সাত দিনের মধ্যে সাবেক এমপিদের সরকারি বাড়ি ছাড়ার নির্দেশ ভারতের

Send
বিদেশ ডেস্ক
প্রকাশিত : ০২:১৭, আগস্ট ২০, ২০১৯ | সর্বশেষ আপডেট : ১২:০০, আগস্ট ২০, ২০১৯

ভারতের সব সাবেক আইন প্রণেতাকে (এমপি) সরকারি বাড়ি ছেড়ে দিতে সাত দিনের সময় বেঁধে দিয়েছে সরকার। নির্ধারিত সময়ের প্রায় দুই মাস পর সোমবার এই নির্দেশ দিয়েছে পার্লামেন্টের আবাসন কমিটি। সাত দিনের সময় দেওয়া হলেও তিন দিন পরেই এসব বাড়ির পানি ও বিদ্যুৎ সুবিধা বন্ধ করে দিতে কর্মকর্তাদের নির্দেশ দিয়েছেন কমিটির চেয়ারম্যান সি আর পাতিল। ভারতের সম্প্রচারমাধ্যম এনডিটিভি এই খবর জানিয়েছে।ভারতের পার্লামেন্ট ভবন

নিয়ম অনুযায়ী ভারতের পার্লামেন্টের নিম্নকক্ষ লোকসভার এক মেয়াদ বিলুপ্ত হয়ে যাওয়ার এক মাসের মধ্যে আইন প্রণেতাদের সরকারি বাড়ি খালি করে দেওয়ার কথা। গত ২৫ মে ১৬তম লোকসভা বিলুপ্ত হয়। সে অনুযায়ী ২৫ জুনের মধ্যে ওই লোকসভার সদস্যদের সরকারি বাড়ি খালি করে দেওয়ার কথা। তবে তারপর আরও দুই মাস পার হতে চললেও অনেকেই সরকারি বাড়ি ছেড়ে যাননি।

এই সমস্যা নিয়ে সোমবার ধারাবাহিক টুইট করেন ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি। এক টুইট বার্তায় তিনি বলেন, ‘পার্লামেন্টে যখন নতুন একটি মেয়াদ শুরু হয় তখন নবীন আইন প্রণেতারা বহু সমস্যার মুখে পড়েন যতক্ষণ পর্যন্ত আবাসন নিয়ে উদ্বেগ দূর না হয়। এই সমস্যা উত্তরণে উদ্যোগ নেওয়া হয়েছে জেনে আমি আনন্দিত। এমপি হওয়া মানে সংসদীয় আসন থেকে মানুষ আসা আর তাদেরও থাকার জায়গার দরকার পড়ে।’

এর আগে লোকসভার আবাসন কমিটির চেয়ারম্যান সিআর পাতিল সব সাবেক আইন প্রণেতাকে সরকারি বাড়ি খালি করে দেওয়ার নির্দেশ পাঠান। বিশেষ করে দিল্লির অভিজাত লুতিয়েন জোনের ঐতিহ্যবাহী বাংলোগুলো খালি করে দেওয়ার নির্দেশ দেন তিনি। বাড়ি খালি করতে সাত দিনের সময় দেওয়া হলেও তিন দিন পরেই এসব বাড়ির পানি ও বিদ্যুৎ সবরবাহ বন্ধ করে দিতে কর্মকর্তাদের নির্দেশ দেন তিনি।

/জেজে/এমএমজে/

লাইভ

টপ