যুক্তরাজ্যে উচ্চশিক্ষায় আগ্রহ বাড়ছে বাংলাদেশিদের

Send
অদিতি খান্না, যুক্তরাজ্য
প্রকাশিত : ২১:৫১, জুলাই ১৭, ২০১৯ | সর্বশেষ আপডেট : ২১:৫৪, জুলাই ১৭, ২০১৯

উচ্চশিক্ষা গ্রহণের ক্ষেত্রে যুক্তরাজ্যের বিশ্ববিদ্যালয়গুলোর প্রতি বাংলাদেশি শিক্ষার্থীদের আগ্রহ আগের চেয়ে বেড়েছে। গত কয়েক বছর যুক্তরাজ্যের বিশ্ববিদ্যালয়ে বাংলাদেশি শিক্ষার্থীদের ভর্তি হওয়ার প্রবণতা কম দেখা গেলেও এবার তা ঊর্ধ্বমুখী। লন্ডনে প্রকাশিত এক পরিসংখ্যান থেকে এ তথ্য জানা গেছে।

প্রতীকী ছবি
যুক্তরাজ্যের কেন্দ্রীয় বিশ্ববিদ্যালয় আবেদন ব্যবস্থা ‘দ্য ইউনিভার্সিটিজ অ্যান্ড কলেজেস অ্যাডমিশনস সার্ভিস (ইউসিএএস) জরিপটি চালিয়েছে। প্রতিবেদনে দেখা গেছে, এ বছর ব্রিটিশ বিশ্ববিদ্যালয়গুলোতে ভর্তি আবেদনের সময়সীমার (৩০ জুন) মধ্যে বাংলাদেশ থেকে ৩১০ জন শিক্ষার্থী আবেদন করেছে; যা আগের বছরের তুলনায় ১৪ শতাংশ বেশি। ২০১৮ সালে ২৭০টি আবেদন জমা পড়েছিল। ২০১৬ সাল থেকে কয়েক বছর বাংলাদেশি শিক্ষার্থীদের যুক্তরাজ্যের বিশ্ববিদ্যালয়ে ভর্তির প্রবণতা হ্রাস পাওয়ার পর ২০১৯ সালে এসে তা আবার বাড়তে শুরু করেছে। ২০১৬ সালে যুক্তরাজ্যের বিশ্ববিদ্যালয়ে বাংলাদেশি শিক্ষার্থীদের ভর্তির আবেদনের সংখ্যা উল্লেখজনকভাবে কম ছিল। ২০১৬ সালে মাত্র ২৫০টি আবেদন জমা পড়েছিল। অথচ ২০১৫ সালে আবেদনের সংখ্যা ছিল ৩৪০টি। আর ২০১৪ সালে আবেদনের সংখ্যা ছিল ৩২০।

২০১৯ সালে ইউরোপীয় ইউনিয়নভুক্ত দেশগুলোর বাইরে থেকে রেকর্ড সংখ্যক শিক্ষার্থী (৮১ হাজার ৩৪০ জন) যুক্তরাজ্যের বিশ্ববিদ্যালয়ে ভর্তির আবেদন করেছে। আগের চেয়ে এ হার ৮ শতাংশ বেশি।

যুক্তরাজ্যের বিশ্ববিদ্যালয়গুলোর প্রতিনিধিত্বকারী কর্তৃপক্ষ ইউনিভার্সিটিজ ইউকে’র  প্রধান নির্বাহী আলিসতাইর জারভিস বলেন, ‘মেধাবী শিক্ষকদের দেওয়া উচ্চ মানসম্পন্ন পাঠদান, শিক্ষা ও গবেষণার ক্ষেত্রে বিশ্বজুড়ে আমাদের বিশ্ববিদ্যালয়গুলোর বেশ সুনাম রয়েছে। শিক্ষার্থীরা তাদের কোর্সগুলো নিয়ে সন্তোষ প্রকাশ করে আসছেন।’

২০১৯ সালে যুক্তরাজ্যের বিশ্ববিদ্যালয়ে ভর্তির জন্য সর্বমোট ৬ লাখ ৩৮ হাজার ৩০ জন শিক্ষার্থী আবেদন করেছে। ২০১৮ সালের চেয়ে এ বছর আবেদনের সংখ্যা  বেড়েছে ১ হাজারেরও বেশি। 

/এফইউ/

লাইভ

টপ