behind the news
Rehab ad on bangla tribune
Vision Refrigerator ad on bangla Tribune

ইউপি নির্বাচনসহিংসতা এড়াতে তৃণমূলকে সতর্ক বার্তা পাঠালো আ.লীগ

পাভেল হায়দার চৌধুরী০১:৫৫, মার্চ ৩১, ২০১৬

ইউপি নির্বাচন-২০১৬দ্বিতীয় দফায় অনুষ্ঠিত হতে যাওয়া ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনকে ঘিরে সহিংসতা-খুনোখুনি এড়াতে তৎপর হয়েছে আওয়ামী লীগ।এই লক্ষ্যে তৃণমূলের দায়িত্বশীল নেতাদের সতর্ক থাকতে কেন্দ্র থেকে বার্তা পাঠানো হয়েছে। পাশাপাশি আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীকেও সজাগ ও সতর্ক থাকতে নির্দেশ দেওয়া হয়েছে। আওয়ামী লীগের একাধিক দায়িত্বশীল নেতা এ তথ্য নিশ্চিত করেন। প্রথম দফায় অনুষ্ঠিত ইউনিয়ন পরিষদ (ইউপি) নির্বাচনকে কেন্দ্র করে সৃষ্ট সহিংসতার ঘটনা ক্ষমতাসীনরা হালকাভাবে নিলেও এর ধারাবাহিকতা যাতে অব্যাহত না থাকে সেজন্য এই পদক্ষেপ নেওয়া হলো।
জানা গেছে, কেন্দ্রীয় কার্যালয় থেকে পাঠানো টেলিফোন বার্তায় আরও বলা হয়েছে, নৌকা প্রতীক পাওয়া প্রার্থীরা যাতে কোনওভাবেই বিদ্রোহী প্রার্থীদের সঙ্গে সংঘাত-সংঘর্ষে না জড়ায়। এ ধরনের কোনও পরিস্থিতির সৃষ্টি হলে সঙ্গে সঙ্গে আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীকে অবহিত করে যেন তাদের সহযোগিতা চাওয়া হয়। নীতি-নির্ধারণী পর্যায়ের নেতারা জানান, স্থানীয় এমপি ও আওয়ামী লীগের প্রভাবশালী নেতাদের নির্বাচনের দিন সজাগ ও সতর্ক থাকতে বলা হয়েছে কেন্দ্র থেকে। ভোট দেওয়ার পরে সংশ্লিষ্ট ইউনিয়নের কর্মী-সমর্থকদের সহিংসতা প্রতিরোধে কেন্দ্র মনিটরিংয়ের দায়িত্ব পালন করতে নির্দেশ দেওয়া হয়েছে।বেশ কয়েকজন জেলা ও উপজেলার দায়িত্বশীল নেতা কেন্দ্রের নির্দেশ পাওয়ার কথা স্বীকার করেছেন বাংলা ট্রিবিউনের কাছে।
সূত্র মতে,আওয়ামী লীগের শীর্ষ নেতারা মনে করছেন নির্বাচনকে কেন্দ্র করে সহিংসতার ঘটনা অব্যাহত থাকলে প্রশ্নবিদ্ধ হয়ে উঠবে নির্বাচন পদ্ধতি। রাজনৈতিকভাবে সমালোচিত হবে আওয়ামী লীগ। একটা পর্যায়ে এসে সহিংসতার এসব ঘটনা আন্দোলনের ইস্যু হয়ে দাঁড়াবে।তাই বাকি নির্বাচনী ধাপগুলোতে যেকোনও মূল্যে সহিংসতা-খুনোখুনি এড়ানোর ব্যাপারে মনোযোগী হয়ে উঠেছে সরকার।
জানতে চাইলে স্বরাষ্টমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান বাংলা ট্রিবিউনকে বলেন, বৃহস্পতিবার দ্বিতীয় দফায় অনুষ্ঠিত ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনকে কেন্দ্র করে আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনী সদা সতর্ক থাকবে। যেকোনও ধরনের সহিংসতা এড়াতে তাদের সতর্ক থাকতে বলা হয়েছে। তিনি বলেন,আশা করি শান্তিপূর্ণ পরিবেশ বজায় থাকবে নির্বাচনে।    
বেশ কয়েকজন কেন্দ্রীয় নেতা জানান, বৃহস্পতিবার (৩১ মার্চ) অনুষ্ঠিত দ্বিতীয় দফার নির্বাচনে সহিংসতা অনেকাংশে কমে আসবে। প্রথম দফার নির্বাচনের চেয়ে দ্বিতীয় দফা নির্বাচন শান্তিপূর্ণভাবে শেষ করার লক্ষ্যে প্রয়োজনীয় নির্দেশনা পাঠানো হয়েছে। তারা জানান, প্রথম দফা নির্বাচন থেকে কিছু অভিজ্ঞতা নেওয়া হয়েছে এবং সেই আলোকে ব্যবস্থাও নেওয়া হয়েছে। সে হিসেবে এ দফার নির্বাচনে সহিংসতা না হওয়ার সম্ভাবনা রয়েছে।

গত ২২ মার্চ প্রথম দফা ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনকে কেন্দ্র করে ২৪ জন মানুষ মারা গেছেন। এর বেশিরভাগই ক্ষমতাসীন আওয়ামী লীগের রাজনীতি করতেন।অভ্যন্তরীণ কোন্দলেই এরা খুন হন। দ্বিতীয় দফা নির্বাচনকে কেন্দ্র করে খুনোখুনি ঠেকাতে তাই সতর্কতা গ্রহণ করেছে দলটির শীর্ষ নেতারা।

বেশ কয়েকজন শীর্ষ নেতা জানান, নির্বাচন অনুষ্ঠিত হচ্ছে এমন সব জেলা,উপজেলা ও ইউনিয়ন পর্যায়ের দায়িত্বশীল নেতাদের কাছে বার্তা পাঠানো হয়েছে সহিংসতা না করতে।সহিংসতার ঘটনা ঘটার পরিস্থিতি সৃষ্টি হলে সঙ্গে সঙ্গে আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীকে অবহিত করার বার্তা পাঠানো হয়েছে কেন্দ্র থেকে। একই সঙ্গে আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীকেও সতর্ক অবস্থানে রাখতে ডিসি,এসপি ও ইউএনও বিশেষ দিক নির্দেশনা পাঠিয়েছে সরকারের সংশ্লিষ্ট মন্ত্রণালয় থেকে।

এ প্রসঙ্গে জানতে চাইলে আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মাহবুব উল আলম হানিফ বাংলা ট্রিবিউনকে বলেন,দ্বিতীয় দফা ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে সহিংসতা ঘটবে এমন আশা করি না। তবু বাড়তি সতর্ক থাকতে আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনী ও আমাদের দলের                           নেতাকর্মীদের নির্দেশনা পাঠানো হয়েছে। তিনি বলেন, স্থানীয় সরকার নির্বাচনকে কেন্দ্র করে অতীতে যেসব সহিংসতা-নাশকতা ঘটেছে এবার প্রথম দফা ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে তার সিকি ভাগও হয়নি। সামনের ধাপে অনুষ্ঠিত নির্বাচনগুলোতে এর পরিমাণ আরও কমে আসবে।

জানতে চাইলে আওয়ামী লীগের সভাপতিমন্ডলীর সদস্য কাজি জাফরউল্যাহ বলেন, অতীতের স্থানীয় সরকার নির্বাচনগুলোতে যে মাত্রায় হানাহানির ঘটনা ঘটতো তা বিশ্লেষণ করলে দেখা যাবে যে, প্রথম দফায় যেসব ইউনিয়নে সহিংসতা সংঘটিত হয়েছে তা একেবারেই নগণ্য। তবু আমরা ব্যবস্থা নিচ্ছি যাতে নির্বাচনকে কেন্দ্র করে সহিংসতার ঘটনা শূন্যের কোটায় থাকে। আমাদের প্রস্তুতি ও আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর প্রচেষ্টায় বৃহস্পতিবার যেসব এলাকায় নির্বাচন অনুষ্ঠিত হতে আশা করছি সে সব স্থানে সহিংসতা হবে না।  

  /এমএসএম/ 

Ifad ad on bangla tribune

লাইভ

Nitol ad on bangla Tribune
টপ