বুথে ক্যামেরা বসিয়েছেন মোদি, কংগ্রেসকে ভোট দিলেই জেনে যাবেন: বিজেপি নেতা

Send
বিদেশ ডেস্ক
প্রকাশিত : ১৪:৫২, এপ্রিল ১৭, ২০১৯ | সর্বশেষ আপডেট : ১৭:৩১, এপ্রিল ১৭, ২০১৯

নির্বাচনি প্রচারণা চালাতে গিয়ে বিতর্কের জন্ম দিলেন গুজরাটের বিজেপি দলীয় বিধায়ক রমেশ কাতরা। তিনি বলেছেন, প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি বুথে সিসিটিভি ক্যামেরা বসিয়েছেন। ফলে তা থেকেই দেখা যাবে কে কংগ্রেসকে ভোট দিচ্ছেন আর কে বিজেপিকে ভোট দিচ্ছেন। যশোবন্ত শাহ নামের দলীয় এক প্রার্থীর প্রচারণায় গিয়ে এমন মন্তব্য করেন রমেশ কাতরা। এক প্রতিবেদনে এ খবর জানিয়েছে ভারতীয় সংবাদমাধ্যম এনডিটিভি।

তিনি বলেন, আপনারা ইভিএমে বিজেপি প্রার্থীর ছবি দেখবেন আর বোতাম টিপবেন। ভুল হওয়ার কোনও সুযোগ নেই। মনে রাখবেন, মোদি বুথে সিসিটিভি বসিয়েছেন। আপনাদের বুথ থেকে কম ভোট পড়লেই মোদি বুঝতে পারবেন কার ভোট কোথায় গিয়েছে। আর কম ভোট পড়লে চাকরি পাবেন না।

এদিকে এমন মন্তব্যে রাজনৈতিক মহলে চাঞ্চল্য ছড়িয়েছে। রাষ্ট্রীয় জনতা দলের এক টুইটে বলা হয়েছে, এ ধরনের হুমকিকে সহজভাবে নেওয়ার কোনও যুক্তি নেই। বিহারের সাবেক মুখ্যমন্ত্রী লালু প্রসাদ যাদব টুইটারে বলেছেন, অসহায় নাগরিকদের এভাবে বিজেপিকে ভোট দিতে প্রভাবিত করা হচ্ছে। নির্বাচনে এসবের প্রভাব পড়ে।

এর আগে উত্তর প্রদেশের সুলতানপুরে নির্বাচনি জনসভায় বক্তব্য দিতে গিয়ে বিতর্কে জড়ান কেন্দ্রীয় মন্ত্রী মানেকা গান্ধী। মুসলমান সম্প্রদায়ের ভোটারদের উদ্দেশ্যে তিনি বলেন, আমি ইতোমধ্যেই নির্বাচনে জিতে গিয়েছি। কিন্তু যদি আমাকে মুসলিমদের সমর্থন ছাড়া জিততে হয় তাহলে আমার খারাপ লাগবে। তখন মুসলমানদের কেউ আমার কাছে এলে আমার মনে হবে কাজ করে কী হবে? আমরা তো মহাত্মা গান্ধীর সন্তান নই। আপনারা ভোট না দিলে আমার জেতা আটকাবে না। আপনাদের ভোট না পেলেও আমরা জিতবো। এখন আপনারা কী করবেন সেটা আপনাদের ব্যাপার।

মানেকার তিন মিনিটের ওই ভাষণ সোশ্যাল মিডিয়ায় ভাইরাল হয়েছে।

/এমপি/এমওএফ/

লাইভ

টপ