১১ হাজার অবৈধ বিদেশি নাগরিককে ফেরত পাঠাচ্ছে সরকার

Send
বাংলা ট্রিবিউন রিপোর্ট
প্রকাশিত : ১৪:২৩, নভেম্বর ০৭, ২০১৯ | সর্বশেষ আপডেট : ১৫:৩৬, নভেম্বর ০৭, ২০১৯

বাংলাদেশ সরকার

বাংলাদেশে অবৈধভাবে অবস্থান করা ১১ হাজার বিদেশি নাগরিককে নিজ নিজ দেশে ফেরত পাঠানোর উদ্যোগ নিয়েছে সরকার। বৃহস্পতিবার (৭ নভেম্বর) স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ে অনুষ্ঠিত আইনশৃঙ্খলা সংক্রান্ত মন্ত্রিসভা কমিটির বৈঠকে এ সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে।

বৈঠকের পর স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান কামাল ও মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক মন্ত্রী আ ক ম মেজাম্মেল হক এ তথ্য জানান।

স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, ‘বিভিন্ন দেশের নাগরিকরা ভিসা নিয়ে বাংলাদেশে এসে ব্যবসা করছে। অনেকে অপরাধের সঙ্গে জড়াচ্ছে। এদের অনেকে জেলে রয়েছে, যাদের সাজার মেয়াদও শেষ হয়েছে। এছাড়া, ভিসার মেয়াদ শেষ হয়ে যাওয়ার পর অবৈধভাবে এ দেশে অবস্থান করছে। সব মিলিয়ে প্রায় ১১ হাজার বিদেশি নাগরিক রয়েছে, যাদের আমরা নিজ নিজ দেশে পাঠিয়ে দেবো।’

মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক মন্ত্রী আ ক ম মোজাম্মেল হক বলেন, ‘আফ্রিকাসহ বিভিন্ন দেশের ১১ হাজারের মতো নাগরিককে পাঠিয়ে দেবো। কোনও কোনও দেশের দূতাবাস নেই। তাছাড়া বিভিন্ন দেশের দূতাবাসে যোগাযোগ করলেও তারা পদক্ষেপ নিচ্ছে না। আমরা সিদ্ধান্ত নিয়েছি—যাদের ভিসার মেয়াদ নেই, তাদের নিজ নিজ দেশে পাঠিয়ে দেবো।’

আ ক ম মোজাম্মেল হক বলেন, ‘বিদেশি নাগরিকরা পাসপোর্ট নিয়ে আসে, পরবর্তীতে মেয়াদ শেষ হয়ে গেলে অনেকেই যায় না, থেকে যায়। তারা যেন থাকতে না পারে, আমাদের সভায় সিদ্ধান্ত হয়েছে, তাদের চিহ্নিত করা। অত্যন্ত সফলতার সঙ্গে আমাদের গোয়েন্দা বাহিনী তাদের চিহ্নিত করেছে। এখন এরা যে ফেরত যাবে—এদের কাছে টাকাও নেই। অনেক দেশের এখানে এম্বাসিও নেই। আমরা সিদ্ধান্ত নিয়েছি—সরকারের কাছে অনুরোধ করবো, কিছু টাকা বরাদ্দের জন্য। তাদের নিজ দেশে ফেরত পাঠানো জরুরি। এরা যেখানে যাবে, ঝামেলা সৃষ্টি করবে।’

আফ্রিকা, নাইজেরিয়া, তানজেনিয়াসহ বিভিন্ন দেশের নাগরিক রয়েছে বলেও উল্লেখ করেন মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক মন্ত্রী।

তিনি বলেন, ‘অবৈধ নাগরিকদের গ্রেফতার অব্যাহত রয়েছে। সেটা সমস্যা নয়, এখন আমাদের সরকারের টাকা দিয়েই তাদের ফেরত পাঠাতে হবে।’ 

স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান কামাল বলেন, ‘যারা অবৈধভাবে অবস্থান করছে, ভিসার মেয়াদ শেষ হয়ে গেছে, কিংবা যারা অবৈধভাবে রয়েছে, তারা ক্রাইমে জড়িত হচ্ছে। তাদের দূতাবাসগুলোর সঙ্গে যোগাযোগ করলেও তারা নিয়ে যাচ্ছে না। শুধু ক্রাইমের সঙ্গে জড়িয়ে যাচ্ছে তা-ই নয়, অবৈধভাবে থেকে ব্যবসা-বাণিজ্য করছে, তারাও রয়েছে।’

/এসএমএ/জেইউ/টিটি/এপিএইচ/এমএমজে/

লাইভ

টপ