Vision  ad on bangla Tribune

৫০০ রুপির জন্য নদীতে ঝাঁপ দিলেন বেকার

বিদেশ ডেস্ক১৭:০৫, মার্চ ২৮, ২০১৬

দেবেশ খানালহতাশাগ্রস্ত এক বেকার ব্যক্তি বাজিতে মাত্র ৫০০ রুপি জেতার জন্য গুজরাটের সবরমতি নদীতে ঝাঁপ দেন। কিন্তু এ যাত্রায় কোনও রকমে তিনি বেঁচে ফেরেন।
ভারতীয় সংবাদমাধ্যম মুম্বাই মিররকে নেপালি বংশোদ্ভূত দেবেশ খানাল নামক ওই ব্যক্তি বলেন, ‘আমি শহরের হোটেলে ছোটখাট কাজ করতাম, তাতে প্রতিদিন প্রায় ৪০০ রুপির মতো রোজগার হতো। কিন্তু সম্প্রতি আমি নিদারুণ অর্থকষ্টে ভুগছিলাম। তাই আমি বন্ধু সাগর থাপার সঙ্গে দেখা করি। আমি তার কাছে সাহায্য চাই। তিনি আমাকে বললেন, আমি যদি সবরমতি পার হতে পারি, তাহলেই কেবল তিনি আমাকে ৫০০ রুপি দেবেন।’ তিনি জানান, গত এক সপ্তাহ ধরে তিনি বেকার রয়েছেন। তার কাছে খাওয়ার টাকাটাও নাই। দেবেশ আরও বলেন, ‘আমার ছেলে বিজ্ঞানে পড়ছে। তার পড়াশোনার জন্য আমার অর্থের প্রয়োজন। তাই আমি ওই শর্ত গ্রহণ করেছি।’  
মৃত্যুমুখে পতিত ওই ব্যক্তির চিৎকারে নদী তীরের কয়েকজন পাহারাদার ফায়ার ব্রিগেডে খবর দেন। পরে ফায়ার ব্রিগেড কর্মীদের সহায়তায় দেবেশ সে যাত্রায় বেঁচে ফেরেন। দেবেশ পুলিশকে জানান, এলিসব্রিজের দ্বিতীয় পিলারের কাছে গিয়ে তিনি বুঝতে পারেন যে, তিনি আর এগোতে পারছেন না। তখন তিনি চিৎকার করে সাহায্য চান।
পুলিশ জানিয়েছে, দেবেশ বিএসসি তৃতীয় বর্ষ পর্যন্ত পড়াশোনা করেছেন। কিন্তু অর্থকষ্টে তিনি পড়াশোনা শেষ করতে পারেননি। তার বাবা মারা যাওয়ার পর থেকে পুরো সংসারের ভার তার কাঁধে এসে পড়ে। তিনি গির শহরে একটা হোটেলে চুক্তিভিত্তিক কাজ করতেন। কিন্তু সম্প্রতি সেটি বন্ধ হয়ে গেলে দেবেশ বেকার হয়ে পড়েন। সূত্র: টাইমস অব ইন্ডিয়া, মুম্বাই মিরর।

/এসএ/বিএ/

লাইভ

টপ