মেক্সিকোতে গানের মাধ্যমে যৌন হয়রানি প্রতিরোধ

বিদেশ ডেস্ক১৩:৩৬, মার্চ ০৯, ২০১৬

মেক্সিকোতে নারীদের একটি গ্রুপ ‘ডটারস অব ভায়োলেন্স’ যৌন হয়রানি প্রতিরোধে রাজধানী মেক্সিকো সিটিতে এক অভিনব উদ্যোগ নিয়েছে। তিন বছর ধরে তারা ‘সেক্সিস্তা পাঙ্ক’ শীর্ষক এক প্রতিরোধী গান এবং বিভিন্ন অনুষ্ঠানের মাধ্যমে নিপীড়কদের প্রকাশ্যে তুলে ধরার মধ্য দিয়ে তাদের প্রতিরোধ জারি রেখেছেন।

‘ডটারস অব ভায়োলেন্স’-এর মুখপাত্র অ্যানা ব্যাট্রিস বলেন, ‘আমরা এমন এক বিশ্বে বাস করি, যেখানে সবকিছুই পুরুষতান্ত্রিক। আমরা পুরুষদের শিক্ষিত করতে চাই না। আমরা চাই ঠিক এর বিপরীতটা, নারীদের শিক্ষিত করতে চাই।’

মেক্সিকোর রাস্তায় যৌন হয়রানি নিত্যদিনের ঘটনা

এরই মধ্যে যেসব পুরুষের মুখোমুখি হতে হয়েছে, তাদের একাংশ ওই গ্রুপের কাছে ক্ষমা চেয়েছে বলে তারা জানিয়েছেন। ওই নারীবাদী গ্রুপের ওপর এক সদস্য অ্যানা ক্যারেন বলেন, ‘এখন আমি সক্রিয় হওয়ার ক্ষেত্রে আগের চেয়ে অনেক বেশি আত্মবিশ্বাস অনুভব করি। আর রাস্তায় হাঁটতে এখন আর আমার ভয় লাগে না।’

মেক্সিকোতে রাস্তায় যৌন হয়রানি প্রতিরোধে কোন আইন নেই। আর এমন কোনও আইন থাকলেও পুলিশের প্রতি অবিশ্বাসের কারণে নিপীড়িতরা অভিযোগ করতেও যেতে চান না বলে ওই গ্রুপটি জানিয়েছে। একটি নারীবাদী মানবাধিকার গ্রুপ হ্যাবিতায়েস-এর কর্মী ইয়ুকারি মিলান বলেন, আইনগত যে কোনও পরিবর্তন আসতে সময় লাগবে। তাই সরাসরি কাজে নেমে পড়াটা খুবই গুরুত্বপূর্ণ। যার মধ্যে রয়েছে, নারীদের শিক্ষিত করে তোলা, তাদের সাথে কথা বলা ইত্যাদি। যেন তারা নিজেদের একা না মনে করে আর হয়রানিটাকে বুঝতে সক্ষম হন। আর তাহলেই তারা সাহায্য চাইতে পারবে।

যৌন হয়রানির বিরুদ্ধে নারীদের বিক্ষোভ

নারীরা সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমেও নিজেদের এই বার্তা অন্যদের পৌঁছে দিচ্ছেন। তারা আরও জানিয়েছেন, পুরো লাতিন অঞ্চলজুড়ে তারা সমর্থন পাচ্ছেন। তারা আশা করছেন, অচিরেই এই উদ্যোগ ম্যাক্সিকোর সড়ক ছাড়িয়ে একটি সামাজিক আন্দোলনে রূপ নিতে সক্ষম হবে। সূত্র: আলজাজিরা।

/এসএ/বিএ/

লাইভ

টপ