মশাকে না মেরে রক্ত পান করতে দেওয়ার আহ্বান!

Send
বিদেশ ডেস্ক
প্রকাশিত : ১৮:৫২, আগস্ট ০৪, ২০১৯ | সর্বশেষ আপডেট : ১৮:৫৫, আগস্ট ০৪, ২০১৯

তথাকথিত এক প্রাণী-বৈষম্যবিরোধী বলেছেন, মশাকে মেরে ফেলার বদলে তাদের রক্ত পান করতে সুযোগ দেওয়া দরকার। টেলিভিশন উপস্থাপক আয়মেরিক ক্যারন নামের ওই ব্যক্তির মতে, মশা ডিমের প্রোটিন সংগ্রহের জন্য মানুষের রক্ত পান করে বলে তাদের এই ‘অধিকার’ কেড়ে নেওয়া উচিত নয়। অবশ্য তার অবস্থানকে ‘বিরক্তিকর’ ও ‘অকেজো চিত্তবিনোদন’ অভিহিত করে এর সমালোচনা করেছে ব্রিটিশ প্রাণী-সংরক্ষণ কর্মীরা। সংবাদমাধ্যম দ্য ইন্ডিপেনডেন্ট-এর এক খবর থেকে এসব তথ্য জানা গেছে।

যারা পৃথিবীর লক্ষ্য-কোটি প্রজাতির মধ্যে বৈষম্যকে অস্বীকার করেন, তারাই প্রাণী-বৈষম্যবিরোধী হিসেবে পরিচিত। আয়মেরিক ক্যারন নামের ফরাসি ওই কথিত অধিকারকর্মী নিজেকে সেই ‘প্রাণী বৈষম্যবিরোধী’ দাবি করে বলেন, আফ্রিকা বাদ দিয়ে অন্য যে কোনও অঞ্চলে প্রাণীপ্রেমীদের উচিত মশাদের কামড়ানোর সুযোগ করে দেওয়া, কেননা স্ত্রী মশা তাদের প্রজাতিগত সুরক্ষার স্বার্থে মানুষকে কামড়ে দেয়।  অবশ্য আফ্রিকায় মশা কামড়ে দিলে ম্যালেরিয়া হওয়ার ঝুঁকি থাকায় সেখানে এই সুযোগ দেওয়ার বিপক্ষে অবস্থান তার। ক্যারনের মতে, মশা হত্যা না করা ‘আদর্শ’ কাজ হলেও রোগাক্রান্ত হওয়ার মতো খুব জরুরি পরিস্থিতিতে তাদের হত্যা করা যায়।

এক ভিডিও বার্তায় ক্যারন বলেন, আমাদের উচিত মশাকে নিজেদের শরীরের রক্ত পান করতে দেওয়া। কেননা এর মধ্য দিয়ে সে তার সন্তানের (ডিমের) পুষ্টি নিশ্চিত করে। সন্তানের জীবনের স্বার্থে ঝুঁকি নিয়েও স্ত্রী মশা মানুষের শরীর থেকে রক্ত সংগ্রহ করে বলে মত তার। মশার কামড় এড়িয়ে চলতে সিট্রোনেলা (দক্ষিণ এশিয়ার সুগন্ধযুক্ত এক ধরনের গাস), ল্যাভেন্ডার (এক ধরনের সুগন্ধি গাছ)ও রসুনের মতো প্রাকৃতিক মশা নিবারক ব্যবহারের পাশাপাশি  নিয়মিত গোসল ও পারফিউম এড়িয়ে চলার পরামর্শ দেন ক্যারন।

প্রাণী সংরক্ষণের অগ্রদূত ও দার্শনিক আলবার্ট সুয়েথজারের উদাহরণ অনুসরণ করার আহ্বান জানিয়েছেন ক্যারন। ফরাসি প্রাণী অধিকারকর্মী সুয়েতজারের মতে, আফ্রিকার সব জায়গায় ম্যালেরিয়া রোগ বিস্তারের আশঙ্কা থাকে বলে সেখানে মশাকে হত্যা করা যেতে পারে।  তবে ফ্রান্সের মশারা নিরীহ বলে তিনি নিজেও সেখানে মশাদের কামড়ানোর সুযোগ দিতেন।  

প্রাণী কল্যাণ গ্রুপ অ্যানিমেল ইকুয়ালিটি’র যুক্তরাজ্যের প্রধান টনি ভার্নেলি ক্যারনের অবস্থানকে ‘ভয়ঙ্কর চিন্তা’ আখ্যা দিয়েছেন। মশাকে পরজীবী আখ্যা দিয়ে তিনি বলেন, মনে রাখতে হবে প্রতি বছর ম্যালেরিয়ার লাখ লাখ মানুষের জীবন হরণে দায়ী এই এটি।

প্রাণী অধিকার সংরক্ষণের সঙ্গে ক্যারনের চিন্তাধারার কোনও সঙ্গতি নেই বলে মন্তব্য করেন ভার্নেলি। তার মতে, বাস্তবতার সঙ্গে সঙ্গতি রেখে প্রাণীর মাংস খাওয়া হ্রাস করা এবং পরিধেয় হিসেবে প্রাণীর শরীরের চামড়াজাত পোশাক ও সরঞ্জাম পরিহার করার দিকে মনোযোগী হওয়া উচিত মানুষের।   

/এইচকে/বিএ/

লাইভ

টপ