তিন মোড়ল তত্ত্বের বিরোধিতায় বাংলাদেশের পদক্ষেপে বিস্মিত শাস্ত্রী

Send
স্পোর্টস ডেস্ক
প্রকাশিত : ১৩:১৯, ফেব্রুয়ারি ১৭, ২০১৭ | সর্বশেষ আপডেট : ১৩:৫০, ফেব্রুয়ারি ১৭, ২০১৭

তিন মোড়ল তত্ত্ব উঠিয়ে দিতে নীতিগতভাবে কাজ এগিয়ে চলছে। আইসিসি সভায় যাতে সমর্থন দিয়েছিল বাংলাদেশ। আর বাংলাদেশের এমন পদক্ষেপে হতাশা ও বিস্ময় প্রকাশ করেছেন সাবেক ভারতীয় ক্রিকেটার ও ধারাভাষ্যকার রবি শাস্ত্রী। ক্রিকবাজকে দেওয়া সাক্ষাৎকারে তিনি বলেছেন, ‘প্রতিষ্ঠান হিসেবে ভারতীয় ক্রিকেট বোর্ড (বিসিসিআই) শ্রীলঙ্কা, বাংলাদেশ ও জিম্বাবুয়ের মতো দেশগুলোকে অনেক সহায়তা করেছে। বলতে গেলে ১৫-২০ বছর ধরেই। শ্রীলঙ্কা এই পদক্ষেপে সায় না দেওয়ায় তাতের প্রতি কৃতজ্ঞতা জানাই। কিন্তু একই সঙ্গে এটা দেখে হতাশ ও বিস্মিত হয়েছি যে বাংলাদেশ ও জিম্বাবুয়ে এই পথে হাঁটেনি।’

তিন মোড়ল তত্ত্বের প্রতি এক কথায় নিজের সমর্থনই প্রকাশ করেছেন শাস্ত্রী। একই সঙ্গে ছোটদেশগুলোকে স্মরণ করিয়ে দিয়েছেন নিজেদের অবস্থানও, ‘লভ্যাংশ ভাগাভাগির বিষয়টি ঠিক হয়েছিল দুই বছর আগেই। তখন সবাই গ্রহণ করেছিল। কিন্তু বর্তমানের এই পরিস্থিতি আমাকে বিস্মিতই করেছে। ভারতের অবশ্যই নিজেদের প্রাপ্যটা চেয়ে নেওয়া উচিত। কারণ দু্ই বছর আগে যাই চুক্তি হয়ে থাকুক। তাতে সবাই সুবিধা পাচ্ছিল। বিশেষ করে শ্রীলঙ্কা, বাংলাদেশ, জিম্বাবুয়ের মতো দেশগুলো তাদের প্রাপ্য থেকে বেশিই পাচ্ছিল। এভাবে করে তারা ভুল করছে।’

এমন কাজের জন্য সবাইকে হুঁশিয়ার বার্তাও শোনান শাস্ত্রী, ‘তাদের প্রতি আমার এই ‍হুঁশিয়ারি থাকলো যে, সাবধান! কারণ এই প্রতিষ্ঠান থাকার জন্যেই। তারা এই অবস্থায় বিসিসিআই-এর কাছ থেকে যেই সুবিধা নেওয়ার চেষ্টা করছে এটা বড় ভুল।  এই পরিস্থিতি বেশি দিন টিকবে না।’

এই সময়ে ভারতীয় ক্রিকেট বোর্ডের দাবিকে যৌক্তিক বলেও মন্তব্য করেন সাবেক ভারতীয় এই টিম ডিরেক্টর, ‘ভারতীয় ক্রিকেট বোর্ডের জন্যই ৮০ শতাংশ লাভ উঠে আসে। কিন্তু ভারতীয় বোর্ড এই শতাংশও তো চাচ্ছে না। যা তাদের প্রাপ্য সেটাই চাচ্ছে।’

/এফআইআর/

লাইভ

টপ