ইস্টার্ন ইউনিভার্সিটির ৬৫ শিক্ষার্থীকে বার কাউন্সিলে নিবন্ধনের সুযোগ দেওয়ার নির্দেশ

Send
বাংলা ট্রিবিউন রিপোর্ট
প্রকাশিত : ২১:১৮, সেপ্টেম্বর ১৮, ২০১৯ | সর্বশেষ আপডেট : ২১:২১, সেপ্টেম্বর ১৮, ২০১৯



হাইকোর্টআইন বিষয়ে উত্তীর্ণ ইস্টার্ন ইউনিভার্সিটির ৬৫ শিক্ষার্থীকে আইনজীবী তালিকাভুক্তি পরীক্ষায় অংশগ্রহণের জন্য নিবন্ধন ও ফরম পূরণের সুযোগ দিতে বাংলাদেশ বার কাউন্সিলকে নির্দেশ দিয়েছেন হাইকোর্ট।
শিক্ষার্থীদের দায়ের করা রিটের শুনানি শেষে বুধবার (১৮ সেপ্টেম্বর) বিচারপতি এম. ইনায়েতুর রহিম ও বিচারপতি মো. খায়রুল আলমের সমন্বয়ে গঠিত হাইকোর্ট বেঞ্চ রুলসহ এ আদেশ দেন।
আদালতে রিটের পক্ষে শুনানি করেন জ্যেষ্ঠ আইনজীবী এ এম আমিন উদ্দিন ও শাহ মঞ্জুরুল হক, সঙ্গে ছিলেন আইনজীবী সৈয়দা নাসরিন। রাষ্ট্রপক্ষে ছিলেন ডেপুটি অ্যাটর্নি জেনারেল অমিত দাস গুপ্ত।
পরে আইনজীবী সৈয়দা নাসরিন বলেন, বার কাউন্সিলের পরীক্ষায় অংশ নিতে ইস্টার্ন ইউনিভার্সিটির ২০১৪-১৫ ব্যাচের ৬৫ শিক্ষার্থীর তালিকা পাঠানো হয়। তবে ৫০ জনের বেশি হওয়ায় বার কাউন্সিল ওই তালিকা ফেরত দেয়। তাই বার কাউন্সিলের ওই সিদ্ধান্ত চ্যালেঞ্জ করে হাইকোর্টে রিট দায়ের করেন শিক্ষার্থীরা।
তিনি বলেন, রিটের শুনানিতে আদালতকে বলেছি, ৫০ জন করে শিক্ষার্থী ভর্তির বিষয়ে আদালত রায় দেন ২০১৭ সালে। কিন্তু ইস্টার্ন বিশ্ববিদ্যালয়ের রিটকারী ছাত্র-ছাত্রীরা ভর্তি হয়েছেন ২০১৪ সালে। তাহলে এসব শিক্ষার্থী কেন বার কাউন্সিল পরীক্ষা অংশ নিতে পারবে না?
আদালত তাদের রেজিস্ট্রেশনের সুযোগ দিতে আদেশ দিয়ে রুল জারি করেছেন। ৪ সপ্তাহের মধ্যে আইন মন্ত্রণালয় সচিব, বিশ্ববিদ্যালয় মঞ্জুরি কমিশনের চেয়ারম্যান, বার কাউন্সিলের সচিবকে এ রুলের জবাব দিতে বলা হয়েছে বলেও জানান আইনজীবী নাসরিন।

/বিআই/এইচআই/

লাইভ

টপ