শেখ হাসিনা-খালেদা জিয়া দুই জনই স্বৈরাচার: রাঙ্গা

Send
বাংলা ট্রিবিউন রিপোর্ট
প্রকাশিত : ২০:৪৫, নভেম্বর ১০, ২০১৯ | সর্বশেষ আপডেট : ২১:১৭, নভেম্বর ১০, ২০১৯

রাঙ্গা
সাবেক রাষ্ট্রপতি হুসেইন মুহম্মদ এরশাদ স্বৈরশাসক ছিলেন না বলে দাবি করেছেন জাতীয় পার্টির (জাপা) মহাসচিব মসিউর রহমান রাঙ্গা। তিনি বলেন, ‘স্বৈরাচার এরশাদ নন। শেখ হাসিনা ও খালেদা জিয়া দুই জনই স্বৈরাচার। আমরা কোনোভাবেই স্বৈরাচার নই।’ রবিবার (১০ নভেম্বর) বনানীতে জাপা চেয়ারম্যানের কার্যালয়ে দলটির ঢাকা মহানগর উত্তর শাখার উদ্যোগে ‘গণতন্ত্র দিবস’ উপলক্ষে আয়োজিত এক আলোচনা সভায় তিনি এসব কথা বলেন।

রাঙ্গা বলেন, ‘এখন প্রতিদিন মানুষ হত্যা করা হচ্ছে। তনুকে হত্যা করা হয়েছে। বিএনপির আমলে গুলি করে ১৮ জন কৃষককে হত্যা করা হলো। এটা গণতন্ত্র?’

জাপা মহাসচিব বলেন, ‘‘আমরা খালেদা জিয়ার সরকারের সময় দেখেছি অপারেশন ক্লিন হার্ট। হার্ট পরিষ্কার করতে গিয়ে প্রত্যেক দিন ৩ থেকে ৫ জনকে মারা হয়েছে। তখন আমি সংসদ সদস্য ছিলাম, তৎকালীন প্রধানমন্ত্রী খালেদা জিয়াকে জিজ্ঞাসা করলাম, এই অপারেশন ক্লিন হার্ট নিয়ে আপনার মন্তব্য কী? এটা তো সংসদে পাস হয়নি। মন্ত্রিসভায় পাস হয়েছে? তখন স্পিকার হাত নেড়ে বললেন, এটি সংশ্লিষ্ট বিষয়ের কোনও প্রশ্ন নয়। আপনি এমন প্রশ্ন করা বন্ধ করুন। কিন্তু খালেদা জিয়া হাত নেড়ে বললেন, ‘আমি প্রশ্নের জবাব দেবো’। তিনি বললেন, ‘এটা আমরা মন্ত্রিসভায় পাস করে নিয়েছি।’ যারা দুর্নীতি করবে, তাদের আইনের আওতায় নিয়ে আসবেন বলেও খালেদা জিয়া বলেছিলেন।’’

রাঙ্গার অভিযোগ, ‘‘এখন গ্রামে আওয়ামী লীগের একজন ছোট কর্মীও জাতীয় পার্টির প্রেসিডিয়াম সদস্যকে ধমক দেন, ‘এই বেটা বেশি কথা বললে তোকে জেলে নিয়ে যাবো।’ ছাত্রলীগের ওসি, এসআই। সব তারা নিয়ে যাচ্ছে। এটা কোনও গণতন্ত্র হলো? স্বৈরাচারের আরেক রূপ হলো এই ধরনের গণতন্ত্র।’

রাঙ্গা বলেন, ‘‘আমাদের সঙ্গে যুক্তিতর্কে আসুন, যেকোনও টেলিভিশনে আমরা ডিবেটে বসবো। আমাদের দলের লোকেরা থাকবেন। কেউ যদি প্রমাণ করতে পারেন, আমরা অবৈধভাবে ক্ষমতায় এসেছি, তাহলে দল করবো না। সংসদে থাকবো না। আমরা আজকে যাকে গণতন্ত্রের মানসকন্যা বলি, সেই শেখ হাসিনাও বলেছিলেন, ‘এরশাদের ক্ষমতা গ্রহণে আমরা অসন্তুষ্ট নই।’ এটি আপনারা জানেন নাকি?’’

আওয়ামী লীগের উদ্দেশে জাপা মহাসচিব বলেন, ‘‘১৯৯৬ সালে আমাদের সমর্থন ও ভোট নিয়ে ক্ষমতা এসেছিলেন। ৯৬ সালে আমরা ৩৫টি আসন পেয়েছিলাম। ১১৬টি আসন পেয়েছিল বিএনপি। তখন বিএনপি জেলে গিয়ে এরশাদকে বলেছিল, ‘স্যার আমাদের সমর্থন দিন, আপনি সরকার চালান।’ তখন এরশাদ বলেছিলেন, ‘না, তোমরা আমাকে অনেক কষ্ট দিয়েছ। ১২ দিন মাটিতে শুয়ে রেখেছো। তোমাদের সমর্থন দেবো না।’ আনোয়ার হোসেন মঞ্জুকে এরশাদ বলেছিলেন, ‘তোমরা আওয়ামী লীগকে সমর্থন দাও।’ এরপরই ২১ বছর পর আওয়ামী লীগ ক্ষমতা এসেছিল।’’ এরশাদের অনুগ্রহেই ৯৬ সালে আওয়ামী লীগ ক্ষমতায় এসেছিল বলেও রাঙ্গা দাবি করেন।

/এএইচআর/এমএনএইচ/এমওএফ/

লাইভ

টপ