মার্কিন সশস্ত্র ড্রোন কেনার পরিকল্পনা পুনর্বিবেচনা ভারতের

Send
বিদেশ ডেস্ক
প্রকাশিত : ১৯:২১, জুলাই ২৮, ২০১৯ | সর্বশেষ আপডেট : ১৯:৪৫, জুলাই ২৮, ২০১৯

যুক্তরাষ্ট্রের নির্মিত সশস্ত্র ড্রোন কেনার পরিকল্পনা পুনর্বিবেচনা করছে ভারত। দেশটির তিনটি বাহিনীর জন্য যুক্তরাষ্ট্রের কাছ থেকে ৬ বিলিয়ন ডলার মূল্যে ৩০টি ড্রোন কেনার পরিকল্পনা ছিল। তবে সম্প্রতি উপসাগরে ইরান একটি মার্কিন ড্রোন ভূপাতিত করার ঘটনায় পরিকল্পনা পুনর্বিবেচনা করছে নয়া দিল্লি।

ভারতীয় সংবাদমাধ্যম হিন্দুস্তান টাইমস’র খবরে বলা হয়েছে, তিন বাহিনীর পক্ষ থেকে প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয়ে এখনও ড্রোনের প্রয়োজনীয়তার কথা জানানো হয়নি। আগের পরিকল্পনা অনুসারে, দীর্ঘপাল্লার নজরদারি ড্রোন কেনার কথা ছিল।

তবে ইরান মার্কিন ড্রোন ভূপাতিত করার পর সামরিক কর্মকর্তারা এই ড্রোনের টিকে থাকা নিয়ে প্রশ্ন তুলেছেন। বিশেষ করে পাকিস্তান নিয়ন্ত্রিত কাশ্মির বা লাইন অব অ্যাক্চুয়াল কন্ট্রোল এলাকায় এই ড্রোন টিকতে পারবে কিনা তা নিয়ে তাদের সংশয় তৈরি হয়েছে। এই দুই সীমান্তে পাকিস্তান ও চীনের অত্যাধুনিক ক্ষেপণাস্ত্র ব্যবস্থা রয়েছে।

নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক এক সিনিয়র সামরিক কমান্ডার হিন্দুস্তান টাইমসকে বলেছেন, আফগানিস্তান, পাকিস্তান, ইরাক ও সিরিয়ার আকাশে মার্কিন সশস্ত্র ড্রোন সফলভাবে কাজে লাগানো হয়েছে। একমাত্র পাকিস্তানেরই এই ড্রোন ভূপাতিত করার সামর্থ্য রয়েছে। কিন্তু মার্কিন ড্রোন ভূপাতিত করার আগে দেশটি ১০০ বার চিন্তা করবে।

হিন্দুস্তান টাইমস’র খবরে বলা হয়েছে, ড্রোন কেনার পরিকল্পনা পুনর্বিবেচনার সঙ্গে সম্প্রতি মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের কাশ্মির ইস্যুতে মধ্যস্থতায় মোদির প্রস্তাবের দাবির কোনও সম্পৃক্ততা নেই। ভারত ট্রাম্পের এই দাবি অস্বীকার করেছে।

সামরিক কর্তৃপক্ষ ড্রোনের অত্যধিক দামের কারণেও কেনার পরিকল্পনা পুনর্বিবেচনা করছে বলে খবরে বলা হয়েছে।

/এএ/এমওএফ/

লাইভ

টপ