হিন্দুস্তান টাইমস পাকিস্তানের জঙ্গিদের সঙ্গে সেলফোনে যোগাযোগ হতো সুঞ্জওয়ানের হামলাকারীদের

Send
বিদেশ ডেস্ক
প্রকাশিত : ১৫:৪৭, ফেব্রুয়ারি ১৪, ২০১৮ | সর্বশেষ আপডেট : ১৫:৫৮, ফেব্রুয়ারি ১৪, ২০১৮

জম্মু কাশ্মিরের সুঞ্জওয়ানে সেনা ক্যাম্পে হামলাকারীদের সঙ্গে পাকিস্তানের সংযোগ থাকার প্রমাণ ভারত সরকারের হাতে রয়েছে বলে দাবি করা হচ্ছে। বলা হচ্ছে, হামলার পরিকল্পনাকারীরা পাকিস্তানে বসেই পুরো ঘটনা নিয়ন্ত্রণ করেছে। মোবাইলে হামলাকারীদের সঙ্গে যোগাযোগ করেছে তারা। আর মোবাইলের সেসব কথোপকথনগুলো হাতে পেয়েছে ভারত সরকার। কয়েকজন শীর্ষ সরকারি কর্মকর্তাকে উদ্ধৃত করে ভারতীয় সংবাদমাধ্যম হিন্দুস্তান টাইমস বুধবার (১৪ ফেব্রুয়ারি) খবরটিকে প্রধান শিরোনাম করেছে।

হিন্দুস্তান টাইমসের প্রথম পাতা
শনিবার (১০ ফেব্রুয়ারি) ভোরে জম্মু-কাশ্মিরের সুঞ্জওয়ানের সেনা ক্যাম্পের আবাসিক এলাকায় হামলা চালানোর পর একটি ভবনে ঢুকে পড়ে হামলাকারীরা। পরে তাদের ঘিরে সেনা-পুলিশ ও প্যারামিলিটারি সদস্যরা অভিযান শুরু করে। ৩০ ঘণ্টা পর ওই অভিযান শেষ হয়। ওই ঘটনায় ছয় সেনা সদস্য,এক বেসামরিক ব্যক্তি ও তিন হামলাকারী নিহত হয়। এ হামলাকে কেন্দ্র করে ভারত ও পাকিস্তানের মধ্যে নতুন করে উত্তেজনা শুরু হয়েছে। ভারতের দাবি,পাকিস্তানভিত্তিক সন্ত্রাসী গোষ্ঠী জইশ-এ-মোহাম্মদ এই হামলা চালিয়েছে। অন্যদিকে পূর্ণাঙ্গ তদন্ত হওয়ার আগেই মন্তব্য করার জন্য ভারতের সমালোচনা করেছে পাকিস্তান।

ভারত সরকারের শীর্ষস্থানীয় কয়েকজন কর্মকর্তা হিন্দুস্তান টাইমসকে বলেন, জঙ্গিরা দক্ষিণ কাশ্মির থেকে সুঞ্জওয়ানে এসেছিল এবং তাদের সঙ্গে মোবাইল ছিল। তিন জঙ্গি নিয়মিত মোবাইল ফোন ব্যবহার করতো এবং পাকিস্তান ও দক্ষিণ কাশ্মিরে থাকা পরিকল্পনাকারীদের সঙ্গে যোগাযোগ করতো। জম্মু কাশ্মির পুলিশের মহা পরিচালক এসপি ভাইদ বলেন, ‘পাকিস্তানের কেউ কেউ তাদেরকে নিয়ন্ত্রণ করতো এবং তাদের সঙ্গে হামলাকারীদের কথা হতো। তারা এক পাকিস্তানি নাগরিকের সঙ্গেও যোগাযোগ করতো। উপত্যকাতেই তার কাছে রিপোর্ট করতো তারা।’

ভারতীয় কর্মকর্তাদের দাবি, ১০ ফেব্রুয়ারি সুঞ্জওয়ান ক্যাম্পে হামলার পর পরই জঙ্গিরা কয়েকটি ফোন করেছে। এ ঘটনার তদন্তে জড়িত এক কর্মকর্তা জানান, ওই টেলিফোন কলে জঙ্গিদেরকে সর্বোচ্চ ক্ষতিসাধনের নির্দেশ দেওয়া হয়েছিল। 

/এফইউ/

লাইভ

টপ