behind the news
Rehab ad on bangla tribune
Vision Refrigerator ad on bangla Tribune

চলে গেলেন মিশরের কথাসাহিত্যিক এদুয়ার আল-খারাত

১৫:২৮, জানুয়ারি ০৭, ২০১৬

আপিজে কোলকাতা সাহিত্য উৎসব ২০১৬আগামী ১৪ জানুয়ারি ২০১৬ শুরু হতে যাচ্ছে আপিজে কোলকাতা সাহিত্য উৎসব। এ বছর অনুষ্ঠিত হবে এ উৎসবের সতেরোতম আসর। এ উৎসবের আয়োজনের পেছনে পৃষ্ঠপোষকতা দান করছে আপিজে সুরেন্দ্র গ্রুপ এবং অক্সফোর্ড বুকস্টোর্স। এ বছর আরো সব বিখ্যাত লেখক-কবিদের মধ্যে উপস্থিত থাকবেন নাইজেরিয়ার কবি ও কথাসাহিত্যিক বেন ওকরি। এ উৎসবে উপস্থিত থাকার আনন্দ প্রকাশ করে তিনি বলেন, ‘আপিজে কোলকাতা সাহিত্য উৎসবে যোগদান করার সুযোগ পাব ভাবতেই আনন্দ লাগছে। আপনারা জানেন, ভারতে অবস্থানকালে আমার মনে হয় আমি নিজের দেশেই আছি। অনেক দিন আগে আমি প্রথমবার ভারতে গিয়েছি। তখন থেকেই আমার ভেতরে এমন এক রহস্যময় অনুভূতির উপস্থিতি টের পাই।’ উল্লেখ্য, তিনি এ উৎসবে কথাসাহিত্যের নানা কলা-কৌশল নিয়ে আলোচনা করবেন, তাঁর লেখা কবিতা থেকে নির্বাচিত কবিতা পাঠ করবেন এবং তাঁর নতুন উপন্যাস দি এইজ অব ম্যাজিক সম্পর্কে কথা বলবেন।

 

 

অস্ট্রেলিয়ান সোসাইটি অব অথোর পুরস্কার পেলেন জোয়ান বুমন্ট। ২০১৫ সালের অস্ট্রেলিয়ান সোসাইটি অব অথোর পুরস্কার দেয়া হলো অস্ট্রেলিয়ার নারী লেখক জোয়ান বুমন্টকে। তাঁর বইয়ের নাম ব্রোকেন নেশনস: অস্ট্রেলিয়ানস ইন দ্য গ্রেট ওয়ার। অস্ট্রেলিয়ান সোসাইটি অব অথোর পুরস্কার দেয়া হয় এক বছর পর পর। এ পুরস্কারটি দেয়া হয় কোনো নারী লেখককে। আর পুরস্কার প্রদানের প্রধান বিবেচ্য বিষয় হলো, লেখার বিষয়বস্তু অবশ্যই হতে হবে যুদ্ধবিরোধী। এ পুরস্কারের সংক্ষিপ্ত তালিকায় জোয়ান বুমন্টের সঙ্গে আরো ছিলেন লিবি কনর; তাঁর বইয়ের নাম দ্য ওয়ারিয়র। আনজাক: দি আনঅথোরড বায়োগ্রাফি বইয়ের লেখক করোলিন হলব্রুক, দ্য গোল্ডেন এইজ-এর লেখক জোয়ান লন্ডন, হলিডে ইন ক্যাম্বোডিয়া-র লেখক লরা জ্যাঁ মাককে এবং মাই গ্যালিপল বইয়ের যৌথ লেখক রুথ স্টার্ক ও রবার্ট হানাফোর্ড। উল্লেখ্য এ পুরস্কারের মূল্যমান ১২ হাজার ডলার।

 

 

চলে গেলেন মিশরের কথাসাহিত্যিক এদুয়ার আল-খারাত। আরববিশ্বের সাম্প্রতিককালের গুরুত্বপূর্ণ লেখকদের অন্যতম এদুয়ার আল-খারাত। তিনি মিশরের প্রভাবশালী লেখকদের অন্যতম। উপন্যাস, ছোটগল্প এবং সাহিত্যসমালোচনার জন্য তিনি আরবজগতসহ সারাবিশ্বের পাঠকদের কাছে সুপরিচিত। আল-খারাতের জন্ম ১৯২৬ সালে আলেকজান্দ্রিয়ায়। অল্প বয়সে বাবাকে হারানোর কারণে মাত্র সতেরো বছর বয়সেই তাঁকে সংসারের একমাত্র উপার্জনক্ষম ব্যক্তির ভূমিকা নিতে হয়। বাবার ছোটখাটো ব্যবসায়ের সঙ্গে নিজেকে জড়িয়ে নিতে বাধ্য হলেও তিনি শেষ পর্যন্ত আলেকজান্দ্রিয়া বিশ্ববিদ্যালয় থেকে আইনশাস্ত্রে ডিগ্রি অর্জন করেন। পরবর্তিতে কিছুদিন ব্যাংকে চাকরি করেন এবং কায়রোতে রোমানীয় দূতাবাসে অনুবাদকের কাজও করেন। তবে সাহিত্য সাধনা ছিল তাঁর সারাজীবনের সঙ্গী। তাঁর গ্রন্থগুলোর মধ্যে বিশেষভাবে উল্লেখযোগ্য হলো, রামা অ্যান্ড দ্য ড্রাগন, সিটি অব সাফ্রন, গালর্স অব আলেকজান্দ্রিয়া, স্টোনস অব বোবেলো ইত্যাদি।

গ্রন্থানায় : দুলাল আল মনসুর

Ifad ad on bangla tribune

লাইভ

Nitol ad on bangla Tribune
টপ