স্বচ্ছ পানির ১০ সমুদ্র

Send
নাদিয়া নাহরিন
প্রকাশিত : ১৩:২২, আগস্ট ০৩, ২০১৮ | সর্বশেষ আপডেট : ১৫:১১, আগস্ট ০৩, ২০১৮

সমুদ্রের নীল জলরাশি সবসময়ই আমাদের হাতছানি দিয়ে ডাকে। যদি সেই জলরাশির অতল পর্যন্ত চোখে পড়ে, তাহলে পুরো সমুদ্র দর্শনটাই যেন ষোলআনা পূর্ণ হয়ে যায়! হ্যাঁ, বিশ্বের এমনই কয়েকটি কাঁচের মতো  স্বচ্ছ পানির সমুদ্র সম্পর্কে ভ্রমণপ্রিয়দের জানাতেই এই আয়োজন।

গ্রিসের পোর্টো কাটসিকি সৈকত

গ্রিসের পোর্টো কাটসিকি সৈকত


গ্রিসের এই সমুদ্র সৈকতটিকে পাওয়া যাবে লেফকাডা নামক দ্বীপে। সুনসান এবং জনপ্রাণিহীন এই দ্বীপটির একেবারে শেষ মাথায় দেখা মিলবে এই স্বচ্ছ পানির সমুদ্রের।  ভূ-মধ্যসাগরের অন্যতম ১০টি সুন্দর সৈকতের মধ্যে কাটসিকির অবস্থান রয়েছে শীর্ষেই।

মালদ্বীপের ফুলহাদু সৈকত

মালদ্বীপের ফুলহাদু সৈকত


মূলত ফুলহাদু হলো ভারত মহাসাগরের বুকে জেগে ওঠা একটি দ্বীপরাজ্য। আর এর প্রান্তেই রয়েছে সমুদ্র সৈকতটি। আপনি যদি প্রাকৃতিক সৌন্দর্যপ্রেমী হন, তাহলে ছুটিতে বেড়িয়ে আসতে পারেন এই তটরেখা থেকে। এখানকার পাম গাছের সারি, কোরাল জীব বৈচিত্র্য এবং রং-বেরঙের মাছ আপনাকে নিয়ে যাবে ভিন্ন এক দুনিয়ায়।
 কোরাল জীবের সৈকত ‘ইপিল’

কোরাল জীবের সৈকত ‘ইপিল’
ফিলিপাইনসের এই সমুদ্রটি যেমন পরিচিত তার আয়নার মত স্বচ্ছ পানির জন্য, আবার একইসঙ্গে এর সুখ্যাতি রয়েছে কোরাল জীববৈচিত্র্যের জন্যও। এখানেও দেখা মিলবে সারি সারি পাম গাছ, রঙ্গিন মাছ আর বন্ধুসুলভ কচ্ছপের!
ভিয়েতনামের ডার ট্রু সমুদ্র সৈকত

ভিয়েতনামের ডার ট্রু সমুদ্র সৈকত
এটি আসলে ভিয়েতনাম বিমানবন্দরের খুব কাছেই। তাই উড়োজাহাজে করে সেখানে পৌঁছানোর সময়েই আপনি সৈকতটির দেখা পাবেন। এছাড়াও এর চারপাশের ট্রপিক্যাল জঙ্গল, পাইন গাছের চিরচেনা গন্ধ আর শ্বেত রংয়ের বালি আপনার কর্মব্যস্ততা ভুলিয়ে দেবে।    
ভারতের ‘এলিফ্যান্ট বিচ

ভারতের ‘এলিফ্যান্ট বিচ’
বেশ কাছেই বলা চলে এই সৈকতটি। যারা একটু রোমাঞ্চকর অভিজ্ঞতা পছন্দ করেন, তারাই মূলত এটি বেছে নেন। এখানকার স্কুবা ডাইভিং, ট্রেকিং, মাছ ধরা আপনাকে অবশ্যই ভিন্ন ধরনের রোমাঞ্চ দেবে। চাইলে সি-প্লেনে করে পুরো সমুদ্রের বুকে বেড়িয়েও আসতে পারেন।
 ইতালির  ‘খরগোশ’ সৈকত

ইতালির  ‘খরগোশ’ সৈকত
নামে খরগোশ বা র‍্যাবিট হলেও সিসিলির এই দ্বীপে কোনও খরগোশের দেখাই মিলবে না! পাথুরে দেয়ালের সঙ্গে নীলাভ পানি। কোথাও একেবারে গাঢ় নীল আবার কোথাও আকাশি। এই দুয়ের মিশ্রণেই প্রবাহিত হচ্ছে এই সমুদ্রটি।
আটকে থাকা জাহাজের সৈকত

আটকে থাকা জাহাজের সৈকতটি

এর নামটাই হল ‘শীপরেক বীচ’। গ্রিসের জ্যাকিনথস নামক স্থানের সৈকতটিতে গেলেই চোখে পড়বে একটি পুরনো জাহাজের ধ্বংসাবশেষ পড়ে রয়েছে। কোথা থেকে যে এই জাহাজটি এসেছিল সেটার হদিস মেলা ভার! কিন্তু এই পুরনো রহস্যময় জাহাজটিই পর্যটকদের অন্যতম আকর্ষণ।  
বাহামা দ্বীপপুঞ্জের ‘কর্কট সৈকত’

বাহামা দ্বীপপুঞ্জের ‘কর্কট সৈকত’
কর্কট বা ক্যানসার! পেলিক্যান বিচ নামেও পরিচিত। এবং এটিই সবচেয়ে দীর্ঘ স্বচ্ছ পানির সৈকত, যা চলে গেছে মাইলের পর মাইল। কিন্তু এখানে পৌঁছতে গেলে আপনাকে পাড়ি দিতে হবে বন্ধুর এবং কাদামাটির পথ। এই যা!
ওয়াহু দ্বীপের হানাউমা  উপসাগর

ওয়াহু দ্বীপের হানাউমা  উপসাগর
আগ্নেয়গিরির অগ্নুৎপাত থেকেই এর জন্ম। তাও আবার সেই হাজার বছর আগে। হ্যাঁ, হাওয়াই রাজ্যের প্রান্তেই এর অবস্থান। প্রতি বছরই এখানে হাজার হাজার পর্যটক ঘুরতে আসে শুধু মাত্র এখানকার সামুদ্রিক জীবনটা নিজ চোখে দেখার জন্যে।
 যুক্তরাজ্যের ডেভিল’স বে

যুক্তরাজ্যের ডেভিল’স বে
নামে ডেভিল’স বে বা ‘শয়তানের উপসাগর’ হলেও এখানকার জলরাশি ঠিক তার উল্টো। তবে সেখানে যাবার জন্যে আপনাকে বেছে নিতে হবে এক বন্ধুর পথ। কিন্তু একবার পৌঁছে যেতে পারলেই এর স্বচ্ছ আকাশি জলরাশি আপনাকে মোহিত করবে। চাইলে আরেকটু গভীরে যেয়ে সমুদ্রের নিচের রাজ্যে ডাইভও দিয়ে আসতে পারেন। আর ডাঙায় রয়েছে মাঝারি আকৃতির শ্বেত পাথর এবং প্রাচীন কিছু সুড়ঙ্গ।

তথ্য: রিডার্স ডাইজেস্ট

/এনএ/

লাইভ

টপ