behind the news
Rehab ad on bangla tribune
Vision Refrigerator ad on bangla Tribune

কানাডায় নিহত-নিখোঁজ আদিবাসী নারীর সংখ্যা ৪০০০

বিদেশ ডেস্ক১৩:৪৪, ফেব্রুয়ারি ১৭, ২০১৬

কানাডায় ১৯৮০ সাল থেকে এ পর্যন্ত নিহত অথবা নিখোঁজ হয়েছেন চার হাজার আদিবাসী নারী। ১৬ ফেব্রুয়ারি মঙ্গলবার কানাডার নারী বিষয়ক মন্ত্রী প্যাটি হাজদু এ স্বীকারোক্তি দেন। ব্রিটিশ সংবাদমাধ্যম গার্ডিয়ান খবরটি নিশ্চিত করেছে।

আদিবাসী নিখোঁজ অথবা নিহত হওয়ার এই সংখ্যা আগেকার সম্ভাব্য ধারণার চেয়ে অনেক বেশি। তবে ন্যাটিভ উইমেন’স অ্যাসোসিয়েশন অব কানাডার (এনডব্লিউএসি)দাবি, ১৯৮০ সাল থেকে ২০১৫ সাল পর্যন্ত গত ৩৫ বছরে কানাডায় নিখোঁজ বা খুন হয়েছেন প্রায় চার হাজার আদিবাসী নারী।

কানাডার আদিবাসী জনগোষ্ঠী

এর আগে ২০১৪ সালে এ সংক্রান্ত একটি প্রতিবেদন প্রকাশ করে রয়েল কানাডিয়ান মাউন্টেড পুলিশ। এতে বলা হয়, ১৯৮০ থেকে ২০১২ সাল পর্যন্ত দেশটিতে খুন বা নিখোঁজ হওয়া আদিবাসী নারীর সংখ্যা এক হাজার দুইশ। এদিকে, ওয়াক ফর জাস্টিস নামের একটি সংস্থা সম্প্রতি জানিয়েছে, তারা নিখোঁজ বা নিহত চার হাজার ২৩২ জন নারীর নামের একটি তালিকা সংগ্রহ করেছে।

নারী বিষয়ক মন্ত্রী প্যাটি হাজদু বলেন, ‘যথাযথ তথ্য উপাত্ত পাওয়া না যাওয়ায় নিহত-নিখোঁজের সঠিক সংখ্যা নির্ধারণ করা প্রায় অসম্ভব। কিন্তু চার হাজারের যে সংখ্যাটা বলা হচ্ছে সেটা সঠিক হতে পারে।’ তিনি মন্তব্য করেন, ‘যেসব পরিবার তাদের প্রিয়জনকে হারিয়েছে তাদের গল্পগুলো আমাদেরকে প্রকৃত ঘটনা জানতে সাহায্য করবে।’ প্যাটি হাজদু বলেন, ‘অনেক ক্ষেত্রেই দেখা যাচ্ছে কিছু ঘটনায় লোকজন এগুলোকে আত্মহত্যা বলছেন। কিন্তু ঘটনা বিবেচনায় সেটা মনে হয় না। এর ফলে অবশ্যই প্রকৃত সংখ্যার তারতম্য হবে।’

কানাডার খুন হওয়া আদিবাসীদের নিয়ে রেড রিভার উইমেন নামে বিবিসির প্রতিবেদনে ব্যবহৃত ছবি

 

গতবছর এপ্রিলে বিবিসির এক প্রতিবেদনে বলা হয়, প্রতিবছর কানাডার নদীর পাশে অনেক আদিবাসী নারীর লাশ পাওয়া যাচ্ছে। আর ১৫ বছর বয়সী এক আদিবাসী তরুণীকে খুনের দায়ে গতবছর রেমন্ড করমির নামের ৫৩ বছরের এক ব্যক্তিকে গ্রেফতার করে কানাডার পুলিশ। ওই হত্যাকাণ্ডের ঘটনায় দেশজুড়ে সমালোচনার সৃষ্টি হয়। গত নির্বাচনে আদিবাসী নিখোঁজ ও নিহত হওয়ার ঘটনায় তদন্তের প্রতিশ্রুতি দিয়েছিলেন কানাডার বর্তমান প্রধানমন্ত্রী জাস্টিন ট্রুডো। তিনি বলেছিলেন, এটি হবে তার সরকারের কার্যতালিকায় অগ্রাধিকার পদক্ষেপ।

এই প্রেক্ষাপটে আদিবাসী নারীদের নিহত বা নিখোঁজ হওয়ার ঘটনায় বিস্তৃত পরিসরে তদন্তের উদ্যোগ নেয় কানাডা। এর অংশ তিনজন মন্ত্রী সারাদেশের প্রায় দুই হাজার আদিবাসীর সঙ্গে বিষয়টি নিয়ে কথা বলেন। এরা হলেন, আইনমন্ত্রী জোডি-উইলসন রেবোল্ড, নারী বিষয়ক মন্ত্রী প্যাটি হাজদু ও আদিবাসী বিষয়ক মন্ত্রী ক্যরোলিন বেনেট।

কানাডার আদিবাসী বিষয়ক মন্ত্রী ক্যরোলিন বেনেট

আদিবাসী বিষয়ক মন্ত্রী ক্যরোলিন বেনেট জানান, তদন্তে তারা নিহত-নিখোঁজের সঠিক সংখ্যা বের করতে সর্বোচ্চ চেষ্টা করেছেন। নির্বাচনী প্রচারণার সময় বর্তমান প্রধানমন্ত্রী জাস্টিন ট্রুডোর প্রতিশ্রুতির অংশ হিসেবে এ তথ্য উদ্ধারের চেষ্টা করছে সংশ্লিষ্ট মন্ত্রণালয়গুলো। তবে তদন্তে প্রকৃত সংখ্যা সম্পর্কে নিশ্চিত হতে না পারায় আপাতত ন্যাটিভ উইমেন’স অ্যাসোসিয়েশন অব কানাডার (এনডব্লিউএসি) দেওয়া তথ্যের ওপরই নির্ভর করছেন তদন্তকারীরা। সূত্র: গার্ডিয়ান, সিবিসি, বিবিসি।

/এমপি/বিএ/

Ifad ad on bangla tribune

লাইভ

Nitol ad on bangla Tribune
টপ