রংপুরে অবাধ নির্বাচনের পরিবেশ তৈরি করতে পারেনি ইসি: রিজভী

Send
বাংলা ট্রিবিউন রিপোর্ট
প্রকাশিত : ১৭:০৭, ডিসেম্বর ০৭, ২০১৭ | সর্বশেষ আপডেট : ১৭:১২, ডিসেম্বর ০৭, ২০১৭

সংবাদ সম্মেলনে বক্তব্য রাখছেন রুহুল কবির রিজভী

বিএনপির সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবির রিজভী আহমেদ অভিযোগ করেছেন, রংপুর সিটি করপোরেশনের নির্বাচনে এখনও অবাধ, সুষ্ঠু ও গ্রহণযোগ্য নির্বাচনি পরিবেশ তৈরি করতে পারেনি নির্বাচন কমিশন। নির্বাচনি মাঠে প্রচারণায় সব প্রার্থীর সমান সুযোগ তৈরি হয়নি।

বৃহস্পতিবার (৭ ডিসেম্বর) নয়া পল্টনে বিএনপির কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে নিয়মিত সংবাদ সম্মেলনে এসব অভিযোগ করেন রিজভী।

রিজভী আহমেদ বলেন, ‘ক্ষমতাসীন দলের প্রভাবে ভোটাররা এখনও ভয়ভীতির মধ্যেই রয়েছেন। এমন অবস্থায় রংপুর সিটি নির্বাচন অবাধ, সুষ্ঠু ও নিরপেক্ষ হবে কিনা এ ব্যাপারে যথেষ্ট সন্দেহ রয়েছে।’

বিএনপির পক্ষ থেকে নির্বাচনের জন্য অবাধ, সুষ্ঠু ও নিরপেক্ষ পরিবেশ তৈরির জোর দাবি জানান রুহুল কবির রিজভী।

ম্যাজিট্রেসি ক্ষমতা দিয়ে সেনাবাহিনী মোতায়েনেরও দাবি জানান এই বিএনপি নেতা । তিনি বলেন, ‘প্রধান নির্বাচন কমিশনারের নেতৃত্বে কমিশনের ঊর্ধ্বতন ব্যক্তিদের মানসিকতা স্বাধীন না হলে কমিশনের আইনি স্বাধীনতা কোনও কাজে আসে না।’

রিজভী আহমেদ বলেন, ‘আওয়ামী লীগের মনোনীত প্রার্থী বারবার আচরণ বিধি লঙ্ঘন করলেও ইসি তার বিরদ্ধে কোনও ব্যবস্থা নিচ্ছে না। ক্ষমতাসীন দলের লোকেরা গোটা এলাকায় ভয়ভীতি ছড়াচ্ছে বলেও প্রার্থীরা অভিযোগ করেছেন। এমনকি ক্ষমতাসীন দলের প্রভাবে বিএনপি মনোনীত প্রার্থীকে শুরু থেকে যেভাবে হয়রানি করা হয়েছে তাও নজিরবিহীন।’ 

‘নির্বাচন কমিশনকে বলতে চাই, ক্ষমতাসীন দলের প্রার্থীকে পেছনের দরজা দিয়ে জেতানোর কোনও চেষ্টা করলে জনগণ সেটির উপযুক্ত জবাব দিবে’-বলে সতর্ক করেন রুহুল কবির রিজভী।

অন্য প্রসঙ্গে তিনি বলেন, ‘শুধু বেসিক ব্যাংক নয়, রাজকোষ কেলেঙ্কারিসহ সব আর্থিক খাতে যে লুটপাট হয়েছে, এর পেছনে সরকারের রাঘব বোয়ালরা জড়িত। ব্যাংক লুটের লাখ লাখ কোটি টাকা দেশ থেকে পাচার হয়ে গেলেও দুদক এসব বিষয়ে নির্বিকার। কিন্তু জনগণ তাদের ক্ষমা করবে না। লুটেরাদের একদিন জনতার কাঠগড়ায় দাঁড়াতেই হবে।’

রিজভী অভিযোগ করেন, ‘বর্তমানে রাষ্ট্রের ছত্রছায়ায় গুম সংঘটিত হচ্ছে, যা ক্ষমাহীন ও মানবতাবিরোধী অপরাধ।’

 

 

/এসটিএস/এপিএইচ/

লাইভ

টপ