Vision  ad on bangla Tribune

দ্য গার্ডিয়ানরাশিয়া সংক্রান্ত তদন্ত থেকে বাদ পড়লেন জেফ সেশনস

বিদেশ ডেস্ক২১:৩৫, মার্চ ০৩, ২০১৭

মার্কিন নির্বাচনের সময় রুশ কূটনীতিকের সঙ্গে বৈঠকের খবর প্রকাশ হওয়ার পর সমালোচনা ও তোপের মুখে পড়েন যুক্তরাষ্ট্রের অ্যাটর্নি জেনারেল জেফ সেশনস। তখন যুক্তরাষ্ট্রে নিযুক্ত রাশিয়ার রাষ্ট্রদূত সের্গেই কিসরায়েকের সঙ্গে অন্তত দুইবার গোপন বৈঠক করেছেন তিনি। এ ঘটনায় ব্যাপক সমালোচনার মুখে মার্কিন নির্বাচনে রাশিয়ার হস্তক্ষেপ বিষয়ক তদন্ত কমিটি থেকে নিজেকে সরিয়ে নিতে বাধ্য হয়েছেন তিনি। তবে ডেমোক্রেটরা তার পদত্যাগের দাবিতে অটল রয়েছেন। এ বিষয়টি নিয়ে শুক্রবার শিরোনাম করেছে যুক্তরাজ্যভিত্তিক সংবাদমাধ্যম দ্য গার্ডিয়ান।

মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প অবশ্য তোপের মুখে থাকা সেশনসের পক্ষেই দাঁড়িয়েছেন। তিনি সেশনকে একজন সৎ মানুষ হিসেবে আখ্যায়িত করেছেন। ট্রাম্পের ভাষায়, ‘জেফ সেশনস একজন সৎ মানুষ। তিনি হয়তো স্পষ্ট করে অভিযোগের ব্যাখা দিতে পারেননি। তবে তার উদ্দেশ্য অসৎ ছিল না।’

রাশিয়ার রাষ্ট্রদূত সের্গেই কিসরায়েকের সঙ্গে জেফ সেশনের দুই গোপন বৈঠকের খবর প্রথমে সামনে নিয়ে আসে ওয়াশিংটন পোস্ট। ওয়াশিংটন পোস্টের প্রতিবেদনে বলা হয়, কিসলায়েকের সঙ্গে গত বছর জুলাই মাসে রিপাবলিকানদের জনভেনশনের সময় একবার সাক্ষাত হয় জেফ সেশনের। আবার সেপ্টেম্বরে তার অফিসে একবার সাক্ষাৎ হয়। তখন জেফ সেশন ছিলেন যুক্তরাষ্ট্রের সিনেট আর্মড সার্ভিসেস কমিটির একজন সদস্য।

এই অভিযোগ উড়িয়ে দিয়েছেন সেশন। বুধবার তিনি বলেন, তিনি কখনোই নির্বাচন নিয়ে রাশিয়ার কারও সঙ্গে আলোচনা করেননি। তার বিরুদ্ধে আনা অভিযোগ সম্পূর্ণ মিথ্যে।

/এমপি/

samsung ad on Bangla Tribune

লাইভ

টপ