টাইম ম্যাগাজিনে বিশ্বের ১০০ প্রভাবশালীর তালিকায় জাসিন্ডা

Send
বিদেশ ডেস্ক
প্রকাশিত : ১৫:৫৯, এপ্রিল ১৮, ২০১৯ | সর্বশেষ আপডেট : ১৭:৩২, এপ্রিল ১৮, ২০১৯

যুক্তরাষ্ট্রের টাইম ম্যাগাজিনের ১০০ প্রভাবশালীর তালিকায় স্থান পেয়েছেন নিউজিল্যান্ডের প্রধানমন্ত্রী জাসিন্ডা আরডার্ন। তালিকায় লিডার্স ক্যাটাগরিতে ছয় নম্বরে রয়েছে তার নাম। ২৩ নম্বরে রয়েছে আধুনিক মালয়েশিয়ার রূপকার হিসেবে খ্যাত ড. মাহাথির মোহাম্মদের নাম।

নিউজিল্যান্ডের ক্রাইস্টচার্চের দুটি মসজিদে সন্ত্রাসী হামলায় ৫০ মুসল্লি নিহতের ঘটনায় তার দায়িত্বশীল নেতৃত্ব আন্তর্জাতিক সম্প্রদায়ের নজর কাড়তে সমর্থ হয়। নৃশংস হামলার রক্তাক্ত দৃশ্যপট যখন নিউজিল্যান্ডের একমাত্র বাস্তবতা, তখন এক চিলতে আশার প্রতিচ্ছবি হয়েছিল প্রধানমন্ত্রী জাসিন্ডা আরডার্নের একটি ছবি। মুসলিম-সংহতির প্রতীক বানিয়ে মাথায় ওড়না পরিহিত জাসিন্ডাকে ধারণ করতে গিয়ে আলোকচিত্রী যেন অতিক্রম করে ফেলেছিলেন ক্যামেরার সীমাবদ্ধ ফ্রেম। জানালার বাইরের বহুরঙা ফুল বৈচিত্র্য আর সম্মিলনের প্রতীক হয়ে প্রতিফলিত হয়েছিল এক ক্লাসরুমে বৈঠকরত জাসিন্ডার অবয়বে। হামলা-পরবর্তী সময়ে জাসিন্ডার নানামুখী পদক্ষেপ যেমন করে বিশ্ববাসীর প্রেরণা হয়েছে, তেমনি করে দেশের অন্ধকারাচ্ছন্ন বাস্তবতায় ধারণকৃত তার আলোকচিত্রেও তিনি হাজির হয়েছিলেন আলোকোজ্জ্বল আগামীর বার্তা নিয়ে।

নিহতদের স্মরণে আল নূর মসজিদের সামনের পার্কে এক শোক সভায় অংশ নেন জাসিন্ডা অরডার্ন। এ সময় তিনি বলেন, আমরা ঘৃণা, ভয় ও অন্যান্য ভাইরাস থেকে মুক্ত নই। কখনও ছিলাম না। কিন্তু আমরা এমন একটা জাতি হতে পারি যারা এই রোগ নিরাময় করতে পারে।

টাইমের ১০০ প্রভাবশালীর মধ্যে লিডার্স ক্যাটাগরিতে নাম রয়েছে মোট ২৬ জনের। প্রথমেই নাম রয়েছে যুক্তরাষ্ট্রের প্রতিনিধি পরিষদের স্পিকার ও ডেমোক্র্যাটিক পার্টির নেতা ন্যান্সি পেলোসি’র নাম। শীর্ষ পাঁচে থাকা বাকিরা হচ্ছেন যথাক্রমে মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প, সুইডিশ পরিবেশকর্মী গ্রেটা থানবার্গ, মেক্সিকোর বামপন্থি প্রেসিডেন্ট আন্দ্রেস ম্যানুয়েল লোপেজ ওব্রাদর এবং যুক্তরাষ্ট্রের রাজনীতিতে ডেমোক্র্যাটিক দলের উঠতি তারকা কংগ্রেস সদস্য আলেকজান্দ্রিয়া ওকাসিও-কর্টেজ।

সাত নম্বরে রয়েছে যুক্তরাষ্ট্র সমর্থিত ভেনেজুয়েলার স্বঘোষিত প্রেসিডেন্ট হুয়ান গুইদো’র নাম। এরপর রয়েছে যথাক্রমে ইথিওপিয়ার প্রধানমন্ত্রী আবি আহমেদ, মার্কিন সিনেটে সংখ্যাগরিষ্ঠ দলের নেতা মিচ ম্যাকনেল, যুক্তরাষ্ট্রের সুপ্রিম কোর্টে ট্রাম্পের মনোনীত বিচারক ব্রেট কাভানা।

১১ নম্বরে রয়েছে ব্রিটিশ নৃতত্ত্ববিদ জেন গোদাদের নাম। এরপর রয়েছে যথাক্রমে ইসরায়েলের প্রধানমন্ত্রী বেনিয়ামিন নেতানিয়াহু, চীনা উদ্যোক্তা ঝাং ইমিং, দক্ষিণ কোরীয় জলবায়ু গবেষক হোসাং লি এবং যুক্তরাষ্ট্রের অ্যাটর্নি জেনারেল উইলিয়াম বার-এর নাম।

তালিকায় ১৬ নম্বরে রয়েছে পোপ ফ্রান্সিসের নাম। এরপর রয়েছে যথাক্রমে চীনের প্রেসিডেন্ট শি জিনপিং, যুক্তরাষ্ট্রভিত্তিক অলাভজনক সংস্থা প্ল্যানড প্যারেন্টহুডের প্রেসিডেন্ট লিয়ানা ওয়েন ও পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী ইমরান খানের নাম।

/এমপি/এমএমজে/

লাইভ

টপ