার্সে চুক্তি স্বাক্ষরিত হওয়ার কথা রয়েছে।

বৃহস্পতিবার মেক্সিকো সিটিতে সাংবাদিকদের সঙ্গে আলাপকালে এ বিষয়ে কথা বলেন মেক্সিকোর অর্থমন্ত্রী ইদেফনসো গুয়াজারদো। তিনি বলেন, জি২০ ইন্টারন্যাশনাল ফোরামের আয়োজন করতে যাচ্ছে আর্জেন্টিনা। সেখানে সরকারের প্রতিনিধি ছাড়াও কেন্দ্রীয় ব্যাংকগুলোর গভর্নররা অংশ নেবেন।

ইদেফনসো গুয়াজারদো বলেন, আগামী ৩০ নভেম্বর চুক্তি স্বাক্ষরিত হবে, এটা নিশ্চিত। তবে প্রেসিডেন্ট বা প্রধানমন্ত্রীরা চুক্তি স্বাক্ষর অনুষ্ঠানে হাজির হবেন কিনা সেটি এখনও চূড়ান্ত নয়।

২৪ বছর আগে করা উত্তর আমেরিকান মুক্ত বাণিজ্য চুক্তি-নাফটা সংস্কারের জন্য এর আগে দীর্ঘদিন ধরে কানাডা ও মেক্সিকোর ওপর চাপ প্রয়োগ করে আসছিল ট্রাম্প প্রশাসন।

উত্তর আমেরিকান মুক্ত বাণিজ্য চুক্তির (নাফটা) পরিবর্তে ৩০ নভেম্বর স্বাক্ষরিত হতে যাওয়া নতুন চুক্তি কার্যকর হবে। যুক্তরাষ্ট্র-মেক্সিকো-কানাডা চুক্তি (ইউএসএমসিএ) নামের এই চুক্তির ফলে কানাডার দুগ্ধজাত পণ্যের বাজারে আরও বেশি মার্কিন পণ্য প্রবেশের সুযোগ পাবে। আর যুক্তরাষ্ট্রে কানাডার গাড়ি রফতানি নির্দিষ্ট করে দেওয়া হবে।

মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প দীর্ঘদিন থেকেই নাফটা চুক্তি বদলের কথা বলে আসছেন। এই চুক্তির আওতায় প্রায় এক হাজার কোটি মার্কিন ডলারের বাণিজ্য হয়ে থাকে। তবে কানাডা এই চুক্তি থেকে বের হয়ে যেতে পারে বলে শঙ্কা তৈরি হয়।

গত সেপ্টেম্বরে যুক্তরাষ্ট্র ও কানাডার যৌথ বিবৃতিতে বলা হয়, দুই দেশ মেক্সিকোকে সঙ্গে নিয়ে একটি নতুন ও ২১ শতকের উপযোগী আধুনিক বাণিজ্য চুক্তিতে পৌঁছেছে। এই চুক্তি দেশগুলোর কর্মী, কৃষক, পশুপালক ও ব্যবসায়ীদের একটি উন্নত মানের বাণিজ্য চুক্তি দেবে যা মুক্তবাজার, অবাধ বাণিজ্য ও এই অঞ্চলের অর্থনৈতিক অগ্রগতিতে ইতিবাচক ফল দেবে। শুল্ক বাড়িয়ে বেশ কয়েকটি দেশের সঙ্গে যুক্তরাষ্ট্রের বাণিজ্য যুদ্ধ চলার মধ্যে নতুন চুক্তির ঘোষণা এলো। মেক্সিকো ও কানাডার অ্যালুমিনিয়ামের ওপরও শুল্ক বাড়িয়েছে ট্রাম্প প্রশাসন।

চুক্তিতে কানাডার দুগ্ধ শিল্প ও যুক্তরাষ্ট্রে গাড়ি রফতানি নিয়ে উপধারা সন্নিবেশিত হয়েছে বলে প্রতীয়মান হচ্ছে। কানাডার দুগ্ধ বাজারে মার্কিন কৃষকেরা ৩ দশমিক ৫ শতাংশ প্রবেশাধিকার পাবে। অন্যদিকে সম্ভাব্য মার্কিন শুল্ক আরোপে সত্ত্বেও কানাডার অটোমোবাইল শিল্প বেশ কিছুটা সংরক্ষণশীলতা আদায় করে নিতে পেরেরেছ। তবে অ্যালুমিনিয়াম ও ইস্পাতের ওপর বর্তমানে আরোপিত শুল্ক বহাল থাকবে।

এই চুক্তিতে পৌঁছাতে এক বছরের বেশি সময় লেগেছে। কোনও কোনও সময় মনে হয়েছে চূড়ান্ত চুক্তিতে হয়তো পৌঁছানোই সম্ভব হবে না। একাধিকবার নাফটা চুক্তি ছিঁড়ে ফেলার হুমকি দিয়েছেন ট্রাম্প। এমনকি গত আগস্টে মেক্সিকোর সঙ্গে দ্বিপক্ষীয় চুক্তি স্বাক্ষরের পর কানাডাকে ‘শীতের মধ্যে’ ফেলে দেওয়ারও হুমকি দেন তিনি। দুই দেশের নেতাদের মধ্যে কড়া বাক্য বিনিময়ের ফলে সম্পর্ক খানিকটা কঠোর হয়ে ওঠে। এখন চুক্তিতে পৌঁছানোর ফলে যুক্তরাষ্ট্র ও কানাডার অনেক শিল্প কারখানায় স্বস্তি ফিরছে। এসব কারখানা নাফটা চুক্তির ওপর নির্ভর করতো। আলোচনা শুরুর পর থেকেই তারা অনিশ্চয়তায় ভুগছিল। সূত্র: রয়টার্স।

/এমপি/

লাইভ

টপ