তিউনিসিয়া থেকে দ্বিতীয়ধাপে ফিরেছেন ১৫ জন

Send
বাংলা ট্রিবিউন রিপোর্ট
প্রকাশিত : ০৩:০৭, জুন ২৬, ২০১৯ | সর্বশেষ আপডেট : ০৩:১১, জুন ২৬, ২০১৯

সাগরে ভাসমান অভিবাসীরাতিউনিসিয়া উপকূলে উদ্ধার হওয়া ৬৪ বাংলাদেশির মধ্যে দ্বিতীয়ধাপে ১৫ জন দেশে ফিরেছেন। মঙ্গলবার (২৫ জুন) বিকালে কাতার এয়ারওয়েজের কিউআর ৬৩৪ ফ্লাইটে করে তারা হজরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে এসে পৌঁছান। বিমানবন্দরের ইমিগ্রেশন সূত্রে বিষয়টি নিশ্চিত হওয়া গেছে। বর্তমানে তারা ইমিগ্রেশনে অবস্থান করছেন। এরআগে, ২১ জুন প্রথমধাপে দেশে ফিরে আসেন ১৭ জন।

লিবিয়ার বাংলাদেশ দূতাবাস সূত্রে তাদের পাঠানোর বিষয়ে নিশ্চিত হওয়া গেছে। দূতাবাস সূত্রে আরও জানা যায়, আন্তর্জাতিক অভিবাসন সংস্থা আইওএমের সহযোগিতায় তাদের দেশে ফেরত পাঠানো হয়েছে।

এরআগে, দূতাবাসের পক্ষ থেকে আটকে পড়া সব বাংলাদেশিদের দেশে ফেরত পাঠানো হবে এমন নিশ্চয়তা দেওয়া হলে তিন সপ্তাহ ভেসে থাকার পর ১৮ জুন জারজিস বন্দরে তাদের নামার অনুমতি দেয় তিউনিসিয়া কর্তৃপক্ষ। এরপর কঠোর নিরাপত্তার মধ্যে রেড ক্রিসেন্ট ও আইওএমের যৌথভাবে পরিচালিত শেল্টার হাউজে তাদের রাখার ব্যবস্থা করা হয়।

দূতবাসের পক্ষ থেকে আইওএমের সহায়তায় তাদের দেশে ফেরার জন্য টিকেটের ব্যবস্থা করা হয়। খোঁজ নিয়ে আরও জানা যায়, এর মধ্যে ৮ জন দেশে ফিরে যেতে অস্বীকৃতি জানিয়েছে। তাদেরকে দেশে পাঠানোর জন্য রাজি করাতে দূতাবাস কাজ করছে। এছাড়া তৃতীয় ধাপে আরও ২৪ জনকে দেশে নিয়ে আসা হবে বলে জানা গেছে।

আইওএমের এক কর্মকর্তা জানান, তারা দেশে ফিরে আসার জন্য প্লেনের টিকেটের ব্যবস্থা করেছেন।

প্রসঙ্গত, প্রায় তিন সপ্তাহ ধরে তিউনিসিয়ার সাগরে এক‌টি নৌকায় ভাস‌ছি‌লেন ৭৫ জন শরণার্থী, যা‌দের ম‌ধ্যে ৬৪ জনই বাংলা‌দে‌শি। নৌকাটি তিউনিসিয়ার উপকূলের কাছে পৌঁছালেও কর্তৃপক্ষ তীরে নামার অনুমতি দেয়নি। তিউনিসিয়া কর্তৃপক্ষ জানায়, তাদের শরণার্থী কেন্দ্রে আর জায়গা দেওয়া সম্ভব না। ফলে ওই নৌকাটি উপকূলীয় জারজিস শহর থেকে ২৫ কিলোমিটার দূরে সাগ‌রে ভাস‌তে থাকে।

 

আরও পড়ুন:
তিউ‌নিসিয়া থে‌কে ফিরেছেন ১৭ বাংলা‌দে‌শি

/এসও/টিটি/

লাইভ

টপ