জিতেছে রিয়াল, শেষ ষোলোতে লিভারপুল-সেভিয়া

Send
স্পোর্টস ডেস্ক
প্রকাশিত : ০৩:৪১, ডিসেম্বর ০৭, ২০১৭ | সর্বশেষ আপডেট : ০৪:২০, ডিসেম্বর ০৭, ২০১৭

গোল পেয়েছেন ক্রিস্তিয়ানো রোনালদোগ্রুপ চ্যাম্পিয়ন হয়ে যে শেষ ষোলোতে যাওয়া হচ্ছে না, সেটা আগের রাউন্ডের ম্যাচেই জানা হয়ে গিয়েছিল। তবু বরুশিয়া ডর্টমুন্ডের বিপক্ষে রিয়াল মাদ্রিদের ম্যাচটার গুরুত্ব কম ছিল না। এই ঘরের মাঠেই চ্যাম্পিয়নস লিগের আগের ম্যাচে টটেনহামের সঙ্গে ড্র করতে হয়েছিল রিয়ালকে। ডর্টমুন্ডের বিপক্ষে অবশ্য জিতেই মাঠ ছেড়েছে। তবে ইউরোপ চ্যাম্পিয়নদের সেজন্য দিতে হয়েছে কঠিন পরীক্ষা। জার্মান ক্লাবটির বিপক্ষে তাদের জয়টা ৩-২ গোলের।

রিয়ালের হার-জিত পয়েন্ট টেবিলে কোনও প্রভাব না ফেললেও লিভারপুরের জন্য ছিল শেষ ষোলোতে ওঠার লড়াই। যে লড়াইয়ে ফিলিপে কৌতিনিয়োর হ্যাটট্রিকে স্পার্তাক মস্কোকে ৭-০ গোলে উড়িয়ে দিয়ে নকআউট পর্ব নিশ্চিত করেছে ইংলিশ ক্লাবটি। মারিবোরের সঙ্গে ১-১ গোলে ড্র করে শেষ ষোলোর টিকিট কেটেছে সেভিয়াও।

সান্তিয়াগো বার্নাব্যুতে রিয়ালের জয়ের পথে গোল করেছেন ক্রিস্তিয়ানো রোনালদো। যাতে চ্যাম্পিয়নস লিগ ইতিহাসে নতুন এক রেকর্ড গড়েছেন পর্তুগিজ তারকা। রোনালদোই একমাত্র খেলোয়াড়, যিনি গ্রুপ পর্বের প্রত্যেক ম্যাচে লক্ষ্যভেদ করেছেন। ১২ মিনিটে তার গোলের আগেই অবশ্য ডর্টমুন্ডের বিপক্ষে লিড নিয়েছিল রিয়াল, অষ্টম মিনিটে যখন জাল খুঁজে পান বোরহা মায়োরাল।

২ গোলে পিছিয়ে পড়লেও হাল ছেড়ে দেয়নি আগেই চ্যাম্পিয়নস লিগ থেকে বিদায় নেওয়া ডর্টমুন্ড। ৪৩ মিনিটে তারা ঠিকই খেলায় ফেরে পিয়েরে-এমেরিক অবামেয়াংয়ের গোলে। বিরতি থেকে ফিরে এসে সফরকারীরা সমতায়ও ফেরে অবামেয়াংয়ের দ্বিতীয় লক্ষ্যভেদে। তবে রিয়ালকে বড় ধাক্কা থেকে বাঁচিয়েছেন লুকাস ভাসকেস। ৮১ মিনিটে এই উইঙ্গারের লক্ষ্যভেদে জয় নিয়ে মাঠ ছাড়ে বর্তমান ইউরোপ চ্যাম্পিয়নরা। ‘এইচ’ গ্রুপ থেকে আগেই চ্যাম্পিয়ন হওয়া টটেনহাম ঘরের মাঠে ৩-০ গোলে হারিয়েছে অ্যাপোয়েলকে।

৭-০ গোলে জিতেছে লিভারপুললড়াই জমে ছিল ‘ই’ গ্রুপে। লিভারপুল, সেভিয়া ও স্পার্তাক মস্কো- তিন দলেরই সুযোগ ছিল পরের রাউন্ডে যাওয়ার। লিভারপুল কোনও হিসাবে যায়নি, স্পার্তাক মস্কোকে আক্ষরিক অর্থে উড়িয়ে দিয়ে নিশ্চিত করেছে শেষ ষোলো। চতুর্থ মিনিটে পেনাল্টি থেকে লক্ষ্যভেদ করা কৌতিনিয়ো ১৫ ও ৪৫ মিনিটে আরও দুই গোল করে পূরণ করেন হ্যাটট্রিক। জোড়া গোল করেছেন সাদিও মানে। সঙ্গে রবার্তো ফিরমিনো ও মোহাম্মদ সালাহ লক্ষ্যভেদ করলে স্পার্তাককে ৭-০ গোলে উড়িয়ে দেয় ইংলিশ ক্লাবটি। তাদের জয়ে সেভিয়ার শেষ ষোলোও নিশ্চিত হয়ে যায়, যারা মারিবোরের মাঠ থেকে ফিরেছে ১-১ গোলে ড্র করে।

শাখতার দনেৎস্কের শেষ ষোলোতে ওঠার আনন্দনাপোলির বিদায়, শেষ ষোলোতে শাখতার:

চলতি চ্যাম্পিয়নস লিগে প্রথম হারের তিক্ততা পেয়েছে ম্যানচেস্টার সিটি। ঘরের মাঠে তাদের ২-১ গোলে হারিয়ে শেষ ষোলো নিশ্চিত করেছে শাখতার দনেৎস্ক। ইউক্রেনের ক্লাবটি পরের রাউন্ড নিশ্চিত করায় ‘এফ’ গ্রুপ থেকে বিদায় ঘণ্টা বেজে গেছে নাপোলির। ইতালির ক্লাবটি ২-১ গোলে হেরে ফিরেছে ফেইনুর্দের মাঠ থেকে।

‘জি’ গ্রুপ থেকে শেষ ষোলোতে পৌঁছেছে বেসিকতাস ও পোর্তো। বেতিকতাস ২-১ গোলে জিতে ফিরেছে লিপজিগের মাঠ থেকে, আর ঘরের মাঠে পোর্তো ৫-২ গোলে হারিয়েছে মোনাকোকে। গোল ডটকম

/কেআর/

লাইভ

টপ