ডায়েটের সঙ্গে চালাকি!

Send
আশিকুর রহমান চৌধুরী
প্রকাশিত : ১২:০২, মার্চ ২৯, ২০১৬ | সর্বশেষ আপডেট : ১২:০৪, মার্চ ২৯, ২০১৬

ডায়েট

 

ডায়েটের বেলায় বাস্তববাদী হওয়াই ভাল। তা না হলে যতই স্বাস্থ্যকর খাবারের কথা বলি না কেন, উৎসবের আমেজে সবই যেন হাওয়ায় মিলিয়ে যায়।

দিনের প্রথম ভাগে বেশি খাওয়া

আপনার শ্বসনতন্ত্র সন্ধ্যার সময় আর সকালের সময় মোটেও এক থাকে না। এর কারণ আপনি রাতের বেলা কিন্তু তেমন কার্যকর থাকেন না। দিন যেতে যেতে কাজও কমতে থাকে, সেইসঙ্গে শ্বসন প্রক্রিয়া। যদি আপনি নিজের স্বাস্থ্যকর ডায়েট থেকে দূরে যেতেই চান, মানে বেশি বেশি খেতেই চান, তাইলে সকালের ভাগে খান, সাথে দুপুরের খাওয়াটাও করুন ভরপেট।

ব্যায়ামের পর খান

ব্যায়াম আপনার হজমশক্তি বাড়ায়। এমনকি ব্যায়াম শেষ করার পরেও তার রেশ রয়ে যায়, আর শরীর থেকে ক্যালরি ক্ষয় হতে থাকে। আর তাই কোনও ব্যায়ামের পরপরই রাখুন বড়সড় খানাপিনার বন্দোবস্ত। তাইলে দেখবেন, যা খাচ্ছেন সবই ক্যালরি খরচের মাধ্যমে শরীর থেকে বেরিয়ে যাচ্ছে।

অনুষ্ঠানে যাবার হাল্কা খেয়ে নিন

ব্যাপারটা সরল। কোনো অনুষ্ঠানে যাবার আগে সালাদ বা স্যান্ডউইচের মতো কিছু খেয়ে নিলে আর সেখানে গিয়ে গাদাগাদা খাবারের ওপর হামলে পড়বেন না নিশ্চয়ই।

পানি পানি

ক্ষুধা আর পিপাসার সিগনালগুলো মস্তিষ্কের খুব কাছাকাছি থাকে। তাই কখনো আমরা তৃষ্ণা লাগলেও ভরপেট খেয়ে ফেলি। দিনে কমপক্ষে ৮-১০ গ্লাস পানি পান করলে বেশি খাওয়ার অভ্যাসও কমে যাবে।

স্যুপ খান

স্যুপ খেলে সারাদিন পেট ভরা লাগবে। পানির ওপরও নিয়ন্ত্রণ রাখা সহজ হবে। 

/এফএএন/

লাইভ

টপ