ত্বকের যত্নে ডাল

Send
লাইফস্টাইল ডেস্ক
প্রকাশিত : ১৩:১৭, ফেব্রুয়ারি ২২, ২০১৬ | সর্বশেষ আপডেট : ১৩:২৮, ফেব্রুয়ারি ২২, ২০১৬

মসুরের ডাল

ডাল খাওয়ার পাশাপাশি সৌন্দর্য রক্ষায় কতটা উপকারী সেটা সচেতন মানুষ মাত্রই বুঝতে পারবেন।বিশেষ করে ত্বকের যত্নে মসুর ডালের বিকল্প নেই। একটা সময় ছিল যখন শ্যাম্পু আসেনি। তখন তরুণীরা ডাল ভেজানো পানি দিয়ে চুলের যত্ন নিতেন।

চিকিৎসকরা বলে থাকেন,  ডার্ক সার্কেল, মেসতা, ক্ষতের দাগ, ফেটে যাওয়া ত্বক, চুলের খুশকি এগুলো সব থেকে রেহাই পেতে মসুর ডাল ভীষণ উপকারী।

ডার্ক সার্কেল দূর করার জন্য মসুরের ডাল ঘন্টাখানেক ভিজিয়ে রেখে পেস্ট করে নিন।  ২০ মিনিটের মত চোখের উপর দিয়ে রাখুন। প্রতিদিন একবার এই থেরাপি নিলে ডার্ক সার্কেল দৌড়ে পালাবে।

মেসতার দাগ দূর করতেও একই পদ্ধতিতে মসুর ডাল ব্যবহার করুন। সময়টা একটু বাড়িয়ে দিন। ৩০ মিনিটের মতো রাখুন।

বসন্ত, ব্রন, ফোঁড়া শুকিয়ে যাওয়ার পর বিচ্ছিরি রকম দাগ পড়ে যায়। এই দাগ দূর করতে দুধের সঙ্গে মসুরের ডালের পেস্ট তৈরি করে নিয়মিত ব্যবহার করুন। একদম দাগ চলে যাবে।  

শ্যাম্পু বা ক্লিনজিং সোপে যদি আপনার এলার্জি থাকে তাহলে মসুরের ডাল ভেজানো পানি বা পেস্ট করে পানি দিয়ে গুলিয়ে চুলে লাগিয়ে ২০ মিনিট পর ধুয়ে ফেলুন। কন্ডিশনার ও শ্যাম্পুর কাজ একসঙ্গে করবে মসুরের ডাল।

যাদের ত্বক অতিরিক্ত রকম শুস্ক ফেটে যাওয়ার ভাব আছে। তারা নিয়মিত মসুরের ডাল ব্যবহার করতে পারেন ফাটা স্থানে। ডালের পেস্ট করে দুই থেকে তিনদিন দিয়ে রাখলেই সেটি শুকিয়ে যাবে।

/এফএএন /

লাইভ

টপ