সচিবালয়ের ক্লিনিকে এডিস মশার লার্ভা

Send
বাংলা ট্রিবিউন রিপোর্ট
প্রকাশিত : ০২:০০, আগস্ট ১৯, ২০১৯ | সর্বশেষ আপডেট : ০২:২০, আগস্ট ১৯, ২০১৯

এডিস মশা

বাংলাদেশ সচিবালয়ের ক্লিনিকের একটি চেয়ারে জমে থাকা পানিতে এডিস মশার লার্ভা পেয়েছেন চিকিৎসকরা। রবিবার (১৮ আগস্ট) দুপুরে লার্ভা শনাক্তের পর চিকিৎসকরা তা ধ্বংস করেন।

ঘটনার প্রত্যক্ষদর্শী মৎস্য ও প্রাণিসম্পদ মন্ত্রণালয়ের জনসংযোগ কর্মকর্তা মো. শাহ আলম বলেন, ‘ফিল্টারের কয়েক ফোটা পানি একটি প্লাস্টিকের চেয়ারে জমে ছিল। সেখানে এডিস মশার লার্ভা পান চিকিৎসকরা। বিষয়টি নিশ্চিত হওয়ার পর প্রথমে এসিআইয়ের অ্যারোসল দিয়ে তা ধ্বংস করার চেষ্টা করা হয়। এতে ব্যর্থ হয়ে চিৎিসকরা বল প্রয়োগ করে লার্ভা ধ্বংস করেন।’

তিনি আরও বলেন, ‘আমার জ্বর, পাতলা পায়খানা ও শরীর ব্যথার চিকিৎসার জন্য কর্মস্থল বাংলাদেশ সচিবালয়ের ৯ নম্বর ভবনের ক্লিনিকে যাই রবিবার দুপুরে। সঙ্গে ছিল ছোট মেয়েও; তার চোখের সমস্যা। মেয়ের চশমা পরিবর্তনের জন্য ডাক্তারের পরামর্শ লিখে দেওয়ার পর আমি নিজের চিকিৎসার জন্য ৭ নম্বর কক্ষে সিরিয়ালে দাঁড়াই। চেয়ারে বসতে গেলে দেখি, পাশের চেয়ারে একটি খালি বালতি রাখা। ক্লিনিকের একজন কর্মচারী এসে চেয়ারে বসতে আমাকে নিষেধ করেন এবং আরেকটা চেয়ারে জমা কিছু পানির ওপর রাখা ঢাকনাটা খুলেন। সেই পানিতে এডিস মশার লার্ভা আছে দেখতে পান।’

শাহ আলম আরও বলেন, ‘ক্লিনিকের ৭ নম্বর রুমের একজন ডাক্তার এসিআই অ্যারোসেল নিয়ে চেয়ারে জমা পানিতে অনেকবার স্প্রে করেন। কিন্তু তাতেও লার্ভা ধ্বংস না হওয়ায় কাগজ দিয়ে ধরে পিষে তা ধ্বংস করা হয়। জমে থাকা অধা-কাপ পানিতে এভাবে এডিসের লার্ভা পাওয়া যাবে, জীবনে কখনও ভাবিনি। আমাদের প্রত্যেককে সচেতন হতে হবে।’

এ ব্যাপারে জানতে চাইলে সচিবালয় ক্লিনিকের সিভিল সার্জন ডা. ফারুক আহমেদ বলেন, ‘শুক্র ও শনিবার বন্ধ ছিল। এসময় লার্ভা হওয়ার সুযোগ থাকে।’

 

/এসএমএ/এমএ/

লাইভ

টপ