ঈদ উপলক্ষে লিবিয়ায় অস্ত্রবিরতিতে সম্মত সবপক্ষ

Send
বিদেশ ডেস্ক
প্রকাশিত : ২২:১৪, আগস্ট ১১, ২০১৯ | সর্বশেষ আপডেট : ০১:২৪, আগস্ট ১২, ২০১৯

ঈদুল আজহা উপলক্ষে লিবিয়ায় যুদ্ধরত প্রধান দলগুলো অস্ত্রবিরতিতে সম্মত হয়েছে। ইতোমধ্যে এই পদক্ষেপকে স্বাগত জানিয়েছে জাতিসংঘ। শান্তিচুক্তিতে জাতিসংঘ সমর্থিত সরকার এবং হাফতার বাহিনী উভয়েই সম্মতি প্রকাশ করেছে। ঈদুল আজহা উপলক্ষে তিনদিন ধরে চলবে এই অস্ত্রবিরতি।

২০১১ সালে পশ্চিমা সমর্থিত বিদ্রোহীদের হাতে কর্নেল মুয়াম্মার গাদ্দাফির পতনের পর থেকে লিবিয়ায় চলছে সীমাহীন সংঘাত। গাদ্দাফি ক্ষমতাচ্যুত ও হত্যার শিকার হওয়ার পর ত্রিপোলিতে জাতিসংঘ সমর্থিত একটি মনোনীত সরকার রয়েছে। ওই কর্তৃপক্ষকে জাতীয় ঐকমত্যের সরকার বা জিএনএ নামে অভিহিত করা হয়। তবে দেশের বেশিরভাগ অঞ্চলের নিয়ন্ত্রণ বিভিন্ন বিদ্রোহী গোষ্ঠীগুলোর হাতে রয়ে গেছে। পশ্চিমাঞ্চলে জিনএনএ’র কর্তৃত্ব থাকলেও পূর্ব ও দক্ষিণের বেশিরভাগ অঞ্চল হাফতার বাহিনী এলএনএ’র দখলে।

গত এপ্রিল থেকে এ বাহিনী লিবিয়ায় আন্তর্জাতিকভাবে স্বীকৃত সরকারের বিরুদ্ধে যুদ্ধ ঘোষণা করে। এখন পর্যন্ত হাফতার বাহিনীর আক্রমণের এক হাজারেরও বেশি মানুষ প্রাণ হারিয়েছেন। হাফতারের মুখপাত্র জানান, জেনারেল হাফতার এই শান্তিচুক্তিতে সম্মতি জানিয়েছেন। লিবীয়রা যেন ভালোভাবে ঈদ করতে পারে সেজন্য এই সিদ্ধান্ত নিয়েছেন তিনি।

শনিবার স্থানীয় সময় বিকাল ৩টার সময় এই অস্ত্রবিরতি শুরু হয়। সোমবার একই সময় শেষ হবে এর মেয়াদ। 

/এমএইচ/

লাইভ

টপ