লেকহেড স্কুল খুলে দেওয়ার রায় স্থগিত

Send
বাংলা ট্রিবিউন রিপোর্ট
প্রকাশিত : ১৫:৩৬, নভেম্বর ১৫, ২০১৭ | সর্বশেষ আপডেট : ১৬:২০, নভেম্বর ১৫, ২০১৭

লেকহেড স্কুললেকহেড গ্রামার স্কুলের গুলশান ও ধানমন্ডি শাখা দুটি ২৪ ঘণ্টার মধ্যে খুলে দেওয়া সংক্রান্ত হাইকোর্টের রায় স্থগিত করেছেন সুপ্রিম কোর্টের চেম্বার আদালত। একইসঙ্গে এ বিষয়ে শুনানির জন্য আগামী রবিবার শুনানির দিন ধার্য করা হয়েছে। আপিল বিভাগের নিয়মিত বেঞ্চে এ শুনানি হওয়ার কথা। 

আদালতের রায় স্থগিত চেয়ে রাষ্ট্রপক্ষের করা আবেদনের ওপর বুধবার শুনানি হয়। শুনানি শেষে বিচারপতি সৈয়দ মাহমুদ হোসেনের চেম্বার আদালত এই আদেশ দেন।

আদালতে আবেদনের ওপর শুনানি করেন অ্যাটর্নি জেনারেল মাহবুবে আলম। এসময় রিট আবেদনকারীদের পক্ষে উপস্থিত ছিলেন আইনজীবী এএফ হাসান আরিফ, ব্যারিস্টার আখতার ইমাম ও ব্যারিস্টার রাশনা ইমাম। 

এর আগে মঙ্গলবার হাইকোর্ট তার রায়ে স্কুল মালিক ও অভিভাবকদের করা দুটি রিটের পরিপ্রেক্ষিতে জারি করা রুলগুলো যথাযথ ঘোষণা করে রায় ঘোষণা করেন। একইসঙ্গে স্কুলটি বন্ধে শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের আদেশ অবৈধ ঘোষণা করে ২৪ ঘণ্টার মধ্যে স্কুল খুলে দেওয়ার নির্দেশ দেন। বিচারপতি সৈয়দ মোহাম্মদ দস্তগীর হোসেন ও বিচারপতি মো. আতাউর রহমান খানের সমন্বয়ে গঠিত হাইকোর্টের দ্বৈত বেঞ্চ এই রায় দেন। 

সেই রায় স্থগিত চেয়ে আজ বুধবার রাষ্ট্রপক্ষ আবেদন জানায়। এরপর চেম্বার আদালত হাইকোর্টের রায় স্থগিত করে আবেদনটি শুনানির জন্য আপিল বিভাগের নিয়মিত বেঞ্চে পাঠিয়ে দেন।

এর আগে গত ৬ নভেম্বর গুলশান ও ধানমন্ডির দুটি শাখাসহ লেকহেড স্কুলের সব শিক্ষা কার্যক্রম বন্ধের নির্দেশ দেয় শিক্ষা মন্ত্রণালয়। এখানকার যুগ্ম-সচিব সালমা জাহান স্বাক্ষরিত এক চিঠির মাধ্যমে ঢাকা জেলা প্রশাসককে এই নির্দেশনা দেওয়া হয়। এতে বলা হয়েছে, সরকারের অনুমোদন না নেওয়া প্রতিষ্ঠানটি ধর্মীয় উগ্রবাদ, উগ্রবাদী সংগঠন সৃষ্টি, জঙ্গি কার্যক্রমের পৃষ্ঠপোষকতাসহ স্বাধীনতার চেতনাবিরোধী কর্মকাণ্ডে যুক্ত। 

পরে গত ৯ নভেম্বর ওই স্কুল বন্ধের নোটিশের বৈধতা চ্যালেঞ্জ করে স্কুলের মালিক খালেদ হাসান মতিন ও ১২ শিক্ষার্থীর অভিভাবকের পক্ষে দুটি রিট দায়ের করা হয়। রিট দুটির আংশিক শুনানি নিয়ে আদালত রুল জারি করেন।

শিক্ষা সচিব, স্বরাষ্ট্র সচিব, শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের যুগ্ম সচিব, ঢাকার জেলা প্রশাসক এবং মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক শিক্ষা বোর্ডের চেয়ারম্যানকে ওই ৩ রুলের জবাব দিতে বলা হয়। 

আরও পড়ুন:

 মন্ত্রণালয়ের নির্দেশ পেলেই খুলবে লেকহেড স্কুল

 

 

/বিআই/এসটি/

লাইভ

টপ