‘ঘৃণা নয়, লেখকদের কাজ ভালোবাসা ছড়ানো’

Send
বাংলা ট্রিবিউন রিপোর্ট
প্রকাশিত : ১৯:২১, নভেম্বর ০৮, ২০১৯ | সর্বশেষ আপডেট : ২১:৩৮, নভেম্বর ০৮, ২০১৯



বর্তমান বাস্তবতায় লেখালেখি করাটাকেই বড় সংগ্রাম হিসেবে চিহ্নিত করেছেন কথাসাহিত্যিক আহমাদ মোস্তফা কামাল। তার মতে, লেখকরা দায়িত্বশীল, রাষ্ট্রের প্রতি তাদের দায়বদ্ধতা রয়েছে। ঘৃণা কিংবা হিংস্রতা ছড়ানো লেখকদের কাজ নয়, তাদের কাজ ভালোবাসা ছড়ানো।

ঢাকা লিট ফেস্টের নবম আসরের দ্বিতীয় দিন শুক্রবার (৮ নভেম্বর) ‘PEN: লেখকদের দাঁড়াবার জায়গা’ শীর্ষক সেশনে এই অভিমত ব্যক্ত করেন তিনি।
এই সেশনে আহমাদ মোস্তফা কামালের সঙ্গে আরও ছিলেন জেমকন সাহিত্য পুরস্কারপ্রাপ্ত তরুণ লেখক মুম রহমান এবং জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ের অধ্যাপক ও লেখক আহমেদ রেজা। অনুষ্ঠানটি সঞ্চালনা করেন ‘PEN’ সংগঠনের সাধারণ সম্পাদক মোহাম্মদ মহিউদ্দিন।
আহমাদ মোস্তফা কামাল বলেন, মানুষের ধর্মীয় অনুভূতিতে আঘাত করা লেখকের কাজ নয়।
তার এই বক্তব্যের সঙ্গে একমত পোষণ করেন আহমেদ রেজা। তিনি বলেন, লেখকরাই একমাত্র মানুষের দুঃখ, বেদনা, ঐতিহ্য, চেতনা তুলে ধরতে পারেন।
মুম রহমান বলেন, মানুষের যেমন স্বাধীনতার প্রয়োজন আছে, লেখকদের তেমনি প্রয়োজন ‘ফ্রিডম অব এক্সপ্রেশন’। কারণ, রাষ্ট্র লেখকদের অদৃশ্য দড়ি দিয়ে বেঁধে রেখেছে, যার ফলে তারা সৎ-লেখনী সৃষ্টিতে সাহস করতে পারছেন না। বিদ্যমান বাস্তবতায় সাহিত্যিকদের স্বাধীনতাকে ‘হাস্যকর’ বলে মনে করেন তিনি।
দর্শক সারি থেকে লেখকদের উদ্দেশে প্রশ্ন আসে, লেখকরা আগামী দিনে আরও শক্ত ভিতে দাঁড়াতে পারবেন কিনা? এর জবাবে মুম রহমান বলেন, ‘আমরা যেমন রাষ্ট্রের প্রতি দায়বদ্ধ, তেমনি রাষ্ট্রকেও আমাদের প্রতি দায়বদ্ধ হতে হবে, দায়িত্বশীল হতে হবে।’

/এইচআই/এমওএফ/

লাইভ

টপ