বঙ্গবন্ধুর চলার পথে বঙ্গমাতার অসীম প্রেরণা ছিল: সমাজকল্যাণমন্ত্রী

Send
বাংলা ট্রিবিউন রিপোর্ট
প্রকাশিত : ১৬:৫৩, মার্চ ১৭, ২০১৯ | সর্বশেষ আপডেট : ১৭:০৬, মার্চ ১৭, ২০১৯

বঙ্গবন্ধুর জন্মদিন উপলক্ষে  জাতীয় প্রেসক্লাবে বঙ্গমাতা পরিষদ সোনালী ব্যাংক লিমিটেড আয়োজিত অনুষ্ঠানে বক্তব্য রাখেন সমাজকল্যাণমন্ত্রী নূরুজ্জামান আহমেদ।

বঙ্গবন্ধুর চলার পথে মহীয়সী নারী বঙ্গমাতা শেখ ফজিলাতুন্নেছা মুজিবের অসীম প্রেরণা ছিল বলে জানিয়েছেন সমাজকল্যাণমন্ত্রী নুরুজ্জামান আহমেদ।

রবিবার (১৭ মার্চ) সকালে জাতীয় প্রেসক্লাবের জহুর হোসেন চৌধুরী হলে বঙ্গমাতা পরিষদ সোনালী ব্যাংক লিমিটেড আয়োজিত 'বঙ্গবন্ধুর ৯৯তম জন্মবার্ষিকী পালন ও স্বাধীনতা অর্জনে বঙ্গমাতার অবদান' শীর্ষক আলোচনা সভায় তিনি এই কথা বলেন।

তিনি বলেন, বঙ্গবন্ধুর পাশে থেকে বঙ্গমাতা শেখ ফজিলাতুন্নেছা মুজিব মুক্তিযুদ্ধের আদর্শকে সমুন্নত করার সুমহান লক্ষ্য নিয়ে সকল প্রতিবন্ধকতার দুর্ভেদ্য প্রাচীরকে ভেঙে ফেলার প্রচেষ্টায় অনড় ছিলেন। এদেশকে স্বাধীন করার সুমহান লক্ষ্য নিয়ে ঘরের মধ্যে থেকে বঙ্গমাতা শেখ ফজিলাতুন্নেছা মুজিব বঙ্গবন্ধুকে যে অনুপ্রেরণা দিয়েছিলেন তা আমরা সহজেই অনুমান করতে পারি। বঙ্গমাতা বঙ্গবন্ধুকে অনুপ্রেরণা দিয়ে রাজনীতির অনন্য হিমালয়ের উচ্চতায় পৌঁছে দেওয়ার ক্ষেত্রে সহযোগিতা করেছিলেন। তাই আজকে সেই মহীয়সী নারীকে শ্রদ্ধাভরে স্মরণ করছি।

জাতির পিতাকে স্মরণ করে তিনি বলেন, তিনি ছিলেন শতাব্দীর মহানায়ক, তাঁর হাত ধরে হাজার বছর পর বাঙালি জাতির পুনর্জন্ম হয়েছিল। তিনি রঙে, বর্ণে, ভাষায়, জাতি বিচারে একজন প্রকৃত বাঙালি। লন্ডনের এক সাংবাদিক তাঁকে রাজনীতির কবি হিসেবে আখ্যায়িত করেছিলেন। আজ তাঁর জন্মদিনে তাঁকে শ্রদ্ধাভরে স্মরণ করছি।

অনুষ্ঠানের বিশেষ অতিথি নারায়ণগঞ্জ-৪ আসনের সংসদ সদস্য শামীম ওসমান বলেন, ছোটবেলা থেকেই বঙ্গবন্ধুর বাসায় আমার আসা-যাওয়া ছিল। সে সময় দেখেছি বঙ্গমাতা শেখ ফজিলাতুন্নেছা মুজিব কেমন ছিলেন। তিনি অন্য সব মায়েদের মতই সাধারণ জীবনযাপন করতেন। আজকে বঙ্গবন্ধুর জন্মদিনে তাঁকেও শ্রদ্ধাভরে স্মরণ করছি।

আলোচনা সভায় আরও উপস্থিত ছিলেন সোনালী ব্যাংকের পরিচালনা পরিষদের চেয়ারম্যান মো. আশরাফুল মকবুল, এমডি মো. ওবায়েদ উল্লাহ আল মাসুদ, বঙ্গমাতা সোনালী ব্যাংক লিমিটেডের কার্যকরী সভাপতি মো. রফিকুল ইসলামসহ সোনালী ব্যাংকের কর্মকর্তারা।

 

/এইচএন/টিএন/

লাইভ

টপ