এই বাজেটে মধ্যম আয়ের দেশ হবে বাংলাদেশ: আ. লীগ

Send
বাংলা ট্রিবিউন রিপোর্ট
প্রকাশিত : ২২:৪৫, জুন ১৩, ২০১৯ | সর্বশেষ আপডেট : ২৩:১৭, জুন ১৩, ২০১৯

আওয়ামী লীগ

এবারের প্রস্তাবিত বাজেটকে জনবান্ধব আখ্যায়িত করেছেন ক্ষমতাসীন দল আওয়ামী লীগের নেতারা। তারা বলছেন, নির্বাচনি ইশতেহারে দেশকে উন্নত করার যে রোডম্যাপ ও পরিকল্পনা দিয়েছে আওয়ামী লীগ, তারই আলোকে এ বাজেট দেওয়া হয়েছে। প্রস্তাবিত বাজেট বাস্তবায়িত হলে নিম্ন-মধ্যম আয়ের দেশ থেকে মধ্যম আয়ের দেশে উন্নীত হবে বাংলাদেশ। পাবে উন্নয়নশীল দেশের পরিপূর্ণ মর্যাদাও। বৃহস্পতিবার (১৩ জুন) বিকালে জাতীয় সংসদে অর্থমন্ত্রী আ হ ম মুস্তফা কামাল ২০১৯-২০ অর্থবছরের প্রস্তাবিত বাজেটের প্রতিক্রিয়ায় তারা এমন আশা প্রকাশ করেন।

জানতে চাইলে আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক অ্যাডভোকেট জাহাঙ্গীর কবির নানক বলেন, ‘মূলত নির্বাচনি ইশতেহারে জনগণকে আওয়ামী লীগ যে প্রতিশ্রুতি দিয়েছে, তা বাস্তবায়নের লক্ষ্যেই এই বাজেট প্রস্তাব করা হয়েছে। এই জনবান্ধব বাজেট বাংলাদেশকে উন্নয়নশীল দেশের শিখরে নিয়ে যাবে। এর ফলে দেশে কৃষক-শ্রমিক থেকে সব শ্রেণি-পেশার মানুষ উপকৃত হবে।’

প্রস্তাবিত বাজেটকে মেহনতি মানুষের বাজেট বলে অভিহিত করেন ক্ষমতাসীন দলটির সাংগঠনিক সম্পাদক আ ফ ম বাহাউদ্দিন নাসিম। তিনি বলেন, ‘এ বাজেট গণমানুষের। স্বাস্থ্য, শিক্ষা, কৃষিসহ সব খাতের উন্নয়নমুখী কর্মকাণ্ডকে আরও গতিশীল করবে এ বাজেট।’

নতুন বাজেটকে স্বাগত জানিয়ে দলটির আরেক সাংগঠনিক সম্পাদক ও নৌ-প্রতিমন্ত্রী খালিদ মাহমুদ চৌধুরী বলেন, ‘বাংলাদেশের ইতিহাসে সর্ববৃহৎ বাজেট দিয়েছে আওয়ামী লীগ নেতৃত্বাধীন সরকার। এতে জনগণের কল্যাণ ও দেশের অগ্রগতি নিহিত রয়েছে। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে এটি বাস্তবায়নের মাধ্যমে উন্নয়ন ও অগ্রগতির ধারাবাহিকতা অব্যাহত থাকবে।’

প্রস্তাবিত বাজেটকে কল্যাণমুখী উল্লেখ করে অর্থমন্ত্রী আ হ ম মুস্তফা কামালকে ধন্যবাদ জানিয়েছেন শাসক দল আওয়ামী লীগের বন ও পরিবেশ সম্পাদক দেলোয়ার হোসেন। তিনি বলেন, ‘বাজেট বাস্তবায়নযোগ্য। দেশের সর্ববৃহৎ এ বাজেট উন্নয়ন ত্বরান্বিত করবে।’ প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্ব ও পরিচালনায় সমৃদ্ধ বাংলাদেশের পথে দেশ এগিয়ে যাবে বলেও তিনি আশা প্রকাশ করেন।

/এমএইচবি/এমএনএইচ/এমওএফ/

লাইভ

টপ