সীমান্তে ক্যামেরা, রাডার ও সেন্সর বসাচ্ছে ভারত

Send
বিদেশ ডেস্ক
প্রকাশিত : ১৯:১৪, মার্চ ০১, ২০১৬ | সর্বশেষ আপডেট : ১৯:৩৩, মার্চ ০১, ২০১৬

বাংলাদেশ ও পাকিস্তানের সঙ্গে আন্তর্জাতিক সীমান্তে ক্যামেরা, রাডার ও সেন্সর বসানোর পাইলট প্রকল্প হাতে নিয়েছে ভারত। মঙ্গলবার দেশটির পার্লামেন্টের নিম্নকক্ষ লোকসভায় এ তথ্য জানিয়েছেন স্বরাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী কিরেন রিজিজু।
লোকসভায় রিজিজু জানান, ভারত সরকার সিদ্ধান্ত নিয়েছে আন্তর্জাতিক সীমান্তের যেসব স্থানে কাঁটাতারের বেড়া বসানো যাচ্ছে না সেসব স্থানে রাডার, ক্যামেরা,সেন্সর, কমিউনিকেশন নেটওয়ার্ক ও কন্ট্রোল সেন্টার স্থাপন করবে।
প্রতিমন্ত্রী জানান, প্রাথমিকভাবে পাইলট প্রকল্পের অধীনে  পাঞ্জাব, গুজরাট, দক্ষিণ বাংলা, ত্রিপুরা ও জম্মু এলাকায় এসব বসানো হবে।
জম্মু অঞ্চলের পাকিস্তান সীমান্ত সুরক্ষিত করতে সরকার ১০ কোটি রুপি বরাদ্দ দিয়েছে বলে জানান রিজিজু।
উল্লেখ্য, বাংলাদেশ-ভারতের ৪০৯৬ কিলোমিটার আন্তর্জাতিক সীমান্ত রয়েছে। এর মধ্যে আসামে আছে মাত্র ২৬৩ কিলোমিটার। চলতি বছরের জানুয়ারির শেষ দিকে ভারতের কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী রাজনাথ সিং বলেছিলেন,‘পাচার রোধে ভারত-বাংলাদেশ সীমান্ত নজরদারিকে আরও কঠোর করা হবে। সেই সঙ্গে সীমান্ত পার হয়ে বাংলাদেশ থেকে যাতে কোনওভাবেই অনুপ্রবেশ না ঘটে তা নিশ্চিত করা হবে।

রাজনাথ ওই দিন আরও বলেন, ‘ভারত-বাংলাদেশ সীমান্তে নিশ্ছিদ্র নিরাপত্তা ব্যবস্থা করার ব্যবস্থা নেওয়া হয়েছে। দুই দেশের মধ্যে যেসব জায়গায় এখন পর্যন্ত সীমান্ত অরক্ষিত রয়েছে খুব শিগগিরই সেই সব অরক্ষিত জায়গায় বেড়া দেওয়ার ব্যবস্থা করা হবে। বাড়ানো হবে সীমান্ত রক্ষী বাহিনীর (বিএসএফ) নজরদারি। ভারত-বাংলাদেশ সীমান্তে কাঁটাতারের বেড়া থেকে শুরু করে ফ্লাড লাইট, উন্নত যাতায়াত ব্যবস্থাসহ সীমান্ত সুরক্ষায় যা যা দরকার তাই করা হবে।’ সূত্র: ডিএনএ ইন্ডিয়া।

/এএ/

লাইভ

টপ