নভেম্বরে শুরু হচ্ছে সুনামগঞ্জ মেডিক্যাল কলেজের কাজ

Send
শফিকুল ইসলাম
প্রকাশিত : ০১:৫৩, নভেম্বর ২৪, ২০১৮ | সর্বশেষ আপডেট : ১৬:২৯, নভেম্বর ২৫, ২০১৮

 

সুনামগঞ্জহাওর বেষ্টিত জেলা সুনামগঞ্জে কোনও সরকারি মেডিক্যাল কলেজ ও হাসপাতাল নেই। বিভাগীয় শহর সিলেটের সঙ্গে এ জেলার যাতায়াতের ব্যবস্থাও খুব একটা সুগম নয়। তাই এ জেলার সব মানুষ যথাযথ চিকিৎসা সেবা পান না বেশিরভাগ ক্ষেত্রেই। এ সমস্যা দূর করার পাশাপাশি এ জেলার চিকিৎসা শিক্ষার উন্নয়নে একটি পূর্ণাঙ্গ মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতাল নির্মাণের সিদ্ধান্ত নিয়েছে সরকার। কোনও বিদেশি সহায়তা ছাড়া সরকারের নিজস্ব অর্থায়নে এ প্রকল্প বাস্তবায়ন করবে স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়। একহাজার ১০৭ কোটি ৮৭ লাখ টাকা প্রাক্কলিত ব্যয়ের এ প্রকল্পের কাজ শুরু হচ্ছে চলতি নভেম্বর মাসেই, যা ২০২১ সালের ৩০ জুনের মধ্যে কাজ শেষ করার লক্ষ্য ঠিক করা হয়েছে। স্বাস্থ্যসেবা বিভাগ সূত্রে এমন তথ্য জানা গেছে।
সূত্র জানায়, ‘সুনামগঞ্জ মেডিক্যাল কলেজ ও হাসপাতাল, সুনামগঞ্জ স্থাপন’ শীর্ষক এ প্রকল্প বাস্তবায়িত হলে সুনামগঞ্জ ও এর আশেপাশের এলাকার জনসাধারণের আধুনিক ও বিশেষায়িত সেবা পাওয়াটা সহজ হবে। একইসঙ্গে এ জেলায় মৃত্যুহার কমবে এবং কর্মসংস্থানের সুযোগ সৃষ্টি হবে। প্রকল্পটি স্বাস্থ্যসেবা বিভাগের আওতায় স্বাস্থ্য অধিদফতর বাস্তবায়ন করবে।
পরিকল্পনা মন্ত্রণালয়ে জমা দেওয়া প্রকল্পের প্রস্তাবনায় উল্লেখ, এর আওতায় একটি বেইজমেন্টসহ ৮তলা ভিতের ৮তলা হাসপাতাল ভবন নির্মাণ করা হবে ১টি। থাকবে বেইজমেন্টসহ ৯ তলা ভিতের ৯তলা একাডেমিক ভবন ১টি। ৮তলা ভিতের ৮তলা হোস্টেল ভবন নির্মাণ করা হবে একটি। ৬তলা ভিতের ৬তলা ইন্টার্নি ডক্টরস ভবন নির্মাণ করা হবে ১টি। ১০ তলা ভিতবিশিষ্ট ১০ তলা সিঙ্গেল ডক্টরস একোমোডেশন ভবন নির্মাণ করা হবে ১টি। ৬তলা ভিতবিশিষ্ট ৬তলা স্টাফ নার্স ডরমিটরি ভবন নির্মাণ করা হবে ১টি। ৬তলা ভিতের ৬ তলা স্টাফ ডরমিটরি ভবন নির্মাণ করা হবে ১টি। ৬তলা ভিতবিশিষ্ট ৬তলা নার্সিং কলেজ একাডেমিক ভবন নির্মাণ করা হবে ১টি। ৮তলা ভিতবিশিষ্ট ৮তলা স্টুডেন্ট নার্স হোস্টেল ভবন নির্মাণ করা হবে ১টি। ২তলা ভিতবিশিষ্ট ২তলা টিচিং মর্গ অ্যান্ড মরচুয়ারি ভবন নির্মাণ করা হবে ১টি। ৪তলা ভিতের ৪তলা অডিটোরিয়াম ভবন নির্মাণ করা হবে ১টি। ৩তলা ভিতবিশিষ্ট ৩তলা লন্ড্রি ভবন নির্মাণ করা হবে ১টি। ৪তলা ভিতবিশিষ্ট ৪তলা মসজিদ ভবন নির্মাণ করা হবে ১টি। ৫তলা ভিতবিশিষ্ট ৫তলা আবাসিক ভবন নির্মাণ করা হবে ৪টি। এ ছাড়া, মেডিক্যাল ও অফিস যন্ত্রপাতি এবং আসবাবপত্র সংগ্রহ করা হবে। প্রকল্পের আওতায় প্রয়োজনীয় ভূমিও অধিগ্রহণ করা হবে।
এ প্রসঙ্গে জানতে চাইলে স্থানীয় সংসদ সদস্য ও সরকারের অর্থ ও পরিকল্পনা প্রতিমন্ত্রী আবদুল মান্নান বাংলা ট্রিবিউনকে বলেন, ‘দীর্ঘ দিন ধরে সুনামগঞ্জের মানুষজন একটি পূর্ণাঙ্গ মেডিক্যাল কলেজ ও হাসপাতাল চাইছেন। বর্তমান সরকার স্থানীয় মানুষদের এ চাওয়া বাস্তবায়ন করছেন। এই হাসপাতালটি নির্মিত হলে হাওরের জনসাধারণ উন্নতমানের অর্থাৎ রাজধানীর সমমানের স্বাস্থ্য সেবা পাবেন। এ ছাড়া, হাওরসহ দেশের মেধাবী ছাত্রছাত্রীদের চিকিৎসক হওয়ার স্বপ্ন পূরণে এ মেডিক্যাল কলেজ ভূমিকা রাখবে। সর্বোপরি স্থানীয় জনসাধারণের জন্য ব্যাপক কর্মসংস্থানের সুযোগ সৃষ্টি হবে।’
এ প্রসঙ্গে পরিকল্পনামন্ত্রী আ হ ম মুস্তাফা কামাল বলেন, ‘ক্রমান্বয়ে দেশের সব জেলায় একটি করে মেডিক্যাল কলেজ স্থাপনের সিদ্ধান্ত রয়েছে সরকারের। এরই অংশ হিসেবে এটি নির্মিত হচ্ছে। সুনামগঞ্জে মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতাল নির্মিত হলে হাওরাঞ্চলের মানুষের স্বাস্থ্যসেবা অনেকাংশে নিশ্চিত করা যাবে। তখন আর উন্নত চিকিৎসার জন্য এই অঞ্চলের মানুষদের রাজধানীতে ছুটে আসতে হবে না।’

/এমএ/

লাইভ

টপ