আনাদোলু পোস্ট তুরস্ক কোনও দেশে সেনা অভ্যুত্থান সমর্থন করবে না: এরদোয়ান

Send
বিদেশ ডেস্ক
প্রকাশিত : ২৩:৫৩, জানুয়ারি ২৬, ২০১৯ | সর্বশেষ আপডেট : ০৫:০৮, জানুয়ারি ২৭, ২০১৯

ভেনেজুয়েলার বামপন্থী প্রেসিডেন্ট নিকোলাস মাদুরোকে উৎখাত প্রচেষ্টার প্রেক্ষিতে তুরস্কের প্রেসিডেন্ট রজব তাইয়্যেব এরদোয়ান বলেছেন, তুরস্ক কোনও দেশে সেনা অভ্যুত্থান সমর্থন করবে না। ভেনেজুয়েলাতে বিরোধীদের নেতা জুয়ান গুইদোর নিজেই নিজেকে অন্তর্বর্তীকালীন প্রেসিডেন্ট ঘোষণা করা ও গুইদোকে যুক্তরাষ্ট্র সহ পশ্চিমা শক্তিগুলোর সমর্থন প্রদানের বিরোধিতা করে মাদুরোর পাশে দাঁড়ানো ঘোষণা দিয়েছেন তিনি। এ বিষয়ে তুরস্কভিত্তিক সংবাদমাধ্যম আনাদোলু পোস্ট ২৬ জানুয়ারি ২০১৯ তারিখে প্রধান শিরোনাম করেছে, ‘টার্কি স্ট্রংলি অপোসড টু এনি মিলিটারি ক্যু ইন ওয়ার্ল্ড।’





































সরকার বিরোধী ব্যাপক বিক্ষোভের ধারাবাহিকতায় গত বুধবার (২৩ জানুয়ারি) নিজেকে অন্তর্বর্তীকালীন প্রেসিডেন্ট ঘোষণা করেছেন ভেনেজুয়েলার বিরোধী দলীয় নেতা জুয়ান গুইদো। কয়েক মিনিটের মাথায় তাকে ‘স্বীকৃতি’ দিয়ে দিয়েছে যুক্তরাষ্ট্র। এক বিবৃতিতে মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প বলেছেন, ‘ভেনেজুয়েলার ন্যাশনাল অ্যাসেম্বলির প্রেসিডেন্ট জুয়ান গুইদোকে আমি দেশটির প্রেসিডেন্ট হিসাবে স্বীকৃতি দিচ্ছি।’
কিন্তু এখনও দেশটির সেনাবাহিনী মাদুরোর পক্ষেই আনুগত্য ধরে রেখেছে। বিশ্লেষকরা মনে করেন, দেশটির সেনাবাহিনী যেদিকে দাঁড়াবে, ক্ষমতার পাল্লা সেদিকেই হেলে পড়বে। এখন পর্যন্ত উচ্চপদস্থ সেনা কর্মকর্তারা মাদুরোর পক্ষে থাকলেও সেনাবাহিনীর তুলনামূলক কম বয়সী কর্মকর্তাদের মধ্যে রয়েছে সাধারণ জনগণের মতোই ক্ষোভ। এ সপ্তাহের শুরুতেই দেশটির ‘বলিভিয়ান ন্যাশনাল গার্ড’ নামে পরিচিত মিলিটারি পুলিশের ২৭ সদস্য বিদ্রোহ করেছিল, যা পরে নস্যাৎ করে দেওয়া হয়।
আনাদোলু পোস্ট লিখেছে, গত শুক্রবার (২৫ জানুয়ারি) তুরস্কে ক্ষমতাসীন ‘জাস্টিস অ্যান্ড ডেভেলপমেন্ট’ পার্টির পক্ষে এরজুরুম প্রদেশের মেয়র প্রার্থী ঘোষণা করেছেন এরদোয়ান। সেখানেই তিনি সেনা অভ্যুত্থান নিয়ে নিজের অবস্থান তুলে ধরেন। তার ভাষ্য, ‘আমরা কখনও অভ্যুত্থান পরিকল্পনাকারীদের সমর্থন করি না। সেটা বিশ্বের যেখানেই ঘটুক না কেন, আমরা তার বিরুদ্ধে।’ মিসরে গণতান্ত্রিকভাবে নির্বাচিত প্রেসিডেন্ট মুরসির কথাও এ সময় উল্লেখ করেন তিনি। মুরসির বিরুদ্ধে সেনা অভ্যুত্থানের পরিকল্পনাকারীদের সঙ্গে আজ পর্যন্ত কথা না বলার দাবি করেন এরদোয়ান।
ভেনেজুয়েলার প্রেসিডেন্টের পক্ষে আগেও বক্তব্য রেখেছেন এরদোয়ান। ২০১৬ সালে খোদ এরদোয়ানের বিরুদ্ধেই তুর্কি সেনাবাহিনীর একাংশ অভ্যুত্থানের চেষ্টা করেছিল। সেই অভ্যুত্থানের প্রেক্ষাপটে ভেনেজুয়েলার প্রেসিডেন্ট মাদুরো সমর্থন জানিয়েছিলেন এরদোয়ানকে।

/এএমএ/

লাইভ

টপ